আতিকুর রহমান মানিক:
উখিয়ায় প্রায় ১৮ লাখ টাকার জালনোটসহ এক রোহিঙ্গাকে আটক করেছে জনতা। ১৪ সেপ্টেম্বর (শনিবার) সন্ধ্যা ৭ টায় ১৭ লাখ ৯০ হাজার টাকার জালনোটসহ পালংখালী ষ্টেশন থেকে তাকে আটক করার পর পুলিশে সোপর্দ করা হয়।
আটক রোহিঙ্গার নাম এনাম উল্লাহ (২৫)। সে উখিয়ার ১৯ নং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের সি-৯ ব্লকের বাসিন্দা ও আশ্রিত রোহিঙ্গা হাছন আলীর ছেলে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রোহিঙ্গা এনাম একটি সিএনজি বেবি টেক্সী ভাড়া করে সারাদিন বিভিন্ন স্হানে ভ্রমন করে।
সন্ধ্যার পর পালংখালী বাজারে এসে সিএনজি ভাড়া দিতে গিয়ে ১০০০ টাকার নোট দেয়। নোটটা দেখে নকল বলে সন্দেহ হলে ড্রাইভার তাকে চ্যালেঞ্জ করে। এসময় পালানোর চেষ্টা করে এনাম। তখন উপস্হিত জনগন তাকে আটক করে সাথে থাকা হাতব্যাগ তল্লাশী করলে প্রায় ১৮ লাখ টাকার জাল নোট পাওয়া যায়।
স্থানীয় বাসিন্দা নুরুল বশর জানান, রোহিঙ্গা এনামকে জাল নোটসহ উখিয়া থানার পুলিশের হাতে হস্তান্তর করা হয়েছে। এই ধরনের বেশ কয়েকটি চক্র রোহিঙ্গা ক্যাম্পে সক্রিয় রয়েছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নজর দিলে খুঁজে বের করা সম্ভব বলে ধারণা করা হচ্ছে।
উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ আবুল মনছুর বলেন, জাল নোটসহ আটক রোহিঙ্গা যুবককে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। এর সাথে কে বা কারা জড়িত তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •