বিশেষ প্রতিবেদক :
টেকনাফ বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ খেলায় সেন্টমার্টিন ফুটবল টিমকে বেড়ধক মারধর করে রক্তাক্ত করেছে টেকনাফ সদর ইউনিয়ন ফুটবল টিমের সদস্যরাসহ স্থানীয় মাদকাসক্ত লোকজন।বর্তমানে টেকনাফ সদর হাসপাতালে সেন্টমার্টিন দ্বীপের ফুটবল টিমকে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।  গুরুতর আহতদের কক্সবাজার নেওয়ার প্রস্তুতি চলছে। হামলার প্রতিবাদে সেন্টমার্টিন দ্বীপে বিশাল মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। অন্যদিকে এমন  ন্যাক্কারজনক ঘটনা নিয়ে ফেসবুকে নিন্দা ও প্রতিবাদের ঝড় চলছে।

এই ব্যাপারে সেন্টমার্টিন দ্বীপের ইউপি চেয়ারম্যান নুর আহমদ জানান, খেলা যখন শূন্য শূন্য গোলে শেষ পর্যায় তখন হঠাৎ টেকনাফ সদর ইউনিয়ন ফুটবল টিম ও তাদের লোকজনজন আমার দ্বীপের ফুটবল টিমের উপর জঘন্যতম হামলা চালায়। এতে অনেকে গুরুতর আহত হয়েছে। এই ব্যাপারে ইউএনও মহোদয় বরাবরে অভিহিত করা হয়েছে। তিনি পদক্ষেপ নিবে বলে আশ্বস্ত   করেছেন।

সেন্টমার্টিন ফুটবল টিমের কর্তৃপক্ষ  জানান, আমরা সঠিক বিচার না পেলে এবং নিরাপত্তা নিশ্চিত করা না হলে আগামীর ফাইনাল ম্যাচ প্রত্যাখান ও  হামলাকারী সন্ত্রাসীদের চিহ্নিত করে মামলা দায়ের করা হবে।

এই হামলার বিষয়ে আয়োজক কমিটির গাফলতিকেই দায়ী করছেন সমাজের মহল। কারণ উক্ত খেলায় নিরাপত্তার কোন ব্যবস্থাপনা ছিলনা বলে দাবি সেন্টমার্টিন দ্বীপবাসীর। দ্বীপবাসীরা আরও জানান, পূর্বের উপজেলা কতৃক আয়োজিত টুর্নামেন্টেও সেন্টমার্টিন দ্বীপের ফুটবল টিমের উপর টেকনাফ পৌরসভা টিম হামলা চালিয়েছিল।

উল্লেখ্য, গত ১০ই সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং তারিখে টেকনাফ উপজেলা কতৃক আয়োজিত জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট (অনুর্ধ্ব ‘১৭) আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন হয়। এতে  টেকনাফ উপজেলা চেয়ারম্যান, টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী অফিসার, টেকনাফ থানার ওসি ও সাংবাদিক নেতৃবৃন্দসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

উক্ত টুর্নামেন্টে সেন্টমার্টিন ফুটবল টিম, হোয়াইক্ষং ফুটবল টিমকে পরাজিত করে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করে। আজ ১২ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত ম্যাচে টেকনাফ সদর ইউনিয়ন ফুটবল টিমকে পরাজিত করে ফাইনাল নিশ্চিত করে নেয়।

ফাইনালের চুড়ান্ত টিকিট নিশ্চিত করে টেকনাফ পৌরসভা টিম ও সেন্টমার্টিন ফুটবল টিম। উক্ত টিম দুইটির ফাইনাল ম্যাচ  ১৪ সেপ্টেম্বরে অনুষ্ঠিত হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •