অনলাইন ডেস্ক:

লাদাখ সীমান্তে ভারত ও চীনের সেনাবাহিনীর মধ্যে ফের উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। দুই দেশের সীমান্ত সেনারা মুখোমুখি বাগবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়লে এমন পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়।

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানায়, বুধবার ভোরে পূর্ব লাদাখের ১৩৪ কিমি লম্বা প্যাংগঙ লেকের উত্তর তীরে এই ঘটনা ঘটে। দুই পক্ষের সেনারা এ সময় হাতাহাতি ও বাগ্‌বিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়ে।

প্যাংগঙ লেকটি তিব্বত থেকে লাদাখ পর্যন্ত বিস্তৃত। তবে এটির দুই-তৃতীয়াংশই চিনের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। দুই দেশের সেনারাই স্থল ও জলপথে নিয়মিত টহল দিয়ে থাকে।

ভারতীয় সেনাবাহিনীর একটি সূত্র জানায়, “টহল দেওয়ার সময় চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মির সদস্যদের সঙ্গে বাগ্‌বিতণ্ডা বাঁধে ভারতীয় সেনাদের। ওই এলাকায় তাদের যেতে বাধা দেয় চীনা সেনারা। এতেই দুই পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়, যা হাতাহাতি পর্যন্ত গড়ায়। এমন পরিস্থিতিতে দু দেশই ওই এলাকায় বাড়তি সেনা সদস্য মোতায়েন করে।”

তবে দুই পক্ষের পতাকা বৈঠকের মাধ্যমে সারা দিনের এই উত্তেজনা শেষ হয় বলে জানা গেছে। অক্টোবরে ভারত সফরে আসছেন চীনা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং, তার আগে সীমান্তে এমন ঘটনা ঘটল।

ওই সূত্র আরও জানায়, ভারতের সঙ্গে চীনের সীমান্ত রেখা- লাইন অফ অ্যাকচুয়াল কন্ট্রোল (এলএসি) ঠিক কোথা দিয়ে গিয়েছে, তা নিয়ে দ্বন্দ্বের কারণে অনেক সময় এমন ঘটনা ঘটে। সীমান্ত বাহিনীর কর্মকর্তাদের পতাকা মাধ্যমে সেই সমস্যার সমাধান করা হয়।’

আগস্টের শুরুতে জম্মু-কাশ্মীর থেকে আলাদা করে লাদাখকে কেন্দ্রীয় শাসিত রাজ্য ঘোষণার পর থেকে ভারত-চীন সীমান্তে উত্তেজনা বেড়েছে।

লাদাখকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল করায় আপত্তি জানিয়েছিল বেইজিং। একই প্রেক্ষিতে কাশ্মীর ইস্যুতে জাতিসংঘে পাকিস্তানের কূটনৈতিক পদক্ষেপকে সমর্থন করে।

  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •