মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ হলিডে মোড় থেকে লার পাড়া পর্যন্ত প্রধান সড়কের সংস্কার কাজ পূণরায় শুরু করেছে। চলতি আগস্ট মাসের ৩ ও ৪ তারিখ কক্সবাজার শহরের হলিডে মোড় থেকে কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল লার পাড়া পর্যন্ত প্রধান সড়কের সংস্কার কাজ কিছুটা শুরু করলেও তা পরে বন্ধ হয়ে যায়। কক্সবাজারের প্রথম অনলাইন নিউজ পোর্টাল সিবিএন-এ “প্রধান সড়কের কি কোন ওয়ারিশ নেই” শিরোনামে সংবাদ প্রকাশ ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম সহ বিভিন্ন চাপে পড়ে কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ এ সংস্কার কাজ শুরু করেছিল। বৃষ্টির অজুহাতে ফটোসেশান করে সে সংস্কার কাজ দু’দিন পর বন্ধ হয়ে যায়। তখন কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান লেঃ কর্নেল ফোরকান আহমেদ পবিত্র হজ্ব পালন করতে সৌদি আরব ছিলেন। সাপ্তাহ খানেক আগে কউক চেয়ারম্যান লেঃ কর্নেল ফোরকান আহমেদ পবিত্র হজ্ব পালন করে দেশে ফিরে এসেছেন।
কউকে’র এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে- বুধবার ২৮ আগস্ট হতে ২য় বারের মতো কক্সবাজারের হলিডে মোড়-বাজারঘাটা-লারপাড়া (বাস টার্মিনাল) পর্যন্ত প্রধান সড়কের সংস্কার কাজ শুরু করেছে কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ।
এ ব্যাপারে কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান লে: কর্নেল (অব:) ফোরকান আহমদ, এলডিএমসি, পিএসসি জানান, কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ হলিডে মোড়-বাজারঘাটা-লারপাড়া (বাস স্ট্যান্ড) প্রধান সড়ক সংস্কারসহ প্রশস্তকরণ প্রকল্পটি গ্রহণ করেছে এবং ইতোমধ্যে একনেক সভায় অনুমোদন লাভ করেছে। খুব শীঘ্রই উক্ত প্রকল্পের কাজ শুরু হবে। কিন্তু বর্তমান বর্ষা মৌসুমে উক্ত রাস্তার বিভিন্ন অংশে ভেঙ্গে যাওয়ায় জনগনের দুর্ভোগের কথা বিবেচনা করে গত ০৩ ও ০৪ আগস্ট উক্ত সড়কের কিছু সংস্কার কাজ করা হয়েছিল। কিন্তু ঈদের আগে ও পরে অতিবৃষ্টির কারণে উক্ত সড়কের কিছু অংশে আবারো সংস্কার কাজের প্রয়োজন হওয়ায় বুধবার ২৮ আগস্ট হতে আবারো উক্ত সংস্কার কাজ শুরু করা হয়েছে বলে তিনি প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছেন।
এ ব্যাপারে কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের সদস্য (প্রকৌশল) লে: কর্নেল মোহাম্মদ আনোয়ার উল ইসলাম জানান, প্রধান সড়ক সংস্কারের জন্য আমাদের কোন অর্থ বরাদ্দ না থাকলেও জনগণের দুর্ভোগের কথা বিবেচনা করে গতবারের মতো এবারও সড়কের সংস্কার কাজ করা হচ্ছে এবং ভবিষ্যতেও প্রয়োজন অনুসারে তা করা হবে। উক্ত সড়কের সংস্কার কাজ বাস্তবায়নের সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য তিনি প্রশাসন, ট্রাফিক পুলিশ, সড়ক বিভাগসহ স্থানীয় জনসাধারণকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •