আমি সদ্য গঠিত কক্সবাজার জেলা জয়বাংলা তথ্য-প্রযুক্তি লীগের আহবায়ক। আমাকে জড়িয়ে সম্প্রতি কয়েকজন ব্যক্তি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মিথ্যাচার ও অপবাদ ছড়াচ্ছেন। তারা জঘন্যভাবে আমাকে ছাত্রদল ও শিবিরের সাবেক নেতা বলে অপপ্রচার চালাচ্ছেন। আমি চ্যালেঞ্জ করে বলছি- ছাত্রজীবনে ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে সক্রিয়ভাবে জড়িত ছিলাম। আমি চট্টগ্রাম বিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের সক্রিয় রাজনীতির সাথে শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত জড়িত ছিলাম।  মহিউদ্দদীন চৌধুরী প্যানেলের যুক্ত ছিলাম আমি। যার প্রমাণ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক আমাকে প্রত্যয়নপত্র দিয়েছেন।

প্রকৃত ঘটনা হচ্ছে- জমি সংক্রান্ত পারিবারিক ও এলাকাভিক্তিক শত্রুতা তার কারণে আমার এলাকার একটি কুচক্রী মহল আমাকে হেয়প্রতিপন্ন ও কোণোঠাসা করার জন্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আমার বিরুদ্ধে মিথ্যাচার ও অপপ্রচার চালাচ্ছেন। ওইসব অপ্রচারকারীরা ইতিমধ্যে চিহ্নিত হয়েছে। যারা আমার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালিয়েছেন প্রমাণ সাপেক্ষে আমি আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার প্রক্রিয়ায় রয়েছি।

পরিশেষে ষড়যন্ত্রকারীদের অপপ্রচারে বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য সকলকে আহ্বান জানাচ্ছি এবং মিথ্যাচারে তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি।

নিবেদক
ইমরান খান তুহিন
আহবায়ক- জয় বাংলা তথ্য-প্রযুক্তি লীগ, কক্সবাজার জেলা শাখা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •