মমতার সাফ কথা, পশ্চিমবঙ্গে ডেঙ্গু ছড়াচ্ছে বাংলাদেশের মশা

সিবিএন ডেস্ক :

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ডেঙ্গু নিয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য করেছেন।তিনি বলেছেন, পশ্চিমবঙ্গে ডেঙ্গু ছড়িয়ে পড়ার পিছনে বাংলাদেশের মশাদের সক্রিয় ভূমিকা থাকতে পারে। সীমান্ত এলাকায় মশা ও-পার থেকে এ-পারে আসে, এ-পার থেকে ও-পারে যায়। দু’পারেই অনেক লোকও যাতায়াত করেন। সব মিলিয়ে তাই ডেঙ্গু সংক্রমণের প্রবণতা বাড়ার সম্ভাবনা প্রবল বলে তিনি মন্তব্য করেন। বৃহস্পতিবার (১ আগস্ট) সন্ধ্যায় কলকাতায় এক অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন। উল্লেখ্য, সীমান্তবর্তী উত্তর ২৪ পরগণা জেলার হাবড়ায় ইতিমধ্যেই ডেঙ্গু ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়েছে। মুখ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে খুব ডেঙ্গু হচ্ছে। তাই বাড়তি সাবধানতা নিতে হবে বলে সকলকে সতর্ক করে দিয়েছেন। সীমান্ত এলাকায় ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণের উপর তিনি বিশেষভাবে জোর দিয়েছেন। অবশ্য পশ্চিমবঙ্গে ইতিমধ্যেই ৭০০ জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন।
তার মধ্যে সব থেকে বেশি রোগী পাওয়া গিয়েছে উত্তর ২৪ পরগনার সীমান্তবর্তী এলাকা হাবড়ায়। জেলার সরকারি হিসেব অনুযায়ী, প্রায় ৫০ -৬০ শতাংশ ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী পাওয়া গিয়েছে সেখানে। জেলার ব্যারাকপুরে ৫৬, অশোকনগর-কল্যাণগড়ে ৫৬, ভাটপাড়ায় ৩৮, বিধাননগরে ৩০ জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন। জেলার টিটাগড় ৫৩, পানিহাটিতে ৪০ এবং খড়দায় ৩৬ জন ডেঙ্গু রোগী পাওয়া গিয়েছে। কলকাতাতেও কয়েকজন ডেঙ্গু রোগীর সন্ধান পাওয়া গেলেও এখন পর্যন্ত কলকাতায় মৃত্যুর কোনও খবর নেই বলে পৌরসভার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ

নাইক্ষ্যংছড়ি এসএ সরকারি উচ্চবিদ্যালয়ের সুবর্ণ জয়ন্তীর রেজিষ্ট্রেশন শুরু

জামেয়া দারুল মাআরিফের দস্তারবন্দি সফল করতে কক্সবাজারে মতবিনিময়

জনপ্রশাসন বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি আশিকুর রহমান কক্সবাজারে

মিজ্জিরপাড়া প্রবাসী কল্যাণ একাডেমীর কোরআন তেলওয়াত প্রতিযোগিতা ২০ জানুয়ারি

চকরিয়ায় আসছেন ওবায়দুল কাদের : লক্ষাধিক মানুষের উপস্থিতি ঘটাতে ব্যাপক প্রস্তুতি

মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় কোরআন বুকে রাখা যুবক অক্ষত, বাকি সবাই হতাহত!

কাদামাটি ও দুর্গন্ধযুক্ত পানির উপর দিয়েই যেতে হয় সাগর পাড়ে

পটিয়ায় দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে কক্সবাজারের ১জনসহ নিহত ২

মাদকমুক্ত বাংলাদেশ বিনির্মানে তরুণদের ভূমিকা রাখতে হবে : ডিসি কামাল

ওসি দিদারুল ফেরদাউসের বিচক্ষণতায় কুতুবদিয়া বাসযোগ্য চমৎকার দ্বীপ

ইরানে অস্থিরতা: ৮ বছর পর জুমার নামাজের ইমাম খামেনি

কক্সবাজার বিমানবন্দরে কুকুরের উৎপাত, আতঙ্কে পাইলটরা

অতিরিক্ত সচিব মরণ কুমার চক্রবর্তীকে কক্সবাজার পৌর পরিষদের শুভেচ্ছা

সবার দাবি – “কক্সবাজারে সরকারি (পাবলিক) বিশ্ববিদ্যালয় চাই”

বিচারপতি জেবিএম হাসান কক্সবাজারে

পেকুয়ার মাস্টার মাহফুজুল করিম আর নেই, জুমার পর জানাজা

ছুটির দিনে পড়ালেখা

ইরানের হামলায় ১১ মার্কিন সেনা আহত

শেয়ারবাজার উন্নয়নে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের ৬ উদ্যোগ

শহীদ দৌলত ময়দানে গুনীজন সংবর্ধনা আজ