cbn  

মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

জনপ্রশাসন পদক ও বিভাগীর শ্রেষ্ঠ জেলা প্রশাসকের পুরস্কার প্রাপ্তি আমার দায়িত্ব ও কর্তব্যকে আরো অনেকগুন বাড়িয়ে দিয়েছে। বর্তমান প্রেক্ষাপটে কক্সবাজার জেলা দেশব্যাপী অনেক বেশী ভাল অবস্থানে রয়েছে। সে অবস্থানকে ধরে রাখতে পারবো কিনা, সেটা আমার ভয় হচ্ছে। কিন্তু আমার চিন্তা হলো-কক্সবাজার জেলাকে সারা দেশব্যাপী একটি মডেল জেলা হিসাবে প্রতিষ্ঠা করবো ইনশাল্লাহ। এ বিশাল অর্জন আমার একার নয়, এটা একটা প্রাতিষ্ঠানিক অর্জন। কক্সবাজার জেলার সংসদ সদস্য, কর্মকর্তা, রাজনীতিবিদ, পেশাজীবী, সাধারণ মানুষের সম্মিলিত প্রচেষ্টা ও কর্মগুনে এ বিরল ও জাতীয় অর্জন সম্ভব হয়েছে। তাই এ বিশাল অর্জন সমগ্র জেলাবাসী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রতি আমি উৎসর্গ করলাম। কক্সবাজারের নাগরিকেরা অনেক বেশী উদার মানসিকতা সম্পন্ন। তাঁরা জমি দিয়েছে বলেই সরকারের একাধিক মেঘা প্রকল্প গুলোর কাজ বাস্তবায়ন করা সম্ভব হচ্ছে। যেভাবে আজকের আনন্দ সমাবেশ সার্বজনীনভাবে করা হচ্ছে, ঠিক সে ভাবেই আমরা ভবিষ্যতে প্রিয় কক্সবাজারকে সম্মিলিত প্রচেষ্টায় এগিয়ে নিতে পারবো বলে আমার দৃঢ় বিশ্বাস রয়েছে। এই অদম্য অগ্রযাত্রায় সবাইকে সারথি হিসাবে নিয়ে প্রেরণা ও প্রত্যয়ে এগিয়ে যাবো ইনশাল্লাহ। এ পদক ও পুরস্কার প্রাপ্তি আমাদেরকে আরো উৎসাহিত ও অনুপ্রাণিত করেছে, দায়বদ্ধতা আরো বাড়িয়ে দিয়েছে। প্রাতিষ্ঠানিক পর্যায়ে সাধারণ শ্রেণীতে কক্সবাজার জেলা প্রশাসন ‘জনপ্রশাসন পদক-২০১৯’ অর্জন করায় এবং চট্টগ্রাম বিভাগের শ্রেষ্ঠ জেলা প্রশাসকের পুরস্কার লাভ করায় কক্সবাজারের জেলা প্রশাসককে প্রদত্ত এক সম্বর্ধনায় সম্বর্ধিত অতিথি জেলা প্রশাসক মোঃ কামাল হোসেন এ কথা বলেন।

আনন্দ সমাবেশ উদযাপন পরিষদের উদ্যোগে কক্সবাজার জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি এডভোকেট সিরাজুল মোস্তফার সভাপতিত্বে কক্সবাজার সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে মঙ্গলবার ৩০ জুলাই বিকেলে অনুষ্ঠিত উক্ত আনন্দ সমাবেশে বক্তৃতা করেন কক্সবাজার-১ ও আসনের সংসদ সদস্য যথাক্রমে আলহাজ্ব জাফর আলম ও আশেক উল্লাহ রফিক, কক্সবাজারের ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ইকবাল হোসাইন, কক্সবাজার পৌরসভার মেয়র মুজিবুর রহমান, কক্সবাজার সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ফজলুল করিম, বীর মুক্তিযোদ্ধা কামাল হোসেন চৌধুরী, কক্সবাজার প্রেসক্লাবের সভাপতি ও দৈনিক সৈকত সম্পাদক মাহবুবুর রহমান, সিনিয়র সাংবাদিক ও দৈনিক কালেরন্ঠের সিনিয়র স্টাফ রিপোর্টার তোফায়েল আহমদ, বিটিভি’র জেলা প্রতিনিধি ও কক্সবাজার সাংবাদিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক জাহেদ সরওয়ার সোহেল, কক্সবাজার সিটি কলেজের অধ্যক্ষ ক্যাথিন রাখাইন, কক্সবাজার সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কায়সারুল হক জুয়েল, কক্সবাজার চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি আবু মোর্শেদ খোকা, বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের ট্রাস্টি ও জেলা হিন্দু বৌদ্ধ খৃষ্টান ঐক্য পরিষদের নির্বাহী সভাপতি এডভোকেট দীপংকর বড়ুয়া পিন্টু, সহকারী পুলিশ সুপার (ট্রাফিক) বনিক কুমার, জেলা পুজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি এডভোকেট রনজিত দাশ, দেশ টিভি’র কক্সবাজার প্রতিনিধি মোহাম্মদ নজীবুল ইসলাম, কক্সবাজার জেলা জাসদের সভাপতি নঈমুল হক চৌধুরী টুটুল প্রমুখ। সমাবেশে বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক, ক্রীড়া, রাজনৈতিক, পেজাজীবী প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে জেলা প্রশাসক মোঃ কামাল হোসেনকে ফুল ও উপহার দিয়ে ব্যাপকভাবে সম্বর্ধিত করা হয়। আনন্দ সমাবেশ শেষে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •