মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী:

পবিত্র ঈদুল আযাহার কোরবানিকে সামনে রেখে টেকনাফের শাহপরীর দ্বীপের করিডোর দিয়ে পশু আমদানি বাড়াতে পশু ব্যবসয়ীদের সাথে যৌথসভা করেছে (বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ) বিজিবি’র টেকনাফস্থ ২ নম্বর ব্যাটলিয়ন।
সোমবার ১৫ জুলাই টেকনাফ-২ বিজিবি’র হেড কোয়ার্টারের সম্মেলন কক্ষে অধিনায়য়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সাল হাসান খানের সভাপতিত্বে উক্ত মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় পশু আমাদানিকারক ব্যবসায়ীরা পশু আমদানিতে তাদের বিভিন্ন সমস্যা তুলে ধরে বলেন, আবহাওয়া দূর্যোগপূর্ণ থাকায় গত /১৪/১৫ দিন পশু আমদানি সাময়িকভাবে বন্ধ ছিল। এখন আবহাওয়া স্বাভাবিক হতে থাকায় ব্যবসায়ীরা পুনরায় মিয়ানমার থেকে পশু আমদানি শুরু করেছেন বলে সভায় জানান। ব্যাবসায়ীরা বলেন, এ অবস্থা অব্যাহত থাকলে পশু আমদানি আরও বাড়ানো হবে। কোরবানির ঈদ সামনে রেখে প্রায় ২০ সহস্রাধিক পশু আমদানির টার্গেট রাখা হয়েছে। সভায় ব্যবসায়ীরা বলেন-পথে পথে চাঁদাবাজী সহ বিভিন্ন ধরনের অনৈতিক হয়নারীর কারণে তারা ক্ষতিগ্রস্ত ও অনেকেই মায়ানমার থেকে পশু আমদানিতে অনাগ্রহ দেখান। সভায় অধিনায়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান, ‘ঈদকে সামনে রেখে মিয়ানমার থেকে বেশি করে পশু আমদানি করার জন্য ব্যবসায়ীদের উৎসাহিত করে বলেন-আমদানি কার্যক্রম সহজ ও সাবলীল করতে বিজিবি কঠোর নজরদারি করবে। যাতে আসন্ন ঈদুল আযাহা উপলক্ষে প্রচুর কোরবানীর পশুর চাহিদা কিছুটা হলেও পূরণ হবে এবং এ অন্ঞ্চলে কোরবানীর পশুর দাম সহনীয় পর্যায়ে থাকে। তিনি আরো বলেন, পরিবহনের সময় পথে পথে চাঁদাবাজি এবং ব্যবসায়ীরা যাতে কোনও ধরনের হয়রানির শিকার না হন, সে বিষয়ে সমন্বিতভাবে খেয়াল রাখা হবে।’

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •