প্রেস বিজ্ঞপ্তি:
বিশ্বের দীর্ঘতম সমুদ্র শহর কক্সবাজারে স্বাধীনতার ৪৮ বছরেও একটি শিশুপার্ক স্থাপন না হওয়া দুঃখজনক বলে মন্তব্য করেছে জেলার অন্যতম অধিকার আদারের সামাজিক সংগঠন আমরা কক্সবাজারবাসী।

নেতৃবৃন্দ ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, রাজনৈতিক নেতা ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের অযোগ্যতা এবং আমলাতান্ত্রিক জটিলতা মাঝে আটকে আছে পর্যটন নগরীর লাখো শিশু-কিশোরের স্বপ্নের শিশুপার্ক।

কক্সবাজার শহরে একদিকে যেমন উন্নয়নের নামে একের পর এক খেলার মাঠ দখল হয়ে গেছে ঠিক তেমনি করে জেলার প্রাচীনতম সমুদ্র সৈকতের ঝিনুক মার্কেটের পয়েন্টটি দখল করে নিয়েছে একটি বিশেষ সংস্থা যার ফলে অনেকটা অবরোদ্ধ হয়ে আছে কয়েক লক্ষ পৌরবাসী।

নেতৃবৃন্দ আরো ক্ষোভের সাথে বলেন, সম্প্রতি সময়ে পুরাতন ঝিনুক মাকের্ট বিচ দিয়ে বিয়াম স্কুলের পাশে ‘নামসর্বস্ব’ একটি শিশুপার্কের জন্য সাইনবোর্ড স্থাপন করলেও তা বছর গেলেও দৃর্শ্যমান কোন অগ্রগতি না হওয়ায় হতাশা প্রকাশ করা হয়। একই সাথে প্রস্তাবিত শিশুপার্কের জমিতে বিশেষ বাহিনির হাত থেকে দখল মুক্ত করে দ্রুত সময়ের মধ্যে শিশুপার্ক স্থাপন করার জন্য প্রশাসনের প্রতি জোর দাবী জানান। একই সাথে শহর থেকে বিমান ঘাঁটি অন্য কোথাও স্থান্তরের জন্য প্রধানমন্ত্রীর স্থক্ষেপ কামনা করেন।

অন্যতায় নিজেদের অধিকার আদায়ে সুন্দর আগামীর শিশু বান্ধন পর্যটন নগরী গড়ে তুলতে দূর্বার আন্দোলন গড়ে তুলা হবে বলে হুশিয়ারি দিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন, জেলা আওয়ামী লীগের প্রভাবশালী সদস্য ও দৈনিক দৈনন্দিন পত্রিকার প্রধান সম্পাদক রাশেদুল ইসলাম, কক্সবাজার জেলা জাতীয় পার্টি সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান মুফিজ, প্রবীন সিপিবি নেতা সমীর পাল, আমরা কক্সবাজারবাসী’র’ সমন্বয়ক কলিম উল্লাহ,নাজিম উদ্দিন, আমরা কক্সবাজারবাসী“র’ সমন্বয়ক দৈনিক সকালের কক্সবাজার নির্বাহী সম্পাদক মহসিন শেখ, সংগঠনের সমন্বয়ক দৈনিক আপন কণ্ঠের নির্বাহী সম্পাদক এইচ.এম নজরুল ইসলাম, কক্সবাজার উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদের সভাপতি রুহুল আমিন সিকদার, খেলাঘর সংগঠক ও কক্সবাজারবাসীর সমন্বয়ক জসিম উদ্দিন, জেলা সিপিবির সাবেক সাধারণ সম্পাদক কমরেড অনিল দত্ত, সাংবাদিক ইব্রাহীম খলিল মামুন, মুহাম্মদ উর রহমান মাসুদ, ইমাম খাইর, শিশু সংগঠক কল্লোল দে চৌধুরী, জেলা ছাত্রলীগের সিনিয়র সহসভাপতি ইসমাইল সাজ্জদ, ছাত্রনেতা জাহেদুল ইসলাম রিটন, সাংবাদিক আজিজ রাসেল, আরফাতুল মজিদ, আজিম নিহাদ প্রমুখ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •