এম.মনছুর আলম ,চকরিয়া :

চকরিয়ায় রাতের আঁধারে দরজা ভেঙ্গে এসআলম পরিবহনের ম্যানেজারের বসতঘরে হামলা ও লুটপাটের ঘটনা ঘটেছে। বুধবার দিবাগত রাত তিনটার দিকে চকরিয়া পৌরসভার ৮ নম্বর ওয়ার্ডের চিরিঙ্গা স্টেশনপাড়া গ্রামে ঘটেছে এ হামলা ও লুটের ঘটনা।

আক্রান্ত পরিবারটির গৃহকর্তা চিরিঙ্গা স্টেশনপাড়া গ্রামের মৃত আবদুল গণির ছেলে আবুল কালাম জানান, তিনি চকরিয়া পৌরবাস টার্মিনালে এসআলম পরিবহনের সহকারি ম্যানেজার হিসেবে কর্মরত রয়েছেন। গত ৪ জুন একটি তুচ্ছ ঘটনার জেরে জেঠাতো ভাই আবদুস সালাম তাঁর স্ত্রী কমরুন নাহারকে মারধরের অভিযোগ তুলে আমিসহ পরিবারের ৮জনকে আসামি করে চকরিয়া থানায় একটি মিথ্যা মামলা করেন। এতে আসামি করা হয় আমি এবং আমার স্ত্রী জোসনা আক্তার, দুই ছেলে, একভাই, দুই ভাতিজা ও ভাবীকে। মামলার পর থেকে আমরা ভয়ে এলাকা ছেঁেড় অন্যত্র আশ্রয় নিয়েছি।

আবুল কালাম বলেন, বাড়িতে থাকেন তাঁর বৃদ্ধ মা রকিমা বেগম ও এসএসসি পাশ মেয়ে শারমিন আক্তার। ঘটনার দিন বুধবার রাত আনুমানিক তিনটার দিকে ৫-৬জনের মুখোশধারী অস্ত্রধারী বাড়ির পেছনের দরজা ভেঙ্গে ভেতরে ঢুকে আমার মা ও মেয়েকে অস্ত্রের ভয় দেখায়। পরে তাদেরকে প্রাণে হত্যার হুমকি দিয়ে অস্ত্রধারীরা চাবি নিয়ে আলমিরায় রক্ষিত আমার বড়মেয়ের ৪ ভরি স্বর্ণ ও নগদ ৮০ হাজার টাকা এবং নতুন কাপড়-চোপড় লুটে নিয়ে গেছে।

গৃহকর্তা আবুল কালামের অভিযোগ, জেঠাতো ভাই আবদুস সালামের ঘটনার জেরে বহিরাগত অস্ত্রধারীদের দিয়ে বাড়িতে নারী-পুরুষ সদস্যরা না থাকার সুযোগে হামলা ও লুটপাটের ঘটনাটি সংগঠিত করেছে। আমি এ ঘটনায় আইনের আশ্রয় নেব।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •