আব্দুল আলীম নোবেলঃ

কোন নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করে চকরিয়া উপজেলা পরিষদে প্যানেল চেয়ারম্যান নির্বাচিত করায় গুরুতর অভিযোগ উঠেছে। গত ২৪ই জুন উপজেলা পরিষদের মাসিক সভায় নানা নাটকীয়তার মধ্য দিয়ে চকরিয়া উপজেলা চেয়ারম্যনের এক নিকট আত্মীয় ভাইস চেয়ারম্যান মকছুদুল হক ছুট্টো’কে চকরিয়া উপজেলার প্যানেল চেয়ারম্যান-১ নির্বাচিত করে বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রচার করে। একই পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান জেসমিন হক জেসি বিষয়টি চরম ভাবে নিয়ম বহির্ভূত হয়েছে বলে কক্সবাজার জেলা প্রশাসক বরাবরে একটি লিখিত আবেদন করেছে বলে জানা গেছে।

উপজেলা পরিষদ ম্যানুয়েল ধারা ১৫ অনুচ্ছেদ-১,৪ অনুযায়ী নির্বাচিত ভাইস চেয়ারম্যানগণ থেকে প্যানেল চেয়ারম্যান মনোনয়ন ও নির্বাচনের সু-স্পস্ট বিধান থাকা সত্ত্বেও উপজেলা চেয়ারম্যান কর্তৃক ভাইস চেয়ারম্যানগণ হইতে অগ্রাধিকারক্রমে প্যানেল চেয়ারম্যান নির্বাচর করার বিধি অনুসরণ করা হয় নাই। দেশের প্রচলিত প্রতা অনুসারে নির্বাচিত দুই ভাইস চেয়ারম্যান হইতে সর্বোচ্চ ভোট প্রাপ্তি, শিক্ষাগত যোগ্যতা এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানকে প্যানেল চেয়ারম্যান নির্বাচন করার অগ্রাধিকার প্রদান করা হয়ে থাকে। কিন্তু চকরিয়া উপজেলা পরিষদে কোন নিয়মনীতি না মেনে প্যানেল চেয়ারম্যান নির্বাচিত করা হয়েছে। বিধান অনুসারে প্যানেল চেয়ারম্যান নির্বাচন উপজেলা চেয়ারম্যান একক ভাবে উপজেলা পরিষদ মাসিক উন্নয়ন সমন্বয় সভার মাধ্যমে নির্বাচন করার কোন ধরণের এখতিয়ার ও অধিকার রাখে না। তা সত্ত্বেও সরকারীভাবে কোন প্রকার চিঠিপত্র প্রাপ্তি ছাড়া চকরিয়া উপজেলা পরিষদ মাসিক উন্নয়ন সমন্বয় সভার মাধ্যমে বেশ কিছু চেয়ারম্যানের স্বাক্ষর নিয়ে প্যানেল চেয়ারম্যান ঘোষণা করা অনেকটা হাস্যকর বলে জানান এলাকার সচেতন মহল।

বিগত এই উপজেলা পরিষদে সরকার শিক্ষাগত যোগ্যতা, সর্বোচ্চ ভোট প্রাপ্তি ও মহিলা বিবেচনায় মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানকে প্যানেল চেয়ারম্যান-১ নির্বাচন করা হয়েছিল। এবারে এমন নিয়মকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে অনেকটা স্ব-ঘোষিত প্যানেল চেয়ারম্যান ঘোষণা করে পুরো পরিষদকে সমালোচনা ও বিতর্কের মুখে ঠেলে দেন বলে জানান চকরিয়া উপজেলার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান জেসমিন হক জেসি। এছাড়াও তিনি উক্ত বিষয়ে স্থানীয় সরকার পল্লি উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার সহ চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরে অনুলিপি দায়ের করেছে বলে জানান।

এই ব্যাপারে চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নুরুদ্দীন মোহাম্মদ শিবলী নোমান এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি এই বিষয়ে পরে কথা বলবে জানান।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •