বিশেষ প্রতিনিধি :
কক্সবাজার শহরতলীর দরিয়ানগর পিকনিক স্পটের ভেতরে দুই কলেজ শিক্ষার্থীকে ছুরিকাঘাত করে সর্বস্ব ছিনিয়ে নিয়েছে দূর্বৃত্তরা। আজ মঙ্গলবার দুপুর দেড়টার দিকে পিকনিক স্পটের পাহাড়চূড়ায় এ ঘটনা ঘটে। আহত মো. শাহজাহান (১৯) ও রিয়া কক্সবাজার সিটি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের একাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থী।
আহত শিক্ষার্থী শাহজাহান জানান, আজ মঙ্গলবার দুপুরে বান্ধবীকে নিয়ে তিনি বনবিভাগের কলাতলী পিকনিক স্পটে (দরিয়ানগর পর্যটন কেন্দ্র) বেড়াতে আসেন। টিকেট কেটে ভেতরে ঢুকে তারা পাহাড়চূড়ায় ওঠে সমুদ্র সৈকতসহ আশেপাশের নিসর্গ উপভোগ করার সময় তাদের উপর হামলে পড়ে চার ছিনতাইকারী। ছিনতাইকারীরা পর্যটক বেশে এসে আকস্মিকভাবে ছুরিকাঘাত করে মোবাইল ও নগদ টাকাসহ দুজনের কাছ থেকে সর্বস্ব ছিনিয়ে নেয়। ছিনতাইকারীদের বয়স ২৮ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে হবে বলে জানান তিনি।
তিনি আরো জানান, ঘটনার পর চার ছিনতাইকারী পাশ্ববর্তী পাহাড় দিয়ে দক্ষিণ দিকে চলে যায়। এরপর তারা প্রাথমিক চিকিৎসা নেন।
স্থানীয় ব্যবসায়ীরা জানান, দরিয়ানগর পর্যটন কেন্দ্রটি বনাঞ্চলের সাথে। ভেতরে কোন ঘেরাবেড়া নেই। নেই কোন পাহারাদারও। মাত্র একজন টিকেট বিক্রেতা দিয়েই চলছে পার্কটি। পার্কের দক্ষিণ পাশের বনাঞ্চল দিয়ে অনায়াসে এ পার্কে ঢুকে যেকোন অঘটন ঘটিয়ে নিরাপদে পালিয়ে যাওয়ার সুযোগ রয়েছে। এরআগেও পার্কের অভ্যন্তরে এই ধরনের ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে।
ঘটনার ব্যাপারে পার্কের কাউন্টার ম্যানেজার বলেন, আহত দুই কলেজ শিক্ষার্থীকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। ছিনতাইকারীদের চিহ্নিত করে তাদেরকে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার হাতে তুলে দেয়ার চেষ্টা চলছে।
এবিষয়ে কক্সবাজার দক্ষিণ বনবিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মো. হুমায়ূন কবির বলেন, এ পিকনিক স্পটটি বর্তমানে ইজারাদারের অধীনে চলছে। তাই পার্কের নিরাপত্তার দায়িত্ব তাদের।
কক্সবাজার সদর থানার ওসি ফরিদউদ্দিন খোন্দকার বলেন, পার্কের ভেতরে এই ধরনের ঘটনা দু:খজনক। পার্কের অভ্যন্তরে পর্যটকদের নিরাপত্তা বিঘিœত হলে সেই পার্ক বন্ধ করে দেওয়া উচিৎ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •