ড. নাজনীন কাউসার চৌধুরী যুগ্মসচিব হিসেবে পদোন্নতি পেলেন

সিবিএন ডেস্ক :

চট্টগ্রামের উত্তর কাট্টলীর বিখ্যাত নাজির বাড়ীর সন্তান ড. নাজনীন কাউসার চৌধুরীযুগ্মসচিব হিসেবে পদোন্নতি পেয়েছেন। তিনি ‘বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস (প্রশাসন)’- ১৫ ব্যাচের সদস্য। দীর্ঘ ২৩.৫ বছরের চাকুরী জীবনে ড. নাজনীন দেশে এবং বিদেশে বিভিন্ন গুরুত্ত্বপুর্ণ পদে কাজ করেছেন। তিনি দেশে মাঠ পর্যায়ে এবং বাংলাদেশের প্রশাসনিক প্রানকেন্দ্র- বাংলাদেশ সচিবালয়ে কাজ করেছেন।
মাঠ পর্যায়ে তিনি জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে সহকারী কমিশনার ও ম্যাজিস্ট্রেট, বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ে সহকারী কমিশনার এবং সিনিয়র সহকারী কমিশনার, বাংলাদেশ কর্মচারী কল্যাণ বোর্ডে বিভাগীয় উপপরিচালক ও অফিস প্রধান, সমাজসেবা অধিদফতরের বিভাগীয় পরিচালক ও অফিস প্রধান হিসেবে কাজ করেছেন। বাংলাদেশ সচিবালয়ে তিনি কাজ করেছেন অর্থ মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন অর্থ বিভাগে এবং মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ে।

বিদেশে তিনি ডিপ্লোম্যাট হিসেবে বেলজিয়ামের ব্রাসেলস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রথম সচিব এবং অর্থনৈতিক উইং এর প্রধান হিসেবে কাজ করেছেন। উক্ত পদে তিনি বাংলাদেশ-ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন; বাংলাদেশ-বেলজিয়াম এবং বাংলাদেশ-লুক্সেমবার্গ এর অর্থনৈতিক ও উন্নয়ন সহযোগিতার সকল কার্যক্রমের প্রধান সমন্বয়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি পরিবেশ, বন এবং জলবায়ূ মন্ত্রণালয়ের অধীনে বাংলাদেশ রাবার বোর্ডের সচিব হিসেবে কর্মরত থাকা অবস্থায় যুগ্মসচিব হিসেবে পদোন্নতি পেয়েছেন।

ড. নাজনীন দেশে ও বিদেশের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান থেকে শিক্ষা লাভ করেন। দেশে তিনি সেন্ট স্কলাস্টিকা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, চট্টগ্রাম কলেজ ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়ন করেন। তিনি ‘অস্ট্রেলিয়ান লিডারশীপ এওয়্যার্ড (ALA)’ নিয়ে ‘অস্ট্রেলিয়ান ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি (ANU)’, অস্ট্রেলিয়া থেকে অর্থনীতিতে ‘পিএইচডি’ ডিগ্রী অর্জন করেছেন। পিএইচডি’র আগে তিনি ‘অস্ট্রেলিয়ান ডেভেলপম্যান্ট স্কলারশীপ (ADS)’ নিয়ে অস্ট্রেলিয়ার একই বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ‘Merit (Distinction)’সহ অর্থনীতিতে এমএস এবং পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ডিপ্লোমা ডিগ্রী অর্জন করেন।

অস্ট্রেলিয়াতে পড়াশোনার পাশাপাশি তিনি ‘অস্ট্রেলিয়ান ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি (ANU)’র ‘অস্ট্রেলিয়া-জাপান রিসার্চ সেন্টার’ এ গবেষক হিসেবে, ‘ক্রফোর্ড স্কুল অফ ইকনমিক্স’ এ অর্থনীতির বিভিন্ন বিষয়ে শিক্ষকতাসহ ANU’র বিভিন্ন প্রশাসনিক পদে কাজ করেছেন। এছাড়া তিনি ২০১০ সাল থেকে ‘অস্ট্রেলিয়ান জার্নাল অফ এগ্রিকালচার এন্ড রিসোর্স ইকনমিক্স (AJARE)’ এর ‘ম্যানুস্ক্রিপ্ট রিভিউয়ার’ হিসেবে কাজ করছেন।

তিনি একজন অর্থনীতিবিদ হিসেবে অস্ট্রেলিয়া, আমেরিকা ও ইউরোপের বিভিন্ন অর্থনীতি সমিতির সদস্য এবং বাংলাদেশ অর্থনীতি সমিতি ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন অর্থনীতি ছাত্র-ছাত্রী সমিতির আজীবন সদস্য।তিনি উচ্চশিক্ষা ও বিভিন্ন প্রশিক্ষণের জন্যে আইএমএফ ফেলোশিপ (২০১২), অস্ট্রেলিয়ান লীডারশীপ এওয়ার্ড (২০০৭), অস্ট্রেলিয়ান এন্ডেভার পোস্ট-গ্র্যাজুয়েট এওয়ার্ড (২০০৭), অস্ট্রেলিয়ান ডেভেলপম্যান্ট স্কলারশীপ (২০০১), অস্ট্রেলিয়ান ক্রফোর্ড গ্র্যান্ট (২০১০), ডব্লিউটিও গ্র্যান্ট (২০০৬), ডানিডা ফেলোশিপ এন্ড গ্র্যান্ট (২০০৫)’সহ বিভিন্ন এওয়ার্ড, ফেলোশিপ ও সার্টিফিকেট অর্জন করেছেন।

অস্ট্রেলিয়ায় দীর্ঘ সাড়ে ছয় বছর অবস্থানকালে ড. নাজনীনবিভিন্ন লীডারশীপ পজিশনে থেকে ইউনিভার্সিটি ও জাতীয় পর্যায়ে বিভিন্ন ক্ষেত্রে সফলতার পরিচয় দিয়ে আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করেছেন। তিনি অস্ট্রেলিয়ান সরকারের ‘এনডেভার পোস্ট গ্র্যাজুয়েট এওয়্যার্ড’, অস্ট্রেলিয়ান মাল্টি কালচারাল মন্ত্রী এবং অস্ট্রেলিয়ান ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি থেকে স্টুডেন্ট এম্বেসেডর এওয়ার্ডসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে তার অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ বেশ ক’টি এওয়্যার্ড অর্জন করেন।

তিনিই প্রথম বাংলাদেশী স্টুডেন্ট, যিনি ‘অস্ট্রেলিয়ান ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি পোস্ট গ্র্যাজুয়েট এন্ড রিসার্চ স্টুডেন্ট এসোসিয়েশন (PARSA)’ এর প্রেসিডেন্ট (২০১০ সালে) ও ভাইস-প্রেসিডেন্ট (২০০৯ সালে) হিসেবে এবং জাতীয় পর্যায়ে ‘কাউন্সিল ফর অস্ট্রেলিয়ান পোস্ট গ্র্যাজুয়েট এসোসিয়েশন (CAPA)’ এর উইম্যান অফিসার(২০১০ সালে) হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন। তিনিই প্রথম বাংলাদেশী স্টুডেন্ট যিনি অস্ট্রেলিয়ান ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির‘পোস্ট গ্র্যাজুয়েট রিসার্চ কাউন্সিল (PRC)’ এর সভাপতি (২০১০ সালে) হিসেবে এবং অস্ট্রেলিয়ান ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির বিভিন্ন প্রশাসনিক কাউন্সিল ও কমিটিতে (২০১০ সালে) স্টুডেন্ট প্রতিনিধি হিসেবে দায়িত্ত্ব পালন করেছেন।

উক্ত লীডারশীপ পজিশনে থাকা অবস্থায় অস্ট্রেলিয়ান ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশন (ABC) টিভি নিউজে ও রেডিও’তেএবং ‘বাংলা রেডিও ক্যানবেরা’তে তার ইন্টারভিউ প্রকাশিত হয়েছে। অস্ট্রেলিয়ান সরকারের বিভিন্ন প্রচার মাধ্যম ও ওয়েবসাইটে‘Latest News: Bangladeshi Awardee flies high at ANU’ এবং ‘Success Story’ শিরোনামে তার সাফল্যের বিষয়গুলো প্রকাশিত হয়েছে। অস্ট্রেলিয়ান সরকারের দুটি ওয়েবসাইটে যথাক্রমে ‘Australian Awards Alumni Story’তে তার সাফল্যের বিস্তারিত[1]এবং ‘Global Alumni Story’তে তার একটি সাক্ষাৎকার[2] প্রকাশিত হয়েছে।

এছাড়া, তিনিই প্রথম বাংলাদেশী, যিনি বিশ্বের ৩২টা দেশের ১৮০ জন স্কলারের মধ্যে আয়োজকদের মধ্য হতে নির্বাচিত ৩জন (বাংলাদেশ, ইন্দোনেশিয়া এবং কেম্বোডিয়া) স্কলারের একজন হিসেবে ‘ALAs Leadership Conference 2007’এ বক্তব্য রাখেন।

তিনিই প্রথম বাংলাদেশী যিনি অস্ট্রেলিয়ান ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ভাইস চ্যান্সেলরের আমন্ত্রনে ২০১০ সালে অস্ট্রেলিয়ার তৎকালীন গভর্ণর জেনারেল মান্যবর কুইন্টিন ব্রাইস এসি এবং অস্ট্রেলিয়ার তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী জনাব কেভিন রাড এমপি’র সাথে সাক্ষাতের সুযোগ পান। তিনি ‘অস্ট্রেলিয়া এওয়ার্ডস উইম্যান ইন লীডারশীপ নেটওয়ার্ক’ এর ‘দক্ষিণ-পশ্চিম এশিয়া’ এবং ‘বাংলাদেশ’- উভয় চ্যাপ্টারের ‘কোর গ্রুপ’ এর সদস্য।

ড. নাজনীনবিবাহিত। তাঁর স্বামী ডাঃ জিয়াউল আনসার চৌধুরী বিসিএস (স্বাস্থ্য) ক্যাডারের সদস্য এবং বর্তমানে তিনি সিনিয়র কন্সালট্যান্ট হিসেবে চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের ‘নাক-কান-গলা রোগ এবং হেড-নেক সার্জারী’ বিভাগে কর্মরত রয়েছেন। তিনি দু’সন্তানের জননী। তাঁর বড় সন্তান নাহিয়ান বুশরা চৌধুরী (নওরীন) বর্তমানে যুক্তরাজ্যের ‘ইউনিভার্সিটি অফ এডিনবরা, স্কটল্যান্ড’এ ‘আন্তর্জাতিক সম্পর্ক’ নিয়ে এবং ছোট সন্তান আরিক নাওয়াল চৌধুরী (নাফী) অস্ট্রেলিয়ার ‘ম্যাককুয়ার ইউনিভার্সিটি, সিডনি’তে ‘চিকিৎসা বিজ্ঞান’ নিয়ে পড়াশোনা করছেন।

ড. নাজনীনের পিতা ভাষা সৈনিক, রাজনীতিবিদ, সমাজসেবক ও শিক্ষানুরাগী মরহুম বদিউল আলম চৌধুরী চট্টগ্রামের উত্তর কাট্টলী নাজির বাড়ী’র বিখ্যাত জমিদার মরহুম ফয়েজ আলী চৌধুরীর নাতি। তাঁর মাতা মরহুম লুৎফা সুরাইয়া চৌধুরী কক্সবাজারের ঢেমুশিয়া জমিদার বাড়ী’র বিখ্যাত জমিদার মরহুম জামালউদ্দিন আহমেদ চৌধুরী (প্রকাশ মাইজ্জা মিয়া/আহমদমিয়া)’র ৩য় কন্যা। – বিবিসিনিউজ

সর্বশেষ সংবাদ

এ্যাম্বুলেন্সে করে ইয়াবা পাচার, লোহাগাড়ায় গ্রেপ্তার ৪

চীনের রাষ্ট্রদূত ঝিমিং এর নেতৃত্বে ৮ সদস্যের তুমব্রু সীমান্ত পরিদর্শন

সাগরপথে মালয়েশিয়া যাওয়ার সময় ১৬ রোহিঙ্গা আটক

প্রবারণা পূর্ণিমায় কোটি টাকা বরাদ্দ দেয়ায় দিপংকর বড়ুয়া পিন্টুর কৃতজ্ঞতা

কক্সবাজার শহরের প্রধান সড়কের ৮০ শতাংশই খানাখন্দ

মাসে বন্ধ ৪৬ গার্মেন্টস, বেকার হয়েছে সাড়ে ২৫ হাজার শ্রমিক

চকরিয়ায় দেয়াল চাপা পড়ে আহত হওয়া যুবকের মৃত্যু

৮৭টি ঘুমের ট্যাবলেট খেয়ে মীরাক্কেলের ‘মীর’র আত্মহত্যার চেষ্টা!

ফিলিস্তিন রক্ষায় কাবা শরিফের ইমাম সুদাইসির ঐক্যের ডাক

নিলামে কেনা বাইক রেজিস্ট্রেশন করবেন যেভাবে

একসঙ্গে আট বাচ্চা প্রসব ছাগলের

আওয়ামী লীগের জাতীয় সম্মেলন ডিসেম্বরে

কে এই লেখক ভট্টাচার্য

কে এই জয়

অতিরিক্ত জিমে বাবা হওয়ার ক্ষমতা হারাচ্ছে পুরুষরা

ঈদগাঁওতে গাড়ীর ধাক্কায় কলেজ শিক্ষার্থী আহত

মার্কিন ডেলিগেট কক্সবাজার পৌঁছেছেন

লামায় ডেইরি এসোসিয়েশন’র কমিটি গঠন

টেকনাফে পুলিশের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা ডাকাত নিহত

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে এক সন্দিগ্ধ বিদেশিকে হন্য হয়ে খোঁজা হচ্ছে