cbn  

শেফাইল উদ্দিন,সদর :
ককসবাজার সদরের ইমলামাবাদ থেকে পুলিশ ও পাসপোর্ট দালাল ছৈয়দ আলম শিমুলকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। দেরিতে হলেও তার গ্রেফতারের সংবাদে হয়রানির শিকার অসংখ্য ভূক্তভোগি ও সাধারণ জনগণ স্বস্তি প্রকাশ করেছে। ১৪ জুন দুপুর ২টার দিকে ইউনিয়নের ফকিরা বাজার এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।
জানা যায়, কক্সবাজার সদর উপজেলার ইসলামাবাদ ইউনিয়নের আউলিয়াবাদ এলাকার মোঃ কালু প্রকাশ বেত কালুর ছেলে উক্ত শিমুল এলাকায় অবস্থানের সংবাদে ঈদগাঁও পুলিশের এসআই কাজী আবুল বশরের নেতৃত্বে পুলিশ দল অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করে। পরে তাকে সুনির্দিষ্ট মামলায় জেল হাজতে প্রেরণ করে অভিযান পরিচালনাকারী মামলার তদন্ত কর্মকর্তা।এ বিষয়ে উক্ত পুলিশ কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ করা হলে ,তাকে আটকের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন,তাকে আটকের সংবাদ পেয়ে তার হয়রানির শিকার অসংখ্য ভূক্তভোগি ও এলাকাবাসী তার বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছে। এমনকি ঈদগাঁও পুলিশের অনেক সদস্যও তার আটকের সংবাদের পর বলেন,সে দীর্ঘ দিন ধরে পুলিশের উর্ধতন কর্মকর্তার সাথে তার গভীর সম্পর্ক রয়েছে দোহাই দিয়ে দিনের পর দিন হম্বি দম্বি করে এলাকার লোকজনদের হয়রানি করে চলছে।এমনকি পুলিশ সদস্যদের সাথে ও অসৌজন্যমূলক আচরণ করে আসছে। অভিযান পরিচালনাকারী কর্মকর্তা বলেন, প্রশাসনের যতই কাছের লোক বলে অপপ্রচার করুক ।অপরাধে জড়িত থাকলে কাউকে ছাড় দেয়া হবে না। এলাকার সাধারণ জনগণের দাবি, এ দালাল শিমুল দীর্ঘদিন ধরে এলাকার নিরহ লোকজনের বিরুদ্ধে নামে-বেনামে পুলিশ সুপার ও ঈদগাঁও পুলিশের নিকট অভিযোগ করে হয়রানি করে চলছে।এমনকি সে একটি মামলার নথি স্কেন করে তাতে নসরত আলী নামের এক ব্যক্তির নাম বসিয়ে তাকে মামলা থেকে বাদ দেয়ার কথা বলে পুলিশের নাম ভাঙ্গিয়ে কয়েক দফায় লাখো টাকা হাতিয়ে নেয়ার মতো গুরুতর অভিযোগও তুলেছে ভূক্তভোগি তার বিরুদ্ধে ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •