বার্তা পরিবেশক:
বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বাংলা সাহিত্যকে হাজার বছর এগিয়ে দিয়েছেন। বাংলা সাহিত্যের এমন কোনো শাখা, প্রশাখা নেই যেখানে তঁার পদচিহ্ন দেখা যায় না। তিনি পৃথিবীর কয়েকজন বিখ্যাত ও শ্রেষ্ট ছোটগল্পকারের মধ্যে একজন। তিনি অর্থের পেছনে দেঁৗড়ান নি। তিনি শান্তিনিকেতন প্রতিষ্ঠার জন্য সম্ভাব্য সব কিছু করেছেন। তিনি পরিবেশ রক্ষার জন্য তঁার প্রতিষ্ঠিত শিক্ষা প্রতষ্ঠান শান্তি নিকেতনে প্রতিবছর বৃক্ষ রোপন করে সমগ্র মরুময় এলাকাকে সবুজাভ করেছেন। তিনি সাহিত্য, সমাজ সেবা, সমবায়, ক্ষুদ্র ঋণ, চিত্রাংকনের ক্ষেত্রে শীর্ষস্থান দখল করে রেখেছেন।
কক্সবাজার সাহিত্য একাডেমীর ৪৪৭তম পাক্ষিক সাহিত্য সভায় রবীন্দ্র জন্ম-জয়ন্তী পালন উপলক্ষে বক্তাগণ এসব কথা বলেন।
একাডেমীর সভাপতি মুহম্ম্দ নূরুল ইসলামের সভাপতিত্বে ১০ মে ২০১৯ শুক্রবার সকাল ১০টায় কক্সবাজার সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সভা কক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।
একাডেমীর সাধারণ কবি রুহুল কাদের বাবুলের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে একাডেমীর স্থায়ী পরিষদের চেয়ারম্যান কবি সুলতান আহমেদ রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের জীবনালেখ্য নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন। পরে স্থায়ী পরিষদের সদস্য গবেষক নূরুল আজিজ চৌধুরী, মূল্যায়ণ সম্পাদক কবি অমিত চৌধুরী, স্থায়ী পরিষদ সদস্য কবি-অধ্যাপক দিলওয়ার চৌধুরী, একাডেমীর সহ-সভাপতি, কক্সবাজার সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ছড়াকার মো. নাসির উদ্দিন, সিনিয়র সদস্য এডভোকেট শামসুল আলম কুতুবী, একাডেমীর নির্বাহী সদস্য, কক্সবাজার সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষক গল্পকার সোহেল ইকবাল ও নির্বান পাল।
বক্তাগণ আরো বলেন, মাত্র আট বছর বয়সে রবিগুরু প্রথম কাব্যরচনায় প্রবৃত্ত হন। ১৮৭৭ সালে মাত্র ষোলো বছর বয়সে “ভানুসিংহ” ছদ্মনামে তঁার প্রথম কবিতা প্রকাশিত হয়। প্রথম ছোটোগল্প ও নাটক রচনা করেন এই বছরেই। রবীন্দ্রনাথ ভারতে ব্রিটিশ শাসনের বিরোধিতা করে দেশের স্বাধীনতা আন্দোলনকে সমর্থন জানিয়েছিলেন। তঁার মতাদর্শ প্রতিফলিত হয়েছে তঁার বিচিত্র ও বিপুল সৃষ্টিকর্ম এবং তঁার প্রতিষ্ঠিত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বিশ্বভারতীর মধ্য দিয়ে। বঙ্গীয় শিল্পের আধুনিকীকরণে তিনি ধ্রুপদি ভারতীয় রূপকল্পের দূরুহতা ও কঠোরতাকে বর্জন করেন।
রবীন্দ্রনাথের ৫২টি কাব্যগ্রন্থ, ৩৮টি নাটক, ১৩টি উপন্যাস ও ৩৬টি প্রবন্ধ ও অন্যান্য গদ্যসংকলন তঁার জীবদ্দশায় বা মৃত্যুর অব্যবহিত পরে প্রকাশিত হয়। তঁার সর্বমোট ৯৫টি ছোটগল্প ও ১৯১৫টি গান যথাক্রমে গল্পগুচ্ছ ও গীতবিতান সংকলনের অন্তর্ভুক্ত হয়েছে। রবীন্দ্রনাথের যাবতীয় প্রকাশিত ও গ্রন্থাকারে অপ্রকাশিত রচনা ৩২ খণ্ডে রবীন্দ্র্র রচনাবলী নামে প্রকাশিত হয়েছে। রবীন্দ্রনাথের যাবতীয় পত্রসাহিত্য উনিশ খণ্ডে চিঠিপত্র ও চারটি পৃথক গ্রন্থে প্রকাশিত। এছাড়া তিনি প্রায় দুই হাজার ছবি এঁকেছিলেন। রবীন্দ্রনাথের রচনা বিশ্বের বিভিন্ন ভাষায় অনূদিত হয়েছে।
কবিতা পাঠ করেন সুলতান আহমেদ, মো. নাছির উদ্দিন, গুলশান আরা বিউটি ও এরশাদুর রহমান। নির্বাহী সদস্য কল্লোল দে চৌধুরী কবি রবি ঠাকুরের নির্ঝরের স্বপ্নভঙ্গ কবিতাটি আবৃত্তি করেন।
পরে নির্বাহী সদস্য ছড়াকার নূরুল আলম হেলালী, সদস্য জোছনা ইকবাল ও মৌটুসি পাল তমা সংগীত পরিবেশন করেন।

১১ মে একাডেমীর প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর অনুষ্ঠান
কক্সবাজার সাহিত্য একামেডী ১৯ বছরে পদার্পণ করেছে। অষ্টাদশ বর্ষ পূর্তি ও উনিবিংশতিতম বর্ষে পদার্পণ উপলক্ষে আগামী ১১ মে ২০১৯ বিকাল ৪টায় কক্সবাজার সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে আলোচনা সভা ও কবিতা পাঠের আয়োজন করা হয়েছে। প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকবেন কক্সবাজার সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর একেএম ফজলুল করিম চৌধুরী, বিশেষ অতিথি থাকবেন কক্সবাজার সিটি কলেজের অধ্যক্ষ ক্যা থিং অং ও ইসলামীয়া মহিলা কামিল মাদরাসার অধ্যক্ষ মুহাম্মদ জাফরুল্লাহ নূরী।
অনুষ্ঠানে একাডেমীর সংশ্ল্লিষ্ট সকলসহ জেলার কবি-সাহিত্যিক, সাহিত্যামোদিদের যথাসময়ে উপস্থিত থাকার জন্য একাডেমীর সভাপতি মুহম্মদ নূরুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক কবি রুহুল কাদের বাবুল আহবান জানিয়েছেন।
বার্তা প্রেরক

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •