মোঃ নিজাম উদ্দিন, চকরিয়া:
চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে যাত্রীবাহী যানবাহনে বাড়ছে অজ্ঞান পার্টির প্রাদুর্ভাব। নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে সাধারণ যাত্রীরা।
সোমবার (২৯ এপ্রিল) অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়ে চট্টগ্রামের কেরানী হাটের এক অজ্ঞাত ব্যাক্তি। তাকে একইদিন বিকেল ৪টার দিকে চকরিয়ার মালুমঘাট মেমোরিয়াল খ্রিস্টান হাসপাতাল ও পরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।
চট্টগ্রাম শহর থেকে কক্সবাজারগামী হানিফ পরিবহনের একটি বাস (ঢাকা মেট্রো- ব ১১-১২৪৮)তে ঘটে এ ঘটনা।
বাসটির হেলফার শেফায়েত হোসেন জানায়, অন্যান্য যাত্রীদের সাথে এক ব্যক্তি কেরানী হাট নামবেন জানিয়ে চট্টগ্রাম থেকে তাদের বাসে উঠে। বাসটি কেরানী হাট অতিক্রম করে চকরিয়া অতিক্রম কালেও লোকটির সাড়াশব্দ না পাওয়ায় তাকে ঘুম থেকে জাগানোর চেষ্টা করা হয়। পরে অন্যান্য যাত্রী ও বাস সহকারী নিশ্চিত হয় সে অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়েছে। ভুক্তভোগী ওই ব্যক্তির প্যান্টের ডান পকেট ও প্যান্টের অন্যান্য অংশে ব্লেডে কাটা চিহ্ন রয়েছে। তার জ্ঞান না ফেরায় হানিফ বাসটির চালক ও তার সহকারী লোকটিকে মালুমঘাট মেমোরিয়াল খ্রিস্টান হাসপাতালে ভর্তি করে। এসময় বাসের হেলপার শেফায়েতকে হাসপাতালে রোগীর সাথে থাকতে রেখে যায়। কিন্তু ঘন্টাখানেক পরেও জ্ঞান না ফেরায় তাকে চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়।
মালুমঘাট মেমোরিয়াল খ্রিস্টান হাসপাতালের চিকিৎসকদের সাথে কথা বলে জানা যায়, অজ্ঞান অবস্থায় এক ব্যক্তিকে হাসপাতালে নিয়ে আসে কয়েকজন লোক। দীর্ঘক্ষণ জ্ঞান ফিরা না আসায় তাকে চকরিয়া সরকারি হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে তাকে সিডেটিভ কোন কিছু সেবন করা হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •