প্রেস বিজ্ঞপ্তি:
কক্সবাজারের সীমানা পেরিয়ে পাবর্ত্য বান্দরবান জেলার দুর্গম এলাকায় চিকিৎসা সেবা অব্যাহত রেখেছে সাড়া জাগানো মানবতাবাদী প্রতিষ্ঠান হোপ ফাউন্ডেশন। এর অংশ হিসেবে ১০ এপ্রিল বান্দরবানের সুয়ালক ইউনিয়নে মেডিকেল ক্যাম্প আয়োজন করা হয়। উক্ত মেডিকেল ক্যমপ উদ্বোধন করেন সুয়ালক ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান উক্যনু মারমা। উক্ত মেডিকেল ক্যাম্পে বান্দরবনের দূর্গম এলাকা চিম্বুক, ৭ মাইল, ১২ মাইল, রেইচিসহ বিভিন্ন দুর্গম থেকে বিভিন্ন রোগের রোগীদের চিকিৎসা নিতে আসেন। প্রায় ৩০০ রোগীকে চিকিৎসা ও বিনামূল্যে ঔষধ বিতরণ করা হয় ।

হোপ ফাউন্ডেশনের ফিস্টুল বিভাগের কর্মকর্তা আজমুল হুদা জানান, মাতৃমৃত্যু ও শিশু মৃত্যুুহার কমানো এবং নিরাপদ মাতৃত্ব সেবা প্রদান করার লক্ষ্যে হোপ ফাউন্ডেশন সম্পতি বান্দরবনে কাজ শুরু করেছে। পাশাপাশি পসব জনিত ফিসটুলা নির্মুল করার কাজও চলছে। এই চিকিৎসা অব্যাহত রাখার অংশ হিসেবে সুয়ালক মেডিকেল ক্যাম্প আয়োজন করা হয়।


হোপ ফাউন্ডেশনের কান্ট্রি ডাইরেক্টর কেএম জাহিদুজ্জামান বলেন, কক্সবাজারের কৃতি সন্তান আমেরিকা প্রবাসী খ্যাতিমান চিকিৎসক ইফতিখার মাহমুদ মিনারের নিম্ন ও মধ্যবিত্তসহ অসহায় মানুষের স্বাস্থ্যসেবা দেয়ার জন্য ১৯৯৯ সালে প্রতিষ্ঠান করেন হোপ ফাউন্ডেশন। এই ফাউন্ডেশনের তত্ত্বাবধানে নির্মাণ করা হয় মা ও শিশু হাসপাতাল যেটি বর্তমানে বর্তমানে হোপ হাসপাতাল নামে রামুর চেইন্দায় অবস্থিত। হোপ ফাউন্ডেশন এবং হোপ হাসপাতাল কক্সবাজারের মানুষকে স্বল্প ও বিনামূল্যে চিকিৎসা দিয়ে মানুষের ব্যাপক আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। এর অংশ হিসেবে বান্দরবানের সরকারের শীর্ষ ব্যক্তিত্বের আহ্বানে সেখানেও চিকিৎসা সেবা চালু করা হয়েছে। এই সেবা কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •