সদর প্রতিনিধি

কক্সবাজার সদরের উপকূলীয় ইউনিয়ন চৌফলদন্ডী সাগরমনি উচ্চ বিদ্যালয়ে তালা ঝুলিয়ে দেওয়া,শিক্ষকদের হুমকি, অর্থ আত্মসাৎ এর অভিযোগে ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মোঃ নুরুচ্ছবিসহ অজ্ঞাতনামা আরো ৮/১০ জনের বিরুদ্ধে কক্সবাজার সদর মডেল থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে একই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নুরুল ইসলাম। ৬ এপ্রিল রাতে তিনি নিজেই বাদী এবং আরো ৮ শিক্ষক/কর্মচারীকে স্বাক্ষী রেখে অভিযোগটি দায়ের করেন।কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি তদন্ত মোঃ খায়রুজ্জামান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন তদন্তের জন্য একজন অফিসারকে দায়িত্ব দিয়েছেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, বিবাদী মোঃ নুরুচ্ছবিহ সাগরমনি উচ্চ বিদ্যালয়ের মেয়াদ উত্তীর্ণ সভাপতি হয় ।তিনি আলোচনা সাপেক্ষে পুনরায় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি’র নির্বাচন না দিয়ে গায়ের জোরে পেশি শক্তি প্রয়োগ করে গত ৫ এপ্রিল স্কুলের প্রতিটি কক্ষে নতুন তালা ঝুলিয়ে বন্ধ করে দেয়।তাছাড়া মেয়াদ উত্তীর্ণ সভাপতির অনুসারী ৮/১০ জন বহিরাগত দুর্বৃত্ত স্কুলের প্রধান শিক্ষক এবং সহকারী শিক্ষকরা স্কুলে উপস্থিত হলে মারধরসহ খুন করবে বলে প্রকাশ্য দিবালোকে হুমকি দেয়।

অভিযোগে আরো জানা যায়, উক্ত বিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মচারীরা অন্য এলাকার হওয়ার সুবাদে হুমকি ধমকি দিয়ে সরিয়ে রাখার চেষ্টা চালাচ্ছে। বিবাদী মোঃ নুরুচ্ছবিহ ইতিপূর্বে স্কুলের সভাপতি থাকা কালীন সময়ে বিভিন্ন অজুহাতে অর্থ আত্মসাৎ ও দুর্ব্যবহারের কারনে বিগত মার্চ মাসের ১৯ তারিখ থানায় আরো একটি অভিযোগ দায়ের করেছিল প্রধান শিক্ষক। অপরাপর শিক্ষক কর্মচারীরা জানান,বিবাদী এলাকার প্রভাবশালী বিধায় নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন তারা।এসবের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করায় প্রাক্তন এবং বর্তমান কয়েকজন ছাত্রকে বিভিন্ন মামলায় আসামী করে হয়রানি করবে বলেও হুংকার দেন এই সভাপতি ।

অভিভাবক মহলের পক্ষে স্থানীয় এমইউপি রাশেদুল ইসলাম জানান, প্রায় সময় সাবেক সভাপতির লালিত ভাড়াটিয়া বাহিনীর সদস্যরা বিদ্যালয়ের আশপাশ এবং শ্রেণী কক্ষে অবস্থান করে থাকে। যার কারনে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা আতংকিত এবং বিব্রত অবস্থায় পড়ছে। ঘটনার পরদিন থেকে ২/১ টি ক্লাস হচ্ছে। প্রধান শিক্ষক হুমকির মুখে স্কুলে আসতে পারছে না। তিনি আসতে না পারায় পাঠদানে বিঘ্ন সৃষ্টি হচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, অভিভাবকদের প্রত্যক্ষ ভোটের মাধ্যমে ম্যানেজিং কমিটি গঠন করতে যথাযথ কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।অন্যথায় প্রতিষ্ঠানটি পরিবেশ বিনষ্ট সহ ক্ষতির মুখে পড়বে বলে তার আশংকা। বিষয়ে প্রধান শিক্ষক নুরুল ইসলাম বলেন,উক্ত প্রভাবশালীর এহেন কর্মকান্ড, বহিরাগত সন্ত্রাসীদের হুমকি অব্যাহত রাখায় উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সাথে আলাপ করে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

তিনি আরো বলেন,প্রধান শিক্ষক হিসাবে নিজে এবং সহকারী শিক্ষক, কর্মচারী, স্কুলে পড়ুয়া কোমলমতি শিক্ষার্থীদের শিক্ষার ব্যাঘাত সৃষ্টি ও নিরাপত্তাহীনতায় ভোগার কারনে আইনের কাছে আসতে বাধ্য হলাম। এ ব্যাপারে জানতে বিবাদী মোঃ নুরুচ্ছবিহ’র মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হয়। সংযোগ না পাওয়া বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি। পরবর্তীতে বক্তব্য পাওয়া গেলে গুরুত্ব সহকারে প্রকাশ করা হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •