cbn  

শাহিদ মোস্তফা শাহিদঃ

কক্সবাজার সদরের জালালাবাদে সীমানা বিরোধের জেরে ছোট ভাইয়ের খন্তির আঘাতে বড় ভাই আবদুস সালামের (৪৫) মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) সন্ধ্যা ৭ টার দিকে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। ১০ মার্চ দিবাগত রাত ১০ টার দিকে ছোট ভাই নুনু মিয়া এই ঘটনা ঘটায়।
নিহত আবদুস সালাম ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের মিয়াজীপাড়ার মৃত কালু মিয়া ছেলে। ঘটনার পর থেকে ঘাতক পলাতক রয়েছে।
প্রাপ্ত তথ্য ও খোঁজ খবর নিয়ে জানা যায়, আবদুস সালামের সাথে ছোট ভাই নুনু মিয়ার সীমানা বিরোধ ছিল। বিরোধের জের ধরে প্রতিনিয়ত তর্ক বিতর্ক ও হাতাহাতি হতো। ১০ মার্চ রাত ১০ টার দিকে এ রকম ঘটনার সূত্রপাত হলে ছোট ভাই নুনু মিয়া খন্তি দিয়ে সজোরে আঘাত করে আবদুস সালামকে। তাতে সে গুরুতর আহত হয়। প্রতিবেশী ও স্বজনরা আব্দুস সালামকে উদ্ধার করে স্থানীয় একটি বেসরকারি ক্লিনিকে নিয়ে যায়। সেখান থেকে আশংকাজনক অবস্থায় জেলা সদর হাসপাতালে প্রেরণ করে চিকিৎসক। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে অবস্থা জেলা সদর হাসপাতালের চিকিৎসকরা চট্রগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করে।
সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১৪ মার্চ সন্ধ্যা ৭ টার দিকে আব্দুস সালাম মারা যান।
জালালাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান ওসমান সরওয়ার আলম ডিপো ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। তিনি নিহতের পরিবার পরিজনের প্রতি গভীর শোক ও সমবেদনা জানান।
এদিকে, আব্দুস সালামের মৃত্যুর সংবাদ এলাকায় চাউর হলে ব্যাপক চাঞ্চল্যকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়।
এলাকাবাসী,আত্মীয় স্বজনদের মাঝে নেমে আসে শোকের ছায়া।
স্থানীয়রা খুনি নুনু মিয়াকে আটক করতে প্রশাসনের প্রতি হস্তক্ষেপ কামনা করেছে।
জানতে চাইলে ঈদগাঁও পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক মোঃ আসাদুজ্জামান খাঁন এ জাতীয় সংবাদ এখনো কেউ তাকে অবগত করেনি বলে জানান।
তবে, নিহতের পরিবার মামলা কররে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •