শাহেদ মিজান, সিবিএন:
টেকনাফে বিজিবির সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’  পৌর এলাকার নতুন পল্লান পাড়ার ইয়াবা কারবারী নুরুল ইসলাম নিহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৪মার্চ) ভোররাত ৪টার দিকে উপজেলার খানকারডেইল এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। এসময় বিজিবির এক সদস্য আহত হয়েছে। উদ্ধার করা হয়েছে ইয়াবা ও কিরিচ।

এক প্রেস বার্তায় টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) এর ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক শরীফুল ইসলাম জোমাদ্দার জানান , খানকার ডেইল গ্রামের পূর্ব পার্শ্বে মেহেদীর লবন প্রজেক্টের উত্তর-পশ্চিম দিক দিয়ে বিপুল পরিমাণে ইয়াবা বাংলাদেশে প্রবেশ করার পায় বিজিবি। এই সংবাদ পেয়ে টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) এর নায়েক সুবেদার মোঃ শাহ আলমের নেতৃতে টহলদল দ্রুত ওই স্থানে অভিযানে যায়। এসময় টহলদলের উপস্থিতি টের পাওয়ার সাথে সাথে পাচারকারীরা বিজিরি টহলদলের উপর অতর্কিতভাবে গুলি বর্ষণ ও ধারালো অস্ত্র নিয়ে আক্রমন করে। এতে বিজিবি’র টহলদলের একজন সদস্য আহত হয়। এ সময় আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি বর্ষন করে। এতে উভয় পক্ষের মধ্যে প্রায় ১০-১২ মিনিট গুলি বিনিময় হয়। পওে এরপর ইয়াবা পাচারকারীরা গুলি করতে করতে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। গোলাগুলি থামার পর বিজিবির টহল দলের সদস্যরা এলাকা তল্লাশী করে নতুন পল্লান পাড়ার আব্দুল গাফ্ফারের পুত্র পাচারকারীরকে নুরুল ইসলাম (৩০)  গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পায়। তাকে দ্রুত টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনাস্থল থেকে আনুমানিক সাত হাজার পিচ ইয়াবা ও দুটি লোহার ধারালো কিরিচ উদ্ধার করা হয়। আহত বিজিবি সদস্যকে টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া করা হয়েছে। এ ব্যাপারে আইনী কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলে বিজিবির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •