বিশেষ প্রতিবেদক:
সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ বলেছেন, সেনাবাহিনী দেশের উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে। মানবিক কারণে বাংলাদেশে আশ্রয় দেয়া রোহিঙ্গাদের নানা প্রকার সেবা দিচ্ছে সেনাবাহিনী।

তিনি বলেন, কক্সবাজারের মেরিন ড্রাইভ, বিমানবন্দর ও বিদ্যুৎকেন্দ্রসহ নানা উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ চলছে। এসব কারণে এই এলাকার গুরুত্ব অনেক বেড়েছে। বঙ্গবন্ধুর সেনা উন্নয়ন নীতি অনুসরণ করে সেনাবাহিনীর উন্নয়নে কাজ করছে সরকার।

বৃহস্পতিবার দুপুরে কক্সবাজারের রামু সেনানিবাসে পতাকা উত্তোলন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন সেনাপ্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ।

সেনাসদস্যদের উদ্দেশ্যে সেনাপ্রধান বলেন, ঊধ্বর্তন নেতৃত্বের প্রতি আস্থা, পারস্পরিক বিশ্বাস, সহমর্মিতা ও ভ্রাতৃত্ব বজায় রেখে প্রশিক্ষণের মাধ্যমে সুশৃঙ্খল, দক্ষ ও যোগ্য সেনাসদস্য হিসেবে নিজেকে গড়ে তুলবে হবে। পেশাদারিত্বের মান অর্জনের মাধ্যমে আভ্যন্তরীণ ও বাহ্যিক যেকোনো হুমকি মোকাবেলায় সদা প্রস্তুত থাকতে হবে।

বেলা ১১টার দিকে রামু সেনানিবাসের অনুষ্ঠানস্থলে পৌঁছালে সেনাপ্রধানকে স্বাগত জানান রামু ১০ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি ও এরিয়া কমান্ডার মেজর জেনারেল মো. মাঈন উল্লাহ চৌধুরী।

এরপর প্যারেড কমান্ডার মেজর ফয়সাল আমির মো. তারেকের নেতৃত্বে একটি চৌকস দল কুচকাওয়াজ প্রদর্শনে সেনাপ্রধানকে সালাম জানান। এরপর বেলুন উড়িয়ে পাঁচটি ইউনিটের পতাকা উত্তোলন করেন সেনাপ্রধান।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- কক্সবাজার সদর-রামু আসনের সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমল, মহেশখালী-কুতুবদিয়া আসনের সংসদ সদস্য আশেকুল্লাহ রফিক, চকরিয়া-পেকুয়া আসনের সংসদ সদস্য মো. জাফর আলম, জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন, জেলা পরিষদ প্রশাসক মোস্তাক আহমদ, কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান কর্নেল ফোরকান আহমদ, পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসেনসহ সামরিক ও বেসামরিক উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •