শাহেদ মিজান, সিবিএন:

মহেশখালীতে দু’সন্ত্রাসী গ্রুপের ‘বন্দুকযুদ্ধে’ সাহাব উদ্দিন (৩৫) নামে এক শীর্ষ সন্ত্রাসী নিহত হয়েছে। মঙ্গলবার ভোরে উপজেলার ছোট মহেশখালীর কালমাদিয়া এলাকার গহীন বনে এ ঘটনা ঘটে। নিহত সাহাব উদ্দিন কালারমারছড়া ইউনিয়নের নোনাছড়ি গ্রামের আব্দুর রহিমের ছেলে। সে হত্যাসহ ১৬টি মামলার আসামী।

পুলিশ জানায়, কক্সবাজারের মহেশখালী উপজেলার ছোট মহেশখালীর কালমাদিয়া এলাকার গহীন বনে দুই দল সন্ত্রাসী গ্রুপের মধ্যে বন্দুকযুদ্ধের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। এ সময় দুই গ্রুপের গোলাগুলি না থামায় দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষা করেও পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে পারেনি। প্রায় তিন ঘণ্টা পর পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় একটি মরদেহ উদ্ধার করে। পরে এটি সাহাব উদ্দিন নামে এক সন্ত্রাসীর মরদেহ বলে শনাক্ত হয়েছে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি বন্দুক ও চারটি এলজি ও ১৩ রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করা হয়েছে।

মহেশখালী থানার পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রভাষ চন্দ্র ধর বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, মঙ্গলবার ভোর ৫টা থেকে সকাল ৮টা পর্যন্ত প্রায় তিন ঘণ্টা এ বন্দুকযুদ্ধ চলে। নিহত সাহাব উদ্দিনের বিরুদ্ধে ডাকাতি, হত্যা, চাঁদাবাজিসহ ১৬টি মামলা রয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য তার মরদেহ কক্সবাজার সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •