শাহিদ মোস্তফা শাহিদ, কক্সবাজার সদর:

মামুন অর রশিদ যিনি একজন প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক এবং মানুষ গড়ার কারিগর। তিনি কক্সবাজার সদর উপজেলার জালালাবাদ ইউনিয়নের মাইজ পাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক। তাঁর বিশেষত্ব এই যে বিগত ৪ বছরের শিক্ষকতার ক্যারিয়ারে কখনো লেট করেননি এবং কোন অসুস্থতাজনিত ছুটিও কাটাননি। মামুন অর রশিদ ঈদগাঁও ইউনিয়নের মাইজপাড়া এলাকার মোহাম্মদ হোসেনের পুত্র এবং ওয়ার্ড মেম্বার বজলুর রশিদের ছোট ভাই।
বিদ্যালয় সূত্রে জানা গেছে,ছুটি থাকা সত্বেও তিনি তা কাটাননি। নিয়মিত স্কুলে উপস্থিত হয়ে শিক্ষার্থীদের পাঠদান করাত। মামুন অর রশিদ অত্র প্রতিষ্ঠানে দীর্ঘদিন ধরে শিক্ষকতা পেশায় জড়িত আছেন। কোমলমতি শিক্ষার্থীদের নৈতিক শিক্ষা দিয়ে অভিভাবক, শিক্ষক ও সংশ্লিষ্টদের কাছে বেশ সুনাম কুড়িয়েছে। এছাড়া লেখাপড়ার মানোন্নয়নে এলাকার জনসাধারণ,অভিভাবক মহলদের সচেতন করে তোলার লক্ষ্যে শিক্ষার্থীদের মাধ্যমে প্রায়শঃ দেখভাল ও উৎসাহ, অনুপ্রেরণা যোগাচ্ছে। জানতে চাইলে শিক্ষক মামুন অর রশিদ বলেন, আমি ছুটি কাটাইনি এই ভেবে শুধু এই স্কুলের সহকারী শিক্ষক। যদি ছুটি নিই সেদিন অনেক অনেকেই আমার ক্লাসগুলো মিস করবে। ছাত্র- ছাত্রীদের সাথে সম্পর্ক হৃদয়ের, আমি তাদেরকে না দেখলে ভাল বোধ করিনা। তারাই আমার জীবন। বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক জসিম উদ্দীনের সাথে কথা হলে হয়ত অনেকের কাছে এটা অসম্ভব মনে হতে পারে। তবে সত্যি তিনি এমন একজন শিক্ষক ৪ বছরে একদিনও ছুটি কাটায়নি। যিনি হতে পারেন অনেকের আদর্শবান মানুষ গড়ার কারিগর।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •