বার্তা পরিবেশক:

বর্তমানে দায়িত্বরত লাইট হাউজ মাদ্রাসার পরিচালক মৌলানা মোহাম্মদ আলীর অনুমতি ছাড়া তার পরামর্শ না নিয়ে আদালতকে অবজ্ঞা করে লাইট হাউজ মাদ্রাসার বার্ষিক সভার আয়োজন করেছে মামলার বিবাধী মৌলানা দিদার ও মৌলানা ইয়াসিন হাবিব।
বরেন্য আলেম আহমেদ শফি সাহেবের নাম ব্যবহার করে সম্পুন্ন অন্যায়ভাবে উক্ত সভার আয়োজন করেছে বলে জানিয়েছেন উক্ত মাদ্রাসার মুহতামিম মওলানা মোহাম্মদ আলী। আগামী ৪ ফেব্রুয়ারী সোমবার উক্ত মাদ্রাসার বার্ষিক সভা বলে ইতিমধ্যে পোষ্টার ও নানা প্রচারণা চালাচ্ছে চক্রটি।

পোষ্টারে হাটহাজারী মাদ্রাসার সিনিয়র মোহাদ্দিস আল্লামা জুনায়েদ বাবু নগরীকে প্রধান বক্তা হিসেবে উল্লেখ্য করা হলেও তিনি মূলত চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তার অনুমতি ছাড়াই সম্পুন্ন সাধারন মানুষকে ধোকা দেওয়ার জন্য এ প্রচারণা চালাচ্ছেন বলে জানা গেছে।

উল্লেখ্য যে, লাইট হাউজ মাদ্রাসার পরিচালনা নিয়ে একটি চক্র মাদ্রাসার স্থাবর সম্পত্তি দখলে নিতে উঠে পড়ে লেগেছে। বর্তমান মুহতামিম মাওলানা মোহাম্মদ আলী উক্ত চক্রের হাত থেকে লাইট হাউজ মাদ্রাসাকে রক্ষা করতে তাদের বিরুদ্ধে কক্সবাজার জজ আদালত (অপর ১৯/১৯) মামলা দায়ের করেন। মামলায় মূল বিবাধী তিনজনের বিরুদ্ধে আদালত নিষেধাজ্ঞা ও কারণ দর্শানোর নোটিশ প্রদান করেন। বিবাদীরা আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে যার অংশ এ বার্ষিক সভার আয়োজন।

উক্ত চক্রের বিরুদ্ধে স্থানীয় জনসাধারন ও অভিভাবকদের সচেতন থাকার অনুরোধ জানিয়েছেন মুহতামিম মাওলানা মোহাম্মদ আলী।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •