জে.জাহেদ, চট্টগ্রাম :

বন্দর নগরী চট্টগ্রামে চাঞ্চল্যকর মামলার তদন্তকালে জটিল সমীকরণ ভেদ করে রহস্য উদঘাটন, অপরাধ নিয়ন্ত্রণ, দক্ষতা, কর্তব্যনিষ্ঠা, সততা ও শৃঙ্খলামূলক আচরণের মাধ্যমে প্রশংসনীয় কাজের অবদানের জন্য “বিপিএম-সেবা” পদক পাচ্ছেন চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মোঃ মাহাবুবর রহমান।

পিপিএম “পিপিএম-সেবা” পদক পাচ্ছেন সিএমপির উপ-পুলিশ কমিশনার (বন্দর) মোঃ হামিদুল আলম, ও উপ-পুলিশ কমিশনার (উত্তর) বিজয় বসাক, উপ-পুলিশ কমিশনার (পশ্চিম) মোঃ ফারুক উল হক, এবং “বিপিএম-সেবা” উপ-পুলিশ কমিশনার (দক্ষিণ) এম এম মেহেদী হাসান।

সাহসিকতা ও বীরত্বপূর্ণ কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ “পিপিএম” পদক পাচ্ছেন চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ’র অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (ডিবি-পশ্চিম) এ এম এম হুমায়ুন কবীর, সদ্য পদোন্নতিপ্রাপ্ত অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিবি-পশ্চিম) মোহাম্মদ মঈনুল ইসলাম এবং পাহাড়তলী থানার ওসি সদীপ কুমার দাশ, পাঁচলাইশ থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক আব্দুল মালেক ।

চাঞ্চল্যকর মামলার রহস্য উদঘাটন, অপরাধ নিয়ন্ত্রণ, দক্ষতা, কর্তব্যনিষ্ঠা, সততা ও শৃঙ্খলামূলক আচরণের মাধ্যমে প্রশংসনীয় কাজের মাধ্যমে অবদানের জন্য সদরঘাট থানার ওসি মোঃ নেজাম উদ্দিন বিপিএম পদক পাচ্ছেন।

এছাড়াও সাহসিকতা ও বীরত্বপূর্ণ কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ “বিপিএম” পদক পাচ্ছেন কোতোয়ালী থানার কনস্টেবল মোঃ রাসেল মিয়া।

পুলিশ সেবা সপ্তাহ-২০১৯ উপলক্ষে আগামি ৪ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় রাজারবাগ পুলিশ লাইন্সে এসব পদক প্রদান করা হবে বলে জানা গেছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •