cbn  

সোয়েব সাঈদ, রামু:
রামু সরকারি কলেজে ‘উগ্রবাদ ও সহিংসতা প্রতিরোধে শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহনে বিতর্ক প্রতিযোগিতা ও স্টুডেন্টস্ ওরিয়েন্টেশন অনুষ্ঠিত হয়েছে। কক্সবাজার জেলার জনগনের সামাজিক সম্পৃক্ততার মাধ্যমে উগ্রবাদ ও সহিংসতা প্রতিরোধ প্রকল্পের আওতায় ইপসা সিভিক কনসোর্টিয়াম এর সহযোগিতায় এ প্রতিযোগিতার আয়োজন করে বেসরকারি সংস্থা নোঙর।

সোমবার (২১ জানুয়ারি) সকাল ১১ টায় কলেজ মিলনায়তনে আয়োজিত বিতর্ক প্রতিযোগিতায় প্রধান অতিথি ছিলেন, রামু সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) আবদুল হক। বিতর্ক প্রতিযোগিতায় বিচারক ছিলেন, কলেজের অর্থনীতি বিভাগের প্রধান নিজামুল হক, অধ্যাপক আ,ম,ম জহির ও মোহাম্মদ হোছাইন। মডারেটর ছিলেন, যুব সংগঠক মোহাম্মদ ইব্রাহীম।

“শুধুমাত্র শিক্ষার্থীরাই পারে উগ্রবাদ ও সহিংসতা প্রতিরোধ করতে” এ বিষয়ে আয়োজিত বিতর্ক প্রতিযোগিতা কলেজের দুটি দল পক্ষে এবং বিপক্ষে অংশ নেন। এতে পক্ষ দলের শিক্ষার্থীরা জয়লাভ করে। বিজয়ী দলের মোফাচ্ছেল সেরা বক্তার পুরস্কার পান। প্রতিযোগিতা শেষে অতিথি এবং বিচারকবৃন্দ বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার বিতরণ করেন।

এতে কলেজের অর্থনীতি বিভাগের প্রধান নিজামুল হক, অধ্যাপক আ,ম,ম জহির ও মোহাম্মদ হোছাইন, সাংবাদিক সোয়েব সাঈদ, আয়োজক নোঙর এর প্রকল্প ব্যবস্থাপক বিশ্বজিৎ ভৌমিক, ফিল্ড ফ্যাসিলিটিটেটর মোহাম্মদ জুবাইদ, মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম বক্তব্য রাখেন। প্রতিযাগিতায় বিজয়ী পক্ষ দলে অংশ নেন, মোফাচ্ছেল (দলনেতা), তৌফিকুল ইসলাম ও শাহাদাৎ হোসেন এবং বিপক্ষ দলে অংশ নেন, রেশমি আকতার (দলনেতা), মরিয়ম আকতার সাকি এবং উম্মে সালমা।

পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, উগ্রবাদ-সহিংসতা বা সন্ত্রাসী কার্যক্রম সব ধর্মে নিষিদ্ধ। অথচ ধর্মের নামে অনেক বিভ্রান্ত হয়ে মানুষ হত্যা সহ বিভিন্ন প্রকার সহিংস কর্মকান্ড সংগঠিত করে আসছে। এসব কাজে প্রধান টার্গেট করা হচ্ছে কোমলমতি শিক্ষার্থীদের। এজন্য স্কুল, কলেজ, মাদরাসা ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল ছাত্র-ছাত্রীদের উগ্রবাদ ও সহিংসতা প্রতিরোধে সচেতন হতে হবে। পাশাপাশি দেশবাসীকে এ ব্যাপারে সচেতন করার জন্য প্রচেষ্টা চালাতে হবে।

বিতর্ক প্রতিযোগিতা শেষে এসব কলেজের শিক্ষার্থীরা উগ্রবাদ-সহিংসতা বা সন্ত্রাসী কার্যক্রম প্রতিরোধে ভূমিকা রাখার দৃঢ় অঙ্গীকার করেন। বিতর্ক প্রতিযোগিতার পূর্বে কলেজের একাদশ ও দ্বাদশ, স্নাতক ১ম ও ২য় বর্ষের ছাত্র-ছাত্রীদের নিয়ে উগ্রবাদ-সহিংসতা প্রতিরোধে ওরিয়েন্টেশন অনুষ্ঠিত হয়।

উল্লেখ্য ইপসা সিভিক কনসোর্টিয়াম এর সহযোগিতায় রামু উপজেলায় জনগনের সামাজিক সম্পৃক্ততার মাধ্যমে উগ্রবাদ ও সহিংসতা প্রতিরোধ প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে বেসরকারি সংস্থা নোঙর।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •