ফিচার ডেস্ক:
ভারতের কলকাতার অন্যতম আইকন হাওড়া ব্রিজ। গত ৭৫ বছরের বেশি সময় ধরে কলকাতা ও হাওড়া শহরকে যুক্ত করে রেখেছে এই ব্রিজ। এর উপর দিয়ে প্রতিদিন পার হচ্ছে শত শত মানুষ বা যানবাহন। তবে ক্যান্টিলিভার ব্রিজটি সহজে গড়ে ওঠেনি। কিন্তু কিভাবে গড়ে উঠেছিল এই ব্রিজ?

জানা যায়, হাওড়া ব্রিজ তৈরির কাজে কোথাও ভুল হচ্ছিল। আবার তার সমাধানের পথও পাওয়া গেল। বিষয়টি জানার উৎসাহ অনেকের। ব্রিজটি তৈরি করতে শিল্পপতি রাজেন মুখোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে ৬ জনের বিশেষজ্ঞ কমিটি সমাধান দিয়েছিলেন।

এছাড়া কারা এ ব্রিজের নকশা করেছিলেন কিংবা কোথা থেকে ইস্পাত সরবরাহ করা হয়েছিল। এমন অনেক প্রশ্ন জাগে মনে। এসব প্রশ্নের উত্তর জানতে আগ্রহী অনেকে। তাই এসব প্রশ্নের উত্তর দিতে প্রকাশিত হয়েছে একটি বই। গত বুধবার গোর্কি সদনে ‘স্টোরি অব এ স্টিল ব্রিজ’ নামে বইটি আনুষ্ঠানিকভাবে প্রকাশ করা হয়।

হাওড়া ব্রিজের ইতিহাস নিয়ে লেখা বইটিতে থাকছে দুটি ভাগ। যাতে রয়েছে দ্য ইনস্টিটিউট অব ইঞ্জিনিয়ার্স (ইন্ডিয়া) ক্যালকাটা গেজেড, কলকাতা বন্দর থেকে পাওয়া বিভিন্ন নথিপত্র, তৎকালীন গভর্নরদের বক্তৃতা, বেঙ্গল চেম্বার অব কমার্সের রিপোর্ট, বাংলার আইনসভার প্রতিবিধানের কথা এবং সংবাদপত্রের অংশ প্রভৃতি।

বইটি সম্পাদনা করেছেন যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের কনস্ট্রাকশন ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধ্যাপক ডা. পার্থ ঘোষ। তাকে সাহায্য করেছেন শিবপুর বিই কলেজের সাবেক শিক্ষার্থী এবং যাদবপুরের গবেষক প্রণয় রায়চৌধুরী।

বইটির ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় গবেষণায় সহায়তা করেছেন আর এন মুখার্জি ইঞ্জিনিয়ারিং ইনফর্মেশন সার্ভিস সেন্টারের লাইব্রেরিয়ান ফাল্গুনী পাল এবং জাতীয় গ্রন্থাগারের অ্যাসিস্ট্যান্ট লাইব্রেরিয়ান পার্থসারথি দাস। ভূমিকা লিখেছেন জাতীয় গ্রন্থাগারের নির্দেশক ডা. অরুণকুমার চক্রবর্তী।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •