cbn  

ডেস্ক নিউজ:
জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের আহ্বায়ক ড. কামাল হোসেন বলেছেন, ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচন বাতিল ও পুনঃনির্বাচনের দাবিতে আগামী ৩ জানুয়ারি বৃহস্পতিবার নির্বাচন কমিশনে যাবে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। সেদিন কর্মসূচিও ঘোষণা করা হবে।

সোমবার রাতে ড. কামাল হোসেনের মতিঝিলের চেম্বারে এক সংবাদ সম্মেলনে একথা বলেন তিনি।

ড. কামাল বলেন, নির্বাচন বাতিল করে পুনঃনির্বাচনের দাবিতে আগামী ৩ জানুয়ারি ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থীসহ সব বিরোধী দলের প্রার্থীরা নির্বাচন কমিশনে স্মারকলিপি প্রদান করবেন এবং সেদিনই কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে।

ঐক্যফ্রন্টের নির্বাচিতরা শপথ নেবেন কি না? জানতে চাইলে ড. কামাল বলেন, সবকিছু বিবেচনা করে আমরা কাজ করছি। তবে তার পাশে বসা ঐক্যফ্রন্টের মুখপাত্র ও বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ‘আমরাতো সম্পূর্ণ নির্বাচন প্রত্যাখ্যান করেছি।’

ড. কামাল বলেন, গতকাল ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের নামে যে প্রহসনমূলক নাটক মঞ্চস্থ হলো, তা সমগ্র দেশবাসী দেখেছে ও হাড়ে হাড়ে উপলব্ধি করেছে। একটি স্বাধীন ও সার্বভৌম দেশের নির্বাচনী ব্যবস্থাকে কীভাবে ধ্বংস করতে হয়েছে, তা এদেশের মানুষসহ সমগ্র বিশ্ববাসীকে দেখিয়ে দিয়েছেন বর্তমান প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ এবং তাদের আজ্ঞাবহ প্রধান নির্বাচন কমিশনার।

তিনি আরও বলেন, এই কথিত নির্বাচনে আওয়ামী লীগের দলীয় সরকারকে বিজয়ী দেখালেও প্রকারান্তরে হেরেছে বাংলাদেশ ও তার ১৭ কোটি মানুষ। এর মধ্যদিয়ে কবর রচিত হয়েছে আমাদের বহু আকাঙ্ক্ষিত গণতন্ত্রের।

তিনি বলেন, সার্বিক অবস্থা বিবেচনা করে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট কথিত নির্বাচনের ফলাফল ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করে নির্দলীয় সরকারের অধীনে অবাধ, সুষ্ঠু ও অশগ্রহণমূলক নির্বাচনের দাবি জানাচ্ছি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •