চবি সংবাদদাতাঃ

‘জঙ্গি-সন্ত্রাসবাদ বিরোধী আইন’ এ প্রতিপাদ্যকে ধারণ করে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) আইন বিভাগ এবং ব্রাইট বাংলাদেশ ফোরাম-এর যৌথ উদ্যোগে ইন্টার-ইউনিভার্সিটি ল’ ক্লিনিক-এর ওপর ‘স্কিল ডেভেলপমেন্ট সেমিনার অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

এ কে খান আইন অনুষদে শুক্রবার সকাল ১০ টায় প্রধান অতিথি হিসেবে ওয়ার্কসপ উদ্বোধন ঘোষণা করেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী।

চবি আইন অনুষদের ডিন প্রফেসর এ বি এম আবু নোমান এর সভাপতিত্বে এবং চবি আইন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সাঈদ আহসান খালিদ এর পরিচালনায় অন্যান্যদের মধ্যে জুডিশিয়াল সার্ভিস কমিশন-বাংলাদেশের সাবেক সদস্য ও চবি আইন বিভাগের প্রফেসর জাকির হোসেন, বরগুনার অতিরিক্ত দায়রা জজ ইসমাইল হোসেন, ব্রাইট বাংলাদেশ ফোরাম-এর প্রধান নির্বাহী উৎপল বড়ুয়া এবং চবি আইন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আবদুল্লাহ আল মামুন উপস্থিত আছেন

প্রধান অতিথির বক্তব্যে চবি উপাচার্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী বলেন, জঙ্গি-সন্ত্রাসবাদ এবং মাদকের অপব্যবহারের ফলে বর্তমান বিশ্ব ভয়ানক পরিস্থিতির শিকার। যুব সমাজের মেধা-মনন এবং সৃজনশীল ক্ষমতা ধ্বংস করে দিচ্ছে এই সমস্ত নেতিবাচক মানবতা বিরোধী কর্মকান্ড।

তিনি আরও বলেন, ধর্মান্ধতা-কুসংস্কার, সাম্প্রদায়িকতা এবং মাদকের অপব্যবহার সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধিসহ এ বিষয়ে সরকার প্রণীত আইনের প্রতি শ্রদ্ধশীল হওয়া এবং স্বদেশ প্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে একটি কল্যাণমূখী মানবিক বিশ্ব বিনির্মানে যুব শক্তিকে হতে হবে বিবেক প্রসূত এবং জ্ঞান-বিজ্ঞান সমৃদ্ধ আলোকিত মানবসম্পদ।

উপাচার্য এ সেমিনারে শিক্ষক-গবেষক ও পন্ডিত জনের জ্ঞানগর্ভ আলোচনা ও সুচিন্তিত পরামর্শের আলোকে অংশগ্রহণকারী বিশ্ববিদ্যালয় সমূহের শিক্ষার্থীবৃন্দ জঙ্গি-সন্ত্রাস ও মাদকের অপব্যবহার সম্পর্কে সচেতনতা অর্জনসহ আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হবে এই প্রত্যাশা ব্যক্ত করে ওয়ার্কসপ উদ্বোধন ঘোষণা করেন।

এ সেমিনারে চবিসহ দেশের ০৮টি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীবৃন্দ অংশগ্রহণ করেছেন।

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •