নিজস্ব প্রতিবেদক:
নাশকতার অভিযোগে কক্সবাজার সদর মডেল থানায় দায়ের করা আরো একটি মামলা থেকে উচ্চআদালতের আগাম জামিন পেয়েছেন কক্সবাজার সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জেলা জামায়াতের সেক্রেটারী জিএম রহিমুল্লাহ, ভাইসচেয়ারম্যান শহিদুল আলম বাহাদুর (ভিপি বাহাদুর)সহ ৬ জন।
অন্যান্যরা হলেন- শ্রমিক কল্যাণ ফেডারেশন কক্সবাজার শহর শাখার সভাপতি আমিনুল ইসলাম হাসান, সাধারণ সম্পাদক এমইউ বাহাদুর, হামিদুল আজম বকুল ও কামাল হোসেন।
মঙ্গলবার (১৩ নভেম্বর) উচ্চআদালতের বিচারক হাবিবুল গণি ও এমডি বদরুজ্জামানের দ্বৈত বেঞ্চ আগামী ১৫ জানুয়ারী পর্যন্ত তাদের জামিন মঞ্জুর করেন।
আসামীদের পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন সিনিয়র আইনজীবী ফরিদ উদ্দিন খান। সহযোগিতায় ছিলেন এডভোকেট এনামুল হক সিকদার।
প্রসঙ্গত, কক্সবাজার সদর মডেল থানার এসআই দূর্লভ চন্দ্র দাশ বাদী হয়ে ৭ নভেম্বর বিএনপি-জামায়াতের ২০০ জনের বিরুদ্ধে ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনের ১৫(৩) ধারা ও ১৯০৮ সালের বিস্ফোরক আইনের ৩/৪ ধারায় মামলাটি দায়ের করেন। যার কক্সবাজার থানা মামলা নং ৩১ এবং জিআর মামলা নং ৯৩৩।
২০০ জন আসামীর মধ্যে ৬০ জন এজাহারভূক্ত ও ১৪০ অজ্ঞাতনামা আসামী করা হয়েছে। মামলার ১নং আসামী কক্সবাজার পৌর বিএনপি’র সিনিয়র সহ-সভাপতি আবুল কাসেমকে গ্রেপ্তার করে আদালতের মাধ্যমে ৮ নভেম্বর জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •