হাফিজুল ইসলাম চৌধুরী :
কক্সবাজার জেলা বৌদ্ধ সুরক্ষা পরিষদের সাথে নবাগত জেলা পুলিশ সুপারের (এসপি) মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত শনিবার বিকেলে পুলিশ সুপার কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত ওই সভায় বৌদ্ধদের সার্বিক নিরাপত্তা, আসন্ন প্রবারণা পূর্ণিমা উপলক্ষে ফানুস উত্তোলন এবং জাহাজ ভাসা উৎসবসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়।

এসময় পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসেন বলেন, বাংলাদেশের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ জেলা এই কক্সবাজার। এঅঞ্চল সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির জন্যও খ্যাত। কিন্তু ২০১২ সালের নৃশংস একটি ঘটনা পুরো দেশকে নাড়িয়ে দেয়।

বহিঃবিশ্বেও দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হয়। আর যাতে সেরকম ঘটনা না ঘটে প্রশাসন এখন সর্বদা সতর্ক এবং কাজ করে যাচ্ছে। আসলে একজন প্রকৃত ধার্মিক মানুষকে আমি কখনো অন্য ধর্মের মানুষের ধর্ম বিশ্বাসে আঘাত করতে দেখিনি। যারা করে তাদের কাছে কোন ধর্ম নেই। ধর্মও তাদের কাছে নিরাপদ নয়। তাদের ব্যাপারে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। আমাদেরকেও সহযোগিতা করতে হবে অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি আমাদেরকে রক্ষা করতে হবে। যেকোন ধরণের প্রয়োজনে এবং নিরাপত্তা প্রশ্নে পুলিশ সবসময় বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের পাশে আছে।

সভায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ ইকবাল হোসেন, কক্সবাজার জেলা বৌদ্ধ সুরক্ষা পরিষদের সভাপতি ভদন্ত প্রজ্ঞানন্দ ভিক্ষু, সাধারণ সম্পাদক অমরবিন্দু বড়ুয়া অমল, সিনিয়র সহসভাপতি শুভংকর বড়ুয়া, সহসভাপতি অশোক কুমার বড়ুয়া, মৃনাল বড়ুয়া, আলহারি রাখাইন, সাংগঠনিক সম্পাদক প্রবাল বড়ুয়া, বিপক বড়ুয়া বিটু, পটল বড়ুয়া, অর্থ সম্পাদক রাজু বড়ুয়া, শিক্ষা বিষযক সম্পাদক শিক্ষক মিলন বড়ুয়া, সমাজ কল্যাণ সম্পাদক কেতন বড়ুয়া, তথ্যপ্রযুক্তি সম্পাদক শিপন বড়ুয়া প্রমূখ বক্তব্য দেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •