আওয়ামী লীগ প্রার্থীদের ঢাকায় দৌঁড়ঝাপ, অনিশ্চিয়তায় বিএনপি

হাফিজুল ইসলাম চৌধুরী:
আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে পর্যটন জেলা কক্সবাজারে চলছে নানা হিসাব-নিকেশ। জেলার ৪টি সংসদীয় আসনে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন পেতে তৎপর প্রবীণ-নবীন সম্ভাব্য প্রার্থীরা। অপরদিকে বিএনপির নেতৃত্বাধীন ১৮-দলীয় জোটের নেতারা নির্বাচন নিয়ে চরম অনিশ্চিয়তায় ভূগছেন।

তবে কক্সবাজার জেলা বিএনপির সভাপতি শাহাজাহান চৌধুরী মুঠোফোনে বলেন, আগামী নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হলে তাঁরা অবশ্যই অংশগ্রহণ করবেন। সেই হিসাবে কেন্দ্রের নির্দেশে কক্সবাজারের ৪টি আসনেই জয় লাভ করতে তাঁরা নানা ছক আঁকছেন।

এদিকে জেলার ৪ আসনে বর্তমান ও সাবেক সংসদ সদস্য, উপজেলা চেয়ারম্যান, পৌর মেয়রসহ প্রায় অর্ধশত আওয়ামী লীগ নেতা দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার আশায় জোর লবিং চালিয়ে যাচ্ছেন। সম্প্রতি জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌরপিতা মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে জেলার তিন শতাধিক নেতাকর্মী টুঙ্গিপাড়ায় গিয়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহগমানের কবর জিয়ারত করেছেন।

সেখানে থেকে ফেরার পথে মনোনয়ন প্রত্যাশীরা রয়ে যান ঢাকায়। বাকি নেতাকর্মীরা কক্সবাজারে যথাসময়ে পৌঁছে গেলেও সম্ভাব্য মনোনয়ন প্রত্যাশীরা, মনোনয়নের আশায় ঢাকায় কেন্দ্রের বড় নেতাদের কাছে তদবির অব্যাহত রেখেছেন। জেলা আওয়ামী লীগের নীতি-নির্ধারকের মধ্যেও দলীয় মনোনয়ন ভাগিয়ে আনতে লবিং চলছে। সম্ভাব্য স্ব-স্ব প্রার্থীদের কর্মী-সমর্থকরা নিজ নিজ এলাকায় নিজেদের অবস্থান সুদৃড় করার প্রয়াস চালাচ্ছে। ফলে এ নিয়ে দলীয় নেতা-কর্মীদের মধ্যে ব্যাপক চাঙ্গাভাব দেখা দিয়েছে।

সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে দলীয় মনোনয়ন পেতে তৎপর বেশ কয়েকজন নবীন সম্ভাব্য প্রার্থী। তারা তৃণমূলের চেয়ে কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গে বেশি যোগাযোগ রক্ষা করে চলেছেন। অনেকে আবার দলীয় সভানেত্রী শেখ হাসিনার স্বজনদের কাছেও ছুটছেন বলেও জানা গেছে।

এদিকে কক্সবাজার-১ (চকরিয়া-পেকুয়া) আসনে উল্লেখযোগ্য প্রার্থীরা হলেন-চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি জাফর আলম, জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সালাহউদ্দিন আহমদ সিআইপি, কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় নেতা রেজাউল করিম ও আওয়ামী লীগ নেতা আশরাফুল ইসলাম সজীব।

কক্সবাজার-২ (মহেশখালী-কুতুবদিয়া) আসনে উল্লেখযোগ্য প্রার্থীরা হলেন- বর্তমান সাংসদ আশেক উল্লাহ রফিক, জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি অ্যাডভোকেট সিরাজুল মোস্তফা, পরিবেশ বিজ্ঞানী ড. আনছারুল করিম ও কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ নেতা ওসমান গণি।

কক্সবাজার-৩ (সদর-রামু) আসনে উল্লেখযোগ্য প্রার্থীরা হলেন- বর্তমান সাংসদ সাইমুম সরওয়ার কমল, জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগ সভানেত্রী কানিজ ফাতেমা মোস্তাক, রামু উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি সোহেল সরওয়ার কাজল, জেলা আওয়ামী লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক নাজনীন সরওয়ার কাবেরী, পৌর আওয়ামী লীগ সভাপতি নজিবুল ইসলাম ও জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি ইশতিয়াক আহমদ জয়।

কক্সবাজার-৪ (উখিয়া-টেকনাফ) আসনে উল্লেখযোগ্য প্রার্থীরা হলেন- বর্তমান সাংসদ আবদুর রহমান বদি, জেলা যুবলীগের সভাপতি সোহেল আহমদ বাহাদুর, মন্ত্রীপরিষদ সচিবের ভাই, হলদিয়া পালং ইউপি চেয়ারম্যান শাহ আলম, কেন্দ্রীয় তাঁতী লীগের সভাপতি সাধনা দাশ গুপ্তা, টেকনাফ উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী ও উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী।

সর্বশেষ সংবাদ

রোহিঙ্গা ইস্যুতে বৈঠকে বসছে বাংলাদেশ মিয়ানমার চীন

চকরিয়ায় তিনটি অভিজাত রেস্তোরাঁকে ৪৫ হাজার টাকা জরিমানা

বিয়ে করে স্ত্রীর মর্যাদা না দেয়ার অভিযোগ উখিয়া স্বাস্থ্য সহকারীর বিরুদ্ধে

চকরিয়ায় আওয়ামী লীগের কাউন্সিলর তালিকা নিয়ে অভিযোগ

চকরিয়ার এসিল্যান্ড তানভীর হোসেনের সাথে সনাকের মতবিনিময়

এমপি কমলের গণসংবর্ধনা ২০ সেপ্টেম্বর

তৈয়ব উল্লাহ চৌধুরীর রোগ মুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিল

ইসলামাবাদে ঐক্য পরিষদের উদ্যোগে স্বেচ্ছায় রাস্তা সংস্কার

আব্দুল হান্নানের মৃত্যুতে জেলা আওয়ামী লীগের শোক

Two Rohingya detained along with 210 Myanmar SIM card

রামুতে ৪ হাজার ফলজ ও বনজ চারা বিতরণ করেছে মৈত্রী’০২

এমপি কমল লন্ডন থেকে দেশে ফিরেছেন

লামার হায়দারনাশী উচ্চ বিদ্যালয়ের নব নিয়োগপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক ষড়যন্ত্রের শিকার

আল্লামা শেখ সোলাইমানের জানাজায় শোকাহতদের ঢল

জাতীয় ওয়ায়েজীন পরিষদ বাংলাদেশ কক্সবাজার জেলা কাউন্সিল অনুষ্ঠিত

পিপি নির্বাচিত হওয়ায় এড. ফরিদুল আলমকে জেলা ছাত্রলীগের অভিনন্দন

চকরিয়া উপজেলা কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির প্রস্তুতি সভা

বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টে কক্সবাজার পৌরসভা দলের জার্সি উন্মোচন

বুধবার জেলা আওয়ামীলীগের বিশেষ বর্ধিত সভা

সেন্টমার্টিনে চেয়ারম্যান গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন