মো. নুরুল করিম আরমান, লামা:

বান্দরবানের লামা উপজেলায় ইঞ্জিন চালিত এক যাত্রীবাহি নৌকা ডুবে নিখোঁজ ৩ ব্যক্তি ২৭ ঘন্টায়ও উদ্ধার হয়নি। গত শনিবার বিকালে উপজেলার ওপর দিয়ে বয়ে চলা মাতামুহুরী নদীর লামামুখ এলাকা থেকে পোপা হেডম্যান পাড়ায় যাওয়ার পথে নৌকা ডুবে তারা নিখোঁজ হয়।

নিখোঁজ ব্যক্তিরা হলেন- লামা সদর ইউনিয়নের লাইল্যা নয়া পাড়ার বাসিন্দা পয়াং ম্রোর ছেলে মেনপ্রে মুরুং (৩৫), তাউপাড়ার বাসিন্দা চিংক্রাত ম্রোর ছেলে রেংপং ম্রো (৪০) ও গজালিয়া ইউনিয়নের চিয়ম পাড়ার বাসিন্দা লুলেক ম্রো (৫৫)। ঘটনার পর থেকে নিখোঁজদের উদ্ধারে লামা এবং চট্টগ্রাম ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স’র ডুবুরিরা কাজ করছেন। রবিবার সন্ধ্যা ৭টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত নিখোঁজদের কোন সন্ধান মেলেনি। এদিকে ২৭ ঘন্টা পরও নিখোঁজরা উদ্ধার না হওয়ায় স্বজনদের মাঝে উদ্বেগ ও উৎকন্ঠা বিরাজ করছে।

স্থানীয়রা জানায়, শফিকুলের ইঞ্জিন চালিত নৌকা যোগে শনিবার বিকাল ৪টার দিকে মেনপ্রে মুরুং, রেংপং ম্রো ও লুলেক ম্রোসহ ১৭জন পোপা হেডম্যানপাড়ায় যাচ্ছিলেন। নৌকাটি নদীর পোপা খালের মোহনায় পৌঁছলে স্রোতের টানে ডুবে যায়। এ সময় নৌকা চালকসহ অন্যরা সাঁতার কেটে পাড়ে ওঠতে পারলেও তিনজন ডুবে যায়। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সদস্যরা উদ্ধার অভিযানে নামেন।

এ বিষয়ে লামা ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশন লিডার বিশান্ত বড়–য়া বলেন, নিখোঁজদের উদ্ধারের চেষ্টা চলছে। রবিবার সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত নিখোঁজদের সন্ধান মেলেনি। তবে নিখোঁজদের উদ্ধারে চট্টগ্রাম থেকে আসা ডুবুরীরা অভিযান অব্যাহত রেখেছেন।

নদীতে ডুবে তিনজন নিখোঁজ হওয়ার সত্যতা নিশ্চিত করে লামা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আপ্পেলা রাজু নাহা বলেন, নিখোঁজদের উদ্ধারে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সদস্যরা কাজ করছেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •