কঠিন চ্যালেঞ্জের সামনে ইমরান খান, কী করবেন?

রয়টার্স:
পাকিস্তানের সদ্যসমাপ্ত নির্বাচনে পিটিআইয়ের ইমরান খানের বিজয়কে স্বাগত জানিয়েছে ইকুইটি ও বন্ড মার্কেট। তবে বিশ্বকাপজয়ী সাবেক এ ক্রিকেটারের সামনে অসংখ্য চ্যালেঞ্জ অপো করছে। চলমান মুদ্রা সঙ্কট ও আর্থিক অচলাবস্থা নিরসনে দীর্ঘমেয়াদি পদপে গ্রহণ জরুরি হিসেবে দেখা দেবে ইমরান সরকারের কাছে।

ইমরানকে প্রথম যে বড় ইস্যুতে সিদ্ধান্ত নিতে হতে পারে তা হলো, রুপির ওপর চাপ কমাতে আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) কাছে বেইলআউটের আবেদন করা হবে কি হবে না। আশির দশকের পর এ নিয়ে ১২ বার আইএমএফের সহযোগিতায় বেইলআউট নিয়েছে পাকিস্তান।

দেশটির মানুষকে কর প্রদানে উদ্বুদ্ধ করা হবে খানের সামনে আরো বড় চ্যালেঞ্জ। সরকারি তহবিল ফুরিয়ে ফেলা ভর্তুকি উদ্যোগ ও লোকসানি রাষ্ট্রীয় উদ্যোগ বন্ধ করতেও প্রতিবন্ধকতার মুখোমুখি হবে পিটিআই নেতৃত্বাধীন সরকার।
স্থানীয় ব্রোকারেজ হাউজ শাজার ক্যাপিটালের হেড অব রিসার্চ সুলায়মান মানিয়া বলেন, ‘দেশের অবস্থা বর্তমানে এমন অবস্থায় দাঁড়িয়েছে যে, দীর্ঘ দিন স্থিতাবস্থা (স্ট্যাটাস কুয়ো) টিকিয়ে রাখা যাবে না।’ খুব দ্রুতই কার্যকর পদপে গ্রহণ জরুরি বলে মনে করেন তিনি।

গত ডিসেম্বরের পর রুপির চারবার অবমূল্যায়ন করেছে পাকিস্তানের কেন্দ্রীয় ব্যাংক (এসবিপি)। প্রায় ৩০ হাজার ৫০০ কোটি ডলারের অর্থনীতির লেনদেন ভারসাম্য (ব্যালান্স অব পেমেন্টস) সঙ্কট ঠেকাতে রুপির মান ২০ শতাংশেরও বেশি অবমূল্যায়ন করা হয়েছে। যদিও ১৩ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ ৫ দশমিক ৮০ শতাংশ হারে দেশটির অর্থনীতি সম্প্রসারিত হচ্ছে, তবে পাকিস্তানের চলতি হিসাবে চাপ কমার ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে না।
এ ছাড়া বৈশ্বিক তেলের মূল্যবৃদ্ধিতে উদ্বিগ্ন এসবিপি। কারণ দেশটি মোট তেলের ৮০ শতাংশই আমদানি করে। এ বিশাল আমদানি প্রয়োজন মেটাতে বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভে চাপ পড়ে, যা গত সপ্তাহে ৯০০ কোটি ডলারে নেমে এসেছে। ২০১৭ সালের মে মাসে যেখানে বৈদেশিক মুদ্র্রার রিজার্ভ ছিল এক হাজার ৬৪০ কোটি ডলার। ৩০ জুন শেষ হওয়া সর্বশেষ অর্থবছরে পাকিস্তানের চলতি হিসাবে ঘাটতি ৪৩ শতাংশ বেড়ে এক হাজার ৮০০ কোটি ডলারে দাঁড়িয়েছে এবং রাজস্ব ঘাটতি গিয়ে দাঁড়িয়েছে অর্থনীতির ৬ দশমিক ৮০ শতাংশে।

বৃহস্পতিবার বিজয়ী বক্তৃতায় নিজের সংস্কার এজেন্ডার দিকে ইঙ্গিত করে পিটিআই প্রধান বলেন, ‘ইতিহাসে সবচেয়ে বড় অর্থনৈতিক চ্যালেঞ্জের মুখে দাঁড়িয়েছে পাকিস্তান।’ ইমরান খান বলেন, ‘আমাদের অকার্যকর প্রতিষ্ঠানের কারণে অর্থনীতি নি¤œœমুখী হচ্ছে। আমাদের এ সরকার ব্যবস্থাপনা (গভর্ন্যান্স) ঠিকঠাক করতে হবে।’

কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

কক্সবাজার-৩ সাইমুম সরওয়ার কমলসহ আ.লীগের ৫৪ প্রার্থীর চূড়ান্ত তালিকা

অনলাইন সংবাদের জনপ্রিয়তার প্রতি সরকারের সু-নজর জরুরী

ফ্রান্সস্থ প্রজ্ঞাবিহারের কঠিন চীবর দান উৎসব উদযাপিত

চট্টগ্রামে পাহাড়তলীতে অস্ত্রসহ যুবক আটক

পেকুয়ায় প্রশাসনের উদ্যোগে বিলবোর্ড, ব্যানার-ফেস্টুন অপসারন

গণপূর্ত বিভাগের দায়িত্বহীনতায় স্বাস্থ্য ও অপরাধ ঝুঁকিতে প্রায় তিন’শ শিক্ষার্থী

শিশু জুবায়ের’র উপর এ কেমন শাসন!

হাসিনা : এ ডটার’স টেলে বানান ভুল, ব্লকবাস্টারকে লিগ্যাল নোটিশ

ক্ষমতায় গেলে সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান জাতীয়করণ করবে ঐক্যফ্রন্ট

“বিড়ালের গলায় মুক্তার মালা !”

লবণ উৎপাদনে স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জনে গবেষণার বিকল্প নাই : বিসিক চেয়ারম্যান

চট্টগ্রামে দৈনিক কর্ণফুলী সম্পাদক আফসার উদ্দিন গ্রেফতার

চার দিনব্যাপী আয়কর মেলা সমাপ্ত, ৮০ লাখ ৫১ হাজার ৭৮০ টাকা রাজস্ব আদায়

নাইক্ষ্যংছড়িতে বীর বাহাদুরের পক্ষে একাট্টা

মাউশির নতুন মহাপরিচালক সৈয়দ গোলাম ফারুক

পৌর এলাকাকে ‘স্বাস্থ্যকর শহর’ করার ঘোষণা দিলেন মেয়র মুজিবুর রহমান

রাফিয়া আলম জেবা : অদম্য এক পিইসি পরীক্ষার্থী

ইসলামাবাদ থেকে অস্ত্রসহ যুবক গ্রেফতার

#METOO নারীর ভয়ঙ্কর কষ্টের কথা

সারাদেশে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার অভিযান শুরু : চকরিয়ায় আইজিপি