গুরুতর অসুস্থ, কারাগার থেকে হাসপাতালে নওয়াজ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:
পাকিস্তানের ক্ষমতাচ্যুত সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফকে কারাগার থেকে ইসলামাবাদের একটি হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। রাওয়ালপিন্ডির আদিয়ালা কারাগারে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় রোববার হাসপাতালে স্থানান্তরের পরামর্শ দেন চিকিৎসকরা।

পাকিস্তানি দৈনিক দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউন এক প্রতিবেদনে বলছে, কারাবন্দি সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফকে ইসলামাবাদের পাকিস্তান ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্সে (পিআইএমএস) নেয়া হয়েছে।

আদিয়ালা কারাগারের একটি সূত্রের বরাত দিয়ে দেশটির টেলিভিশন চ্যানেল জিও নিউজ বলছে, সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী বুকে ব্যথা অনুভব করায় কারাগারের চিকিৎসকরা তার চেক আপ করেন। মেডিকেল চেক আপের পর চিকিৎসকরা নওয়াজ শরিফকে দ্রুত করোনারি কেয়ার ইউনিটে (সিসিইউ) নেয়ার পরামর্শ দেন।

চিকিৎসকের পরামর্শের পর আদিয়ালা কারাগারের সুপারিন্টেডেন্ট দেশটির ক্ষমতাসীন তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। সরকারের সবুজ সংকেত পাওয়ার নওয়াজকে পিআইএমএসে স্থানান্তর করা হয়।

গত ২৪ জুলাই নওয়াজ শরিফের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করার জন্য একটি মেডিকেল বোর্ড গঠন করা হয়। ওইদিন বোর্ডের চিকিৎসকরা জানান, তিনবারের সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীর যথাযথ চিকিৎসা ও সেবা দরকার।

এদিকে, নওয়াজকে সিসিইউতে স্থানান্তরের পর পাকিস্তান ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্স পাঁচ সদস্যের মেডিকেল বোর্ড গঠন করেছে। দুর্নীতির দায়ে দণ্ডপ্রাপ্ত পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ ও তার মেয়ে মরিয়ম নওয়াজ গত ১৩ জুলাই লন্ডন থেকে লাহোরে ফেরেন। পরে তাদের গ্রেফতার করে দেশটির পুলিশ।

দণ্ডপ্রাপ্ত সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীকে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট অযোগ্য ঘোষণা করায় ২৫ জুলাইয়ের সাধারণ নির্বাচনে অংশ নিতে পারেননি। দুর্নীতির মাধ্যমে অর্থ হাতিয়ে লন্ডনে চারটি বিলাসবহুল বাড়ি কেনার দায়ে পাকিস্তানের একটি আদালত নওয়াজকে দোষী সাব্যস্ত করে ১০ বছরের কারাদণ্ড দেন।

পাশাপাশি তার মেয়ে মরিয়মকে সাত বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়। পানামা পেপারর্স কেলেঙ্কারিতে অবৈধ সম্পত্তির মালিকানার দায়ে আরো দুটি মামলা চলমান রয়েছে নওয়াজ শরিফের বিরুদ্ধে।

কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন : কোন অপরাধে কি শাস্তি !

বিগ বসের টোপ দিয়ে নারীদের বিছানায় ডাকেন তিনি

‘এই লীগ লুটেরা লীগ’

খালেদার মুক্তি চাইলেন মান্না

কক্সবাজার শহরে ২০ স্পটে যানজট বিরোধী অভিযান

ইরানে সামরিক কুচকাওয়াজে হামলা, নিহত ৪

জনগণ সুশাসন দেখতে চায় : কামাল হোসেন

‘দুর্নীতি করব না, মিথ্যা কথা বলব না, অসৎ কাজ করব না’

বান্দরবানে কোটি টাকার ব্যয়ে তিনটি উন্নয়ন কাজের উদ্বোধন

চকরিয়া আ.লীগের কেন্দ্রীয় নির্বাচনী বহরের জনসভায় লাখো মানুষের উপস্থিতির প্রস্তুতি

তথ্য প্রযুক্তি ও কারিগরি শিক্ষার মাধ্যমে মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করতে হবে- রামুতে মন্ত্রীপরিষদ সচিব

কড়ি-পাইপ বাজারত্তুন ঈদগাঁও বাজার!

স্মৃতি তুমি বেদনা

মরহুম এড. খালেকুজ্জামান স্মরণে মসজিদে মসজিদে দোয়া

হোয়াইক্যং হাইওয়ে পুলিশের অভিযানে ৫হাজার ইয়াবা সহ আটক-২

এলাকার উন্নয়নই আমার স্বপ্ন -কাউন্সিলর সাহাব উদ্দিন সিকদার

শহীদ জাফর মাল্টিডিসিপ্লিনারী একাডেমিক ভবনের উদ্বোধন

মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশি কর্মীদের ন্যায় বিচার কোথায়?

আইনগত ভিত্তি পেলেই ইভিএম ব্যবহার : সিইসি

খাগড়াছড়িতে ব্রিজ ভেঙে ট্রাক নদীতে, নিখোঁজ ১