এম.জিয়াবুল হক,চকরিয়া :

চকরিয়া উপজেলার উপকূলীয় ইউনিয়ন বদরখালীর অন্যতম দ্বীনি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বদরখালী এম.এস ফাজিল (ডিগ্রি) মাদরাসায় “যুক্তি দিয়ে বিবেচনা করি, ধর্মীয় উগ্রবাদ কুসংস্কারমুক্ত সমাজ গড়ি” স্লোগানে বুধবার তরুণ আলো প্রকল্প ইলমা চকরিয়ার সহযোগিতায় শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহনে বিতর্ক উৎসব অনুষ্ঠিত হয়েছে। ‘মাদকের কারণেই যুবসমাজ উগ্রতা ও সহিংসতায় ঝুঁকে পড়ছে’ এই বিষয়টিকে সামনে রেখে পক্ষ দল ও বিপক্ষ দলের মধ্যে বিতর্ক হয়। বিতার্কিকরা যুক্তির মাধ্যমে যুবসমাজ ধবংসের কারণ খুঁজতে থাকে এবং সমাধানের উপায়ও বের করেন। এই বিতর্ক উৎসবে বিজয়ী হয় বিপক্ষ দল। শ্রেষ্ঠ বিতার্কিক নির্বাচিত হয় পক্ষ দলের দলনেতা নাজিয়া খানম।

শ্রেষ্ঠ নির্বাচিত বিতার্কিক নাজিয়া খানম বলেন, আমাদের মত তরুণ ছেলেমেয়েদেরকে বিপদের হাত থেকে রক্ষা করার অন্যতম হাতিয়ার হল বিতর্ক কারণ বিতর্কের মাধ্যমে সত্যের শেষ সীমানায় পৌঁছানো যায় এবং এই বিতর্কই আমাদেরকে আলোর পথ দেখাবে।

উৎসবে প্রধান আলোচক তরুণ আলো প্রকল্প ব্যবস্থাপক ফোরকান মাহমুদ বলেন, বিতর্ক করলে নিজেকে সঠিকভাবে চেনা যায়। বিতর্কচর্চা করলে আত্মশুদ্ধি ঘটিয়ে পরিপূর্ণ মানুষ হওয়া যায়।

সভাপতির বক্তব্যে উপাধ্যক্ষ সাঈদ আহমদ তারেক বলেন, বিতর্ক লেখাপড়ারই অংশ। বিতর্কে শিক্ষার্থীদের সৃজনশীলতার বিকাশ ঘটে। আগামীর কর্ণধার গড়ে তুলবে বিতর্ক। সুষ্ঠু ও যুক্তিনির্ভর সমাজ গঠনে বিতর্কচর্চার কোনো বিকল্প নেই।

বিতর্ক উৎসবে মডারেটর হিসেবে ছিলেন তরুণ আলো কর্মকর্তা জাহিদুর রহমান ও বিচারকের দায়িত্ব পালন করে শিক্ষক ইসমাঈল হোসেন সিরাজী,মোহাম্মদ আলমগীর, মাওলানা আরিফুল হক বকরী। বিতার্কিকদের উদ্দ্যেশে আরো বক্তব্য রাখেন সিনিয়র শিক্ষক রশিদ আহমদ,প্রভাষক আরিফ উল্লাহ, মকসুদ আহমদ ও তারিকুল ইসলাম প্রমুখ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •