‘মুজিব বদ্দা’ সমীপে তোতা মিয়ার খোলা চিঠি

বর্তমান পৃথিবীতে ‘ককসবাজার’ আলোচিত একটি নাম। শরণার্থীদের আশ্রয়ের কল্যানে জাতিসংঘ সহ তামাম দুনিয়ার উঁচু-নীচু পদের বহু ভিভিআইপিদের পদচারণায় মুখর নগরী। যদিও প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে সমৃদ্ধ এই ভূমি পর্যটকদের জন্য প্রাচীনকাল থেকেই সুপরিচিত এবং দ্যুতিময়।

মুজিব বদ্দা, আপনি ককসবাজারের পৌর পিতা নির্বাচিত হয়েছেন। জনগণ ভালোবেসে আপনাকে ‘বদ্দা’ সম্বোধন করে৷ আপনি মুজিব বদ্দার কর্মময় পরিবেশে চঞ্চল হয়ে উঠুক পৌরসভা প্রাঙ্গণ।

পর সমাচার, বর্তমান ককসবাজার শহর দীর্ঘদিন হতে অগোছালো, আবর্জনা এবং নানা সমস্যায় জর্জরিত৷ বিশেষ করে, জলবদ্ধতার কারণে এই নগরী গুমরে কাঁদছে। অসাধারণ এই শহরটি সাধারণ বারোয়ারী একটি নগরের ন্যায় বৃষ্টির পানিতে নিমজ্জিত। পানি সরে গেলে পাহাড়ি মাটি এবং কাঁদায় চলাচল অযোগ্য। পথচারী, শিশু কিশোর, নারী, বৃদ্ধ ও অসুস্থরা অসহায় হয়ে পড়ে।

আপনি জানেন, সম্প্রতি চট্টগ্রাম মহানগরীর জলাবদ্ধতা নিরসনের জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ নির্দেশনায় একনেকে প্রকল্প পাশ করে ড্রেনেজ ব্যবস্থার জন্য বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর তত্ত্বাবধানে কয়েক হাজার কোটি টাকার কাজ শুরু করেছে। আশা করা হচ্ছে অচিরেই চট্টগ্রামবাসী সুফল পাবে৷ এখানে বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য, প্রকল্পের প্রারম্ভে ড্রেনেজ ব্যবস্থার জন্য সার্ভে, নকশা প্রণয়ণ এবং কনসালটেন্সি করছে নেদারল্যান্ডসের একদল বিশেষজ্ঞ প্রকৌশলী প্যানেল।

নেদারল্যান্ডস সমুদ্রপৃষ্ঠ হতে নীচুর একটি দেশ। যারা সমুদ্রকে বশ করে পৃথিবীর অন্যান্য দেশের কাছে উদাহরণ হয়ে আছে। যার কারণে নদীমাতৃক বাংলাদেশকে নেদারল্যান্ডসের প্রকৌশলীরা অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে দেখেন৷

যেহেতু ককসবাজার স্পর্শকাতর একটি শহর, জলাবদ্ধতায় নিমগ্ন, সেহেতু স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের সহযোগীতায় নেদারল্যান্ডসের বিশেষজ্ঞ প্রকৌশলী দিয়ে প্রাক-সার্ভে করে কিভাবে এই সমস্যা হতে উত্তীর্ণ হওয়া যায়, সম্ভবত একটি সুপরিকল্পিত স্থায়ী সমাধান পাওয়া যাবে৷

ককসবাজারের এক পাশে বাঁকখালী নদী। এরচেয়ে আশীর্বাদ আর হতে পারে না। অথচ শহরে কোন আন্ডারগ্রাউন্ড ড্রেন নেই।

২৪ ঘন্টায় সর্বোচ্চ পরিমাণ বৃষ্টি পরিমাপ করে আগামী ৩০ বছরকে ধর্তব্য ধরে সেই পরিমাণ বৃষ্টির পানি, সাথে স্বাভাবিক পানি বিবেচনা করে ড্রেন, আন্ডারগ্রাউন্ড ড্রেন, প্রয়োজনে নদীর সাথে ড্রেনের সংযোগস্থলে ওয়াটার টাইট রেগুলেটর এবং ওয়াটার ডিসচার্জ পাম্প বসিয়ে জলাবদ্ধতার স্থায়ী সমাধান সম্ভব।

অবহেলিত, অপরিকল্পিত, শুধু দায়িত্বের খাতিরে নগর পরিচালনা হতে বের হয়ে আসুন। ইঞ্জিনিয়ারিং মেথডে পরিকল্পিত শহরের স্বপ্নকে বাস্তবায়ন করুন।

আপনি ও আপনাদের জন্য শুভ কামনা।

বিনীত

তোতা মিয়া
(ইমরুল শাহেদ)
প্রকৌশলী

সর্বশেষ সংবাদ

ইউজিপি-থ্রি প্রকল্প পরিচালকের কলাতলী – মেরিন ড্রাইভ চলমান কাজ পরিদর্শন

দারুল আরক্বম তাহফীযুল কুরআন মাদরাসার সবিনা অনুষ্ঠান সম্পন্ন

আলোকিত উখিয়ায় প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ

আদালতের আদেশনামা গোপন করে শপথ নিয়েছে জমিরী- রফিক উদ্দীন

জেরায় বিমর্ষ সোনাগাজী থানার সেই ওসি মোয়াজ্জেম

পেকুয়ায় শরতঘোনা পয়েন্টে বেড়িবাঁধ বিলীন

পেকুয়ায় মুক্তিযোদ্ধার ছেলেকে হত্যাচেষ্টা

চকরিয়ায় অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থদের উপজেলা প্রশাসনের আর্থিক সহায়তা

কিশলয় বালিকা স্কুলে দুর্নীতি বিরোধী বির্তক প্রতিযোগিতা ও আলোচনা সভা

প্রবাসীদের আত্মকথা

সৈকত আবাসিক এলাকার প্লট অ-আবাসিক/বাণিজ্যিক অনুমতি নীতিমালা প্রণয়ন সভা

প্রচন্ড দাবদাহে জনজীবনে নাভিশ্বাস

কক্সবাজারে পালিত হচ্ছে বিশ্ব টিকাদান সপ্তাহ

রামুতে পালিত হয়েছে বিশ্ব ম্যালেরিয়া দিবস

অপসংস্কৃতির বিষাক্ত ছোবলে যুবসমাজের নৈতিকতার অবক্ষয়

চকরিয়ায় প্রধান শিক্ষকের অপসারণ দাবিতে শিক্ষার্থীদের স্কুলে তালা : ক্লাস বর্জন

মসজিদের বিদ্যুৎ বিল বকেয়া, নামাজের সময় সংযোগ বিচ্ছিন্ন!

শরনার্থীদের সমন্বয়ে বলিষ্ঠ ভূমিকা রাখায় সরকার ও জেলা প্রশাসনের প্রশংসা

কক্সবাজার মেডিকেল কলেজ দুর্নীতি, ১০ জনের বিরুদ্ধে মামলা হচ্ছে

বাইশারীতে ড্রেজার মেশিন জব্দ, ইটভাটার মালিককে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা