পেকুয়ায় ইভটিজিংয়ের শিকার নবম শ্রেণীর ছাত্রী: ইউএনওর কাছে লিখিত অভিযোগ

পেকুয়া সংবাদদাতা :

কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলায় একদল বখাটে কর্তৃক নবম শ্রেণীতে পড়ুয়া এক ছাত্রী ইভটিজিংয়ের শিকার হয়েছে। ওই ছাত্রীর নাম জান্নাতুলে কাশেফা মুন্নি। সে পেকুয়া আদর্শ মহিলা দাখিল মাদ্রাসার নবম শ্রেণীর ছাত্রী ও বারবাকিয়া ইউনিয়নের পশ্চিম জালিয়াকাটা গ্রামের নুরুল আবছারের কন্যা। বর্তমানে বখাটেদের উপর্যপুরি হুমকিতে ওই ছাত্রীর পরিবার অসহায় হয়ে পড়েছে। এর প্রতিকার চেয়ে ওই ছাত্রীর প্রতিষ্টানের পক্ষ থেকে ইউএনওর কাছে বখাটেদের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

ছাত্রীর মা মনোয়ারা বেগম অভিযোগ করেছেন, দীর্ঘদিন ধরে মাদ্রাসায় আসা যাওয়ার পথে তার মেয়েকে অশ্লীল গালিগালাজসহ নানান ধরনের অশালীন কথাবার্তা বলে ইভটিজিং করে আসছিল স্থানীয় একদল বখাটে। এরই ধারাবাহিকতায় গত ৪ জুলাই দুপুর ২ ঘটিকার দিকে তার মেয়ে মাদ্রাসা থেকে বাড়ী ফেরার পথে গতিরোধ করে পশ্চিম জালিয়াকা গ্রামের জসিম উদ্দিনের পুত্র মো: তারেক (২০) ও মো: আরিফ (২৫), আবুল আহমদের পুত্র মো: আমজাদ হোসেন (২৫)সহ আরো দুই জন লোক। এসময় বখাটেরা তার মেয়েকে অপহরণ চেষ্টা চালায় এবং শরীরের কাপড়-ছোপড় টেনে ছিঁড়ে দিয়ে ব্যাপক মারধর। পরে এলাকাবাসী এগিয়ে এসে ওই ছাত্রীকে উদ্ধার করে।

এদিকে ঘটনার পর ওই ছাত্রীর মা মনোয়ারা বেগম বখাটেদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য পেকুয়া আদর্শ মহিলা দাখিল মাদ্রাসার সুপার বরাবরে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগ পেয়ে মাদ্রাসা সুপার বিষয়টি তদন্ত করে প্রতিবেদন দেওয়ার জন্য মাদ্রাসার সহ সুপার ও অপর একজন শিক্ষককে দায়িত্ব দেন। এরপর মাদ্রাসার সহ সুপার ও একজন শিক্ষক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ইভটিজিংয়ের শিকার ছাত্রী, অভিভাবক ও এলাকাবাসীদের সাথে কথা বলে স্বাক্ষ্য গ্রহণ করেন এবং ঘটনার সত্যতা পান। তারা তদন্ত প্রতিবেদন মাদ্রাসা সুপারের কাছে জমা দেন।

পেকুয়া আদর্শ দাখিল মাদ্রাসার সুপাার মোহাম্মদ নুরুল ইসলাম জানিয়েছেন, মাদ্রাসার দুই শিক্ষকদ্বারা ওই ছাত্রীর মায়ের দায়ের করা অভিযোগটি তদন্ত করা হয়েছে। তদন্তে মাদ্রাসায় আসা যাওয়ার পথে তার মাদ্রাসার নবম শ্রেণীর ছাত্রী জান্নাতুল কাশেফা মুন্নিকে ইভটিজিং করার ঘটনার সত্যতা পাওয়া যাওয়ায় জড়িত ৫ জনের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য মাদ্রাসার পক্ষ থেকে গত ৯ জুলাই পেকুয়ার ইউএনওর কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

পেকুয়ার ইউএনও মোহাম্মদ মাহবুবউল আলম জানান, রোববার (১৫জুলাই) মাদ্রাসার সুপার ও ইভটিজিংয়ের শিকার ছাত্রী ও তার অভিভাবকদের অফিসে আসার জন্য বলা হয়েছে। ইভটিজিংয়ের ঘটনা সত্য হয়ে থাকলে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এদিকে ইউএনওর কাছে ইভটিজিংয়ের অভিযোগ করা ওই ছাত্রী ও তার পরিবারকে বিভিন্ন হুমকি-ধমকি দিয়ে অভিযোগ প্রত্যাহারের জন্য বখাটের দল প্রকাশ্যে হুমকি দিচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

প্রসঙ্গ : প্রাথমিক বিদ্যালয়ে চলতি দায়িত্ব

বৃহত্তর ঈদগাঁওয়ের প্রায় ১শ কি.মি সড়ক চলাচলের অনুপযোগী, সেতুমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ

টেকপাড়ায় মাঠে গড়াল বৃহত্তর গোল্ডকাপ ফুটবল টূর্ণামেন্টের ৫ম আসর

মাতারবাড়ী কয়লাবিদ্যুৎ প্রকল্প পরিদর্শনে গেলেন বিভাগীয় কমিশনার

নতুন বাহারছড়ার সেলিমের অকাল মৃত্যু: মেয়র মুজিবসহ পৌর পরিষদের শোক

জেলা আ’ লীগের জরুরী সভা

মাদক কারবারীদের বাসাবাড়ীতে সাঁড়াশি অভিযান, ইয়াবাসহ আটক ৩

সৈকতে অনুষ্ঠিত হলো জাতীয় উন্নয়ন মেলা কনসার্ট

পেকুয়ায় অটোরিকশা চালককে তুলে নিয়ে মারধর

পুলিশ সুপারের সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ

ফেডারেশন অব কক্সবাজার ট্যুরিজম সার্ভিসেস এর সভাপতি সংবর্ধিত

কাউন্সিলর হেলাল কবিরকে বিশাল সংবর্ধনা

কলাতলীতে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ, দুইজনকে জরিমানা

আ. লীগের কেন্দ্রীয় টিমের জনসভায় সফল করতে জেলা শ্রমিকলীগ প্রস্তুত

মানবপাচারকারী রুস্তম আলী গ্রেফতার

দেশে গণতান্ত্রিক অধিকার নেই, পুলিশী রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে : শাহজাহান চৌধুরী

১২দিনেও খোঁজ মেলেনি মহেশখালীর ১৭ মাঝিমাল্লার

শেখ হাসিনার উন্নয়নের লিফলেট বিতরণ করলেন ড. আনসারুল করিম

কক্সবাজার সদর মডেল থানা পুলিশের অভিযানে গ্রেফতার-১০

১ অক্টোবর থেকে সারাদেশে সভা-সমাবেশ করার ঘোষণা