চকরিয়ায় বালুর স্তুপে চলাচল সড়ক বন্ধ : যাতায়তে দুর্ভোগ

এম.মনছুর আলম,চকরিয়া :

কক্সবাজারের চকরিয়ায় ড্রেজিং মেশিন বসিয়ে ছড়াখাল থেকে অবৈধ বালি উত্তোলন করে চলাচল সড়কে বালির স্তুপ পরিণত হওয়ায় বন্ধ হয়ে গেছে সড়ক যাতায়ত।ওই সড়ক দিয়ে নিত্যদিন যাতায়ত করে আসছে ৫গ্রামের কয়েক হাজার জনগোষ্ঠী।এ ছড়াখাল থেকে অবৈধভাবে বালি উত্তোলন করার দায়ে ও পরিবেশ দূষণের পাশাপাশি কতেক মানুষের জায়গা-জমি নদীর গর্ভে বিলিন হয়ে যাচ্ছে। উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নস্থ এক শ্রেণীর ভূমিদস্যু ও প্রভাবশালীরা প্রশাসনের আইনকে তোয়াক্কা না করে দিব্যি চালিয়ে যাচ্ছে শান্তিরঘাট ডুলাহারছড়া খাল থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন। ছড়াখালে বসানো হয়েছে অবৈধ ড্রেজিং(সেলো)মেশিন। এ সেলো মেশিন দিয়ে বালি উত্তোলন করে রাখা হচ্ছে যাতায়তরত সড়কে। যাতায়তরত সড়কের উপরে বালি স্তুপ করে রাখার কারণে ভোগান্তির মধ্যে পড়েছে ইউনিয়নের ৫গ্রামের মধ্যে শান্তিরঘাট, উলুবনিয়া, কাটাখালী, পূর্বডুমখালী, রিজার্ভ পাড়া এলাকার কয়েক হাজার বাসিন্দা ও জনগোষ্ঠী।

সরেজমিনে দেখা গেছে, ডুলাহাজারা ইউনিয়স্থ শান্তিরঘাটের ডুলাহারছড়া খাল থেকে এক শ্রেণীর প্রভাবশালীরা সরকারী নিয়মনীতির বাহিরে ও ইজারা বহির্ভূত ভাবে দিব্যি চালিয়ে যাচ্চে অবৈধ বালি উত্তোলন।ছড়াখাল থেকে অবৈধ ভাবে বালি উত্তোলনের নেতৃত্ব দিচ্ছে নাকি একসময়ের উলুবনিয়া গ্রামের বাসিন্দা ও বর্তমান শান্তিরঘাট এলাকার মৃত হাফেজ আহমদের ছেলে ছাবের আহমদ।বর্ণিত ডুলাহারছড়া খাল সংলগ্ন এলাকায় বালি উত্তোলনের ফলে একটি বসতভিটে ওই বালির স্তুপে পানিতে ডুবে যাচ্ছে।এছাড়াও অপর আরো একটি বসতঘরের তলদেশ থেকে বালু উত্তোলন করার কারণে পানির স্রোতে তলিয়ে যাওয়ার সম্ভবনা রয়েছে বলে আশঙ্কা করেছে স্থানীয়রা।পার্শ্ববর্তী পূর্বডুমখালী এলাকার মৌলানা ফজল আহমদ নামক এক ব্যক্তি অভিযোগে জানান, ডুলাহারছড়া খালের সাথে সংযুক্ত তার বিএস খতিয়ানের দুই দাগের জমি রয়েছে। ইতোমধ্যে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করায় তার জমি সীমানার পাড় ভেঙ্গে প্রায় দশ শতক জমি খালের সাথে বিলিন হয়ে গেছে বলে জানায়। অবৈধ বালু উত্তোলনে কারণে জমি সংলগ্ন জায়গা খালে ভাঙ্গতে থাকায় বালি উত্তোলনে জড়িত ছাবেরকে নিষেধ করলে উল্টো তাকে অকথ্য ভাষায় উচ্চবাচ্য ও হুমকি প্রদর্শন করে বলে তিনি অভিযোগ করেন।সরকারী নীতিমালা ২০১০ সালের বালুমহাল আইনে সুস্পষ্ট বলা আছে, বিপণনের উদ্দেশ্যে কোনো উন্মুক্ত স্থান, বাগানের ছড়া বা নদীর তলদেশ থেকে বালু বা মাটি উত্তোলন করা যাবেনা।এ ছাড়া সেতু, কালভার্ট, ড্যাম, ব্যারাজ, বাঁধ, সড়ক, মহাসড়ক, বন, রেললাইন ও অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ সরকারি-বেসরকারি স্থাপনা অথবা আবাসিক এলাকা থেকে বালু ও মাটি উত্তোলন সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ।

অভিযুক্ত ছাবের আহমদ বলেন, তার নিজের নামে বালি উত্তোলনের কোন ইজারা নেই।স্থানীয় যারা বালি উত্তোলনের ইজারা নিয়েছে তাদের সাথে সে চুক্তি করে বালু উত্তোলন করছে বলে তিনি জানান।

এ ব্যাপারে চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নূরুদ্দীন মুহাম্মদ শিবলী নোমান জানান, বিষয়টি এসিল্যান্ড সাহেবকে জানিয়ে দিচ্ছি। কেউ যদি ছড়া খাল থেকে ডেজার বা সেলো মেশিন বসিয়ে অবৈধ বালি উত্তোলন করে তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে তিনি জানান।

কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

পেকুয়ায় ৩০ পরিবারের চলাচলের একমাত্র রাস্তা বন্ধ করে দিল প্রভাবশালী

সকল ষড়যন্ত্র প্রতিহত করে আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিজয়ী হবে : আমু

শিল্পমন্ত্রীকে আমির হোসেন আমুকে ফুলেল শুভেচ্ছা

মেয়র মুজিবের আবেদনে শহরের প্রধান সড়ক সংস্কারের নির্দেশ মন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের

কক্সবাজার সদর মডেল থানা পুলিশের অভিযানে গ্রেফতার- ১৩

পেকুয়ায় পুকুরে ডুবে শিশুর মৃত্যু

পেকুয়ায় ইয়াবা সহ যুবক আটক

চকরিয়ায় সাজাপ্রাপ্তসহ ৪ আসামি গ্রেফতার

নাইক্ষ্যংছড়িতে পরিচ্ছনতা অভিযান

কক্সবাজারে কিন্ডার গার্ডেন এসোসিয়েশন’র বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠান সম্পন্ন

দুর্নীতিবাজ, ঘুষখোর ও হত্যা চেষ্টাকারীরা সরকারের পতন ঘটাতে চায় : নিউইয়র্কে শেখ হাসিনা

মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রীর আগমন উপলক্ষে সেক্টর কমান্ডারস ফোরাম’র জরুরী সভা

রামুর গর্জনিয়ায় অপহরণ ১

টেকনাফ উপজেলা যুবদলের কমিটি গঠিত

সাপ্তাহিক মাতামুহুরী’র প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন

টেকনাফে র‌্যাবের পৃথক অভিযানে বিদেশী মদ বিয়ারসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক

টেকনাফে হত্যা ও মানব পাচার মামলার আসামী গ্রেফতার

চকরিয়ায় ছুরিকাঘাতে যুবক খুন

খালেকুজ্জামান বেঁচে আছেন জনতার মাঝে

মরহুম এড. খালেকুজ্জামান স্মরণে ৫ম দিনেও বিভিন্ন মসজিদে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত