চকরিয়ায় অবৈধ বালুর স্তুপে বন্ধ হচ্ছে চলাচল সড়ক

চকরিয়া সংবাদদাতা:
চকরিয়ায় ছড়াখালে ড্রেজিং মেশিন বসিয়ে উত্তোলন করা বালুর স্তুপে বন্ধ হয়ে গেছে কয়েক হাজার মানুষের চলাচল সড়ক। ছড়াখালের বেড়িবাঁধ থেকে অবৈধভাবে বালি উত্তোলন করায় পরিবেশ দূষণের পাশাপাশি মানুষের জমিজমা নদীর গর্ভে বিলিন হয়ে যাচ্ছে। উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের শান্তিরঘাট ডুলাহারছড়া খাল থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করছে স্থানীয় প্রভাবশালীরা। অবৈধভাবে ড্রেজারের মাধ্যমে উত্তোলনকৃত বালু স্তুপ করে রাখছে চলাচল সড়কের উপরে। এতে ইউনিয়নের শান্তিরঘাট, উলুবনিয়া, কাটাখালী, পূর্বডুমখালী, রিজার্ভ পাড়া এলাকার কয়েক হাজার লোকজন চলাচল চরম ভোগান্তিতে পড়ছে।
সূত্র মতে, শান্তিরঘাটের ডুলাহারছড়া খাল থেকে ইজারা বহির্ভূত বালু উত্তোলনে নেতৃত্ব দিচ্ছেন সাবেক উলুবনিয়া গ্রামের ও বর্তমান শান্তিরঘাট এলাকার বাসিন্দা মৃত হাফেজ আহমদের পুত্র ছাবের আহমদ। বর্ণিত ডুলাহারছড়া খাল সংলগ্ন তার বাসভবনের সামনে একটি বসতভিটে বলুর স্তুপে ডুবে যাচ্ছে। অপর একটি বসতঘরের তলদেশ থেকে বালু উত্তোলন করায় যেকোনো সময় বসতঘরটি পানির স্রুতে তলিয়ে যেতে পারে।
পার্শ্ববর্তী পূর্বডুমখালী এলাকার মৌলানা ফজল আহমদ নামক এক ব্যক্তি অভিযোগে জানান ডুলাহারছড়া খালের সাথে সংযুক্ত তার বিএস খতিয়ানের দুই দাগের জমি রয়েছে। ইতোমধ্যে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করায় তার জমি সীমানার পাড় ভেঙ্গে প্রায় দশ শতক জমি খালের সাথে বিলিন হয়ে গেছে। অবৈধ বালু উত্তোলনে এখনো জমির অংশ ভাঙ্গতে থাকায় জড়িত ছাবেরকে নিষেধ করলে উল্টো তাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও হুমকি প্রদর্শন করে। অথচ ২০১০ সালের বালুমহাল আইনে বলা আছে, বিপণনের উদ্দেশ্যে কোনো উন্মুক্ত স্থান, বাগানের ছড়া বা নদীর তলদেশ থেকে বালু বা মাটি উত্তোলন করা যাবেনা।
এ ছাড়া সেতু, কালভার্ট, ড্যাম, ব্যারাজ, বাঁধ, সড়ক, মহাসড়ক, বন, রেললাইন ও অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ সরকারি-বেসরকারি স্থাপনা অথবা আবাসিক এলাকা থেকে বালু ও মাটি উত্তোলন নিষিদ্ধ। অভিযুক্ত ছাবের আহমদ বলেন তার নিজের নামে কোন ইজারা নেই। যাদের নামে বালু তোলার ইজারা আছে তাদের সাথে সে চুক্তি করে বালু উত্তোলন করছে।
চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নূরুদ্দীন মু. শিবলী নোমান জানান, বিষয়টি এসিল্যান্ড সাহেবকে জানিয়ে দিচ্ছি। কেউ যদি ছড়া থেকে ডেজার মেশিন বসিয়ে বালু উত্তোলন করে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সর্বশেষ সংবাদ

রিফাতের হত্যাকারীদের গ্রেফতারের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

শিক্ষক স্বীকার করলেন তিনি ২০ ছাত্রীকে ধর্ষণ করেছেন

রিফাতের শরীরে ৮টি কোপের চিহ্ন পেলেন চিকিৎসকরা

চকরিয়ায় শিক্ষক পুত্র ফাহিম মুনতাসির শাপলা কাব এ্যাওয়ার্ড অর্জন

কাঁদতে কাঁদতে স্বামীকে হত্যার বর্ণনা দিলেন মিন্নি

দেশের জনগণ তো এমন ছিল না : হাইকোর্ট

রিফাতের খুনিরা যেন দেশ ছাড়তে না পারে : আইজিপিকে হাইকোর্ট

আলীকদম বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের তহবিল নিয়ে অনিয়ম

চট্টগ্রামে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী : বরগুনার ঘটনায় পুলিশ বসে নেই, ইতোমধ্যে দু্ইজন গ্রেফতার হয়েছে

লামা পৌরসভার ১৭ কোটি ১৬ লক্ষ টাকার বাজেট ঘোষণা

নাইক্ষ্যংছড়িতে মাসিক আইন শৃঙ্খলা সভা অনুষ্ঠিত

গর্জনিয়া ইউপি চেয়ারম্যানের ছোট ভাই কাজলের মৃত্যু কাঁদাল সবাইকে

মাদকের বিষাক্ত ছোবল…

চকরিয়ার হারবাংয়ে স্কুল ছাত্রীর আত্নহত্যা !

রাঙামাটির সুবলংয়ে জেএসএস’র দু’গ্রুপে গুলি বিনিময় ॥ গুলিবিদ্ধ সংস্কারপন্থী নেতা নিখোঁজ

কে এই নয়ন বন্ড?

সাতকানিয়ায় বিজিবির ৯৩তম রিক্রুট ব্যাচের সমাপনী কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠিত

নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার মাসিক আইন শৃঙ্খলা সভা

লাইফে সফলতার পাঁচ সূত্র!

রোহিঙ্গা নির্যাতন : মিয়ানমার সরকারের বিচারে আইসিসি’র তদন্ত কমিটি গঠন