উখিয়ায় শিশু বড়ুয়ার বিরুদ্ধে এতিম কলেজছাত্র রিপনের মামলা দায়ের

সংবাদদাতা :

উখিয়ায় থানার চিহ্নিত দালাল ও বহু অপকর্মের হোতা শিশু বড়ুয়ার বিরুদ্ধে এবার আদালতে মামলা করেছে কারা নির্যাতিত এতিম কলেজ ছাত্র রিপন বড়ুয়া।

গত ৩০ মে শিশু বড়ুয়ার নেতৃত্বে কলেজ ছাত্র এতিম রিপনের উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় কক্সবাজার সিনিয়র জুডিসিয়াল আদালতে  সোমবার রিপন বড়ুয়া বাদী হয়ে এ মামলা করেন। বিজ্ঞ সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালত-২ এর বিচারক রাজিব কুমার দে মামলাটি অতি গুরুত্ব সহকারে আমলে নিয়ে সিআইডিকে তদন্তভার ন্যস্ত করেন এবং আগামী ১৫ কর্মদিবসের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন। মামলা নং- ২০৩/২০১৮, তারিখ- ২৫/৬/২০১৮ইং ধারা- ৩২৩/৩২৪/৩৮৬/৫০৬ দ-বিধি। এই মামলায় আসামীরা হল পূর্বরতœা গ্রামের মৃত বোচারাম বড়ুয়ার ২ পুত্র মামলাবাজ শিশু বড়ুয়া ও মিকু বড়ুয়া।

মামলার বিবরণে জানা যায়, উখিয়া উপজেলার রতœাপালং ইউনিয়নের পূর্বরতœা গ্রামের পিতৃহারা সন্তান কলেজ ছাত্র রিপন বড়ুয়া গত ৩০ মে উখিয়া থানায় রিকল জমা দিতে যাওয়ার পথে থানা রোডে বেলা ১২টায় ১নং আসামী থানার দালাল, মামলাবাজ, চিহ্নিত মাদকসেবী, প্রতারক, সন্ত্রাস, মাস্তান ও ধান্ধাবাজ শিশু বড়ুয়া (৩৫) ও তার ছোট ভাই মিকু বড়ুয়ার (৩২) নেতৃত্বে অপরাপর দুর্বৃত্তরা পূর্বপরিকল্পিত ভাবে রিপনের উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটায়।

এ সময় সন্ত্রাসীরা তার পথ গতিরোধ করে রিপনকে বেধড়ক মারধর করে রাস্তায় ফেলে হত্যার উদ্দেশ্যে পেটে ছুরি ধরে প্যান্টের পিছনের পকেটে থাকা নগদ ৬ হাজার টাকা মানিব্যাগসহ ছিনিয়ে নেয়। রক্তাক্ত অবস্থায় রিপনকে পথচারীরা উখিয়া হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যায়। এ ঘটনায় চিকিৎসা শেষে রিপন চিকিৎসাপত্র নিয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ করে কোন আইনগত সুরাহা না পাওয়ায় ন্যায় বিচার পাওয়ার জন্য বিজ্ঞ আদালতে মামলা দায়ের করে।

মামলার আর্জি মতে, আসামী শিশু বড়ুয়াসহ তার সহযোগিরা পূর্বরতœা গ্রামে সন্ত্রাসের রামরাজত্ব চালাচ্ছে। শিশু বড়ুয়া উখিয়া থানার মুন্সী দাবী করে এবং পুলিশ অফিসারদের মামলা লেখার দায়িত্বে আছে বলে নানা ভাবে মানুষের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নেয় এবং নিরপরাধ লোকদের মামলায় ডুকিয়ে দিয়ে হয়রানি ও মামলা হতে বাদ দেওয়ার কথা বলে দীর্ঘদিন চাঁদা আদায় করে আসছে। সে গ্রামবাসীকে নানা ভাবে হয়রানি, মিথ্যা মামলা, চাঁদা আদায় পুলিশের নাম ব্যবহার করে গ্রামের শান্তি বিনষ্ট করে আসছে। এমনকি তার অত্যাচার থেকে সাংবাদিকসহ কেউ রেহাই পাচ্ছে না। মামলার বাদী রিপন তার অব্যাহত প্রাণনাশের হুমকির মুখে বর্তমানে নিয়মিত কলেজে আসা-যাওয়া করতে পারছে না।

ইতিপূর্বে শিশু বড়–য়া উখিয়া ভুমি অফিসে দালালী করত। ভুমি অফিসে তার অপকর্মের কারণে বিক্ষুদ্ধ জনতার বিক্ষোভে ভুমি অফিস ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়। অত:পর বর্তমানে থানা পুলিশের কাছের লোক, থানার মুন্সী পরিচয় দিয়ে, মামলা-মোকদ্দমার ভয় দেখিয়ে জিম্মি করে টাকা আদায় তার নিত্য-নৈমিত্তিক পেশা হয়ে দাঁড়িয়েছে। এছাড়াও কিছুদিন পূর্বে গ্রামে ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় উত্তেজিত যুবক খেলোয়াড়দের মধ্যে সামান্য হাতাহাতির ঘটনা ঘটলে ১নং আসামীর কু-পরামর্শে তার ভাইয়ের স্ত্রী শিখা বড়ুয়াকে বাদী করে রিপন বড়ুয়াকে প্রধান আসামী করে বিনা তদন্তে শিশু বড়ুয়া থানায় প্রভাব কাটিয়ে ও ভুল তথ্য দিয়ে পুলিশ দিয়ে থানায় ধৃত করে নিয়ে আসে। এবং তার কথা মত ধারা উল্লেখ করে মামলা রেকর্ড করে। এ মামলায় রিপনসহ নিরাপরাধ ৮জনকে আসামী করা হয়। যার মামলা নং- জি,আর ১৯৩/২০১৮, তারিখ- ২৭/৫/২০১৮। পরদিন ২৮/৫/২০১৮ কলেজ ছাত্র রিপনকে কোর্টে চালান দিলে বিজ্ঞ আদালত জামিন মঞ্জুর করেন।

সর্বশেষ সংবাদ

সেই ক্রিকেটার জাকারিয়া এখন শিকলবন্দী!

গ্যাসের সিলিন্ডারে করে ইয়াবা পাচার, রোহিঙ্গা আটক

পৌর বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক রাশেদ মোঃ আলী অসুস্থ : দোয়া কামনা

শুভ জন্মদিন ‘সিবিএন’

চট্টগ্রামের উন্নয়নে কোন গাফেলতি নয় : গণপূর্ত মন্ত্রী

‘প্রবাসীর জমি দখল করেছে যুবলীগ নেতা’- সংবাদের প্রতিবাদ

সেন্টমার্টিন রক্ষায় ৬ দফা দাবি নাইক্ষ্যংছড়ি প্রেসক্লাবের 

খুরুশ্কুল চেয়ারম্যান জসিমের কৃতজ্ঞতা প্রকাশ

কক্সবাজারে হজ্ব ও ওমরাহ প্রশিক্ষণ কর্মশালা

চকরিয়ায় জাল সনদ প্রস্তুতকারী যুবক আটক

মেলায় এসেছে সাংবাদিক মোহাম্মদ আলী রাশেদের “প্রবাসীদের খবরের গল্প “

এবার শুরা সদস্য মজিবুরকে জামায়াত থেকে বহিষ্কার

আল মাহমুদের জানাজা সম্পন্ন, দাফন গ্রামের বাড়িতে

আত্মসমর্পণ করেছে যারা

‘একটিবার নতুন জীবন ভিক্ষা দিন, ইয়াবামুক্ত সমাজ উপহার দেব’

অবশেষে ইয়াবা ডন শাহাজান আনসারির আত্মসমর্পণ

বামপন্থী থেকে ইসলামী ধারা: আল মাহমুদের অন্য জীবন

ইয়াবা ব্যবসায়ীদের নিস্তার হবে না হবে না হবে না- স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

নতুন দুই মামলায় কারাগারে যাবে আত্মসমর্পণকারীরা

জামায়াত ভাঙছে, তারপর কী?