ঈদগাঁওতে দুই সড়কের করুণ দশা : জনদুর্ভোগ চরমে

এম আবুহেনা সাগর, ঈদগাঁও:

কক্সবাজার সদর উপজেলার ব্যস্তবহুল বানিজ্যিক এলাকা ঈদগাঁওর প্রধান দু যাতায়াত সড়কটি বর্তমানে করুন দশায় পরিনত হয়ে পড়েছে। ফলে জন ও যানবাহন চলাচলে চরম বিপাকে পড়ার পাশাপাশি জনদূর্ভোগ চরমে উঠেছে। দীর্ঘ একমাস ধরে ঈদগাঁও বাজারের দক্ষিন পাশ্বর্স্থ সড়কটির দুইপাশের গাইটওয়াল করার পর থেকে এখনো পর্যন্ত সড়ক সংস্কারের কোন প্রকার উদ্যোগ গ্রহন করা হয়নি। এছাড়াও সড়কের দুইপাশের ব্যবসায়ীরা তাদের ব্যবসা বানিজ্যিক নিয়ে মাথায় হাত দিয়েছে। অযোগ্য রাস্তার কারনে প্রত্যান্ত গ্রামাঞ্চলের লোকজন বাজারমুখী হচ্ছেনা। এ সড়ক পেরিয়ে চৌফলদন্ডী, জালালাবাদ, পোকখালী ও ঈদগাঁও ইউনিয়নের একাংশের হাজার হাজার লোকজন দৈনিক আসা যাওয়া করে থাকে বাজারে প্রয়োজনীর কাজেকর্মে।

ব্যবসায়ীরা জানান, দীর্ঘকালেও সড়কটি সংস্কার না হওয়ায় ব্যবসায়ীরা তাদের ব্যবসা বানিজ্য থেকে পিছপা হয়ে পড়েছে। আবার অল্প বৃষ্টিতেই জন ও যান বাহন চলাচলে কষ্ট সাধ্য হয়ে পড়ছে। সংস্কার কাজ মাঝপথে থেমে থাকায় ঠিকাদারকে দুষছেন পথচারীসহ সাধারণ লোকজন। পাশাপাশি যাতায়াতে আরেক বিকল্প সড়ক হিসেবে ব্যবহৃত ঈদগাঁও মাদ্রাসার পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া সড়কটিও মরন ফাঁদের কবলে। সড়ক জুড়েই বড় বড় গর্তে সয়লাভ হয়ে উঠেছে। সামান্য বৃষ্টিতে যত্রতত্র স্থানে গর্তে পানি জমে চলাফেরা অযোগ্য হয়ে পড়েছে। বেকায়দায় পড়েছে স্কুল- কলেজ ও মাদ্রাসার শিক্ষার্থীরা। এমনকি বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্রছাত্রীরা নানা দুর্ভোগ আর দূর্গতি পেরিয়ে দৈনিক তাদের প্রিয় শিক্ষাঙ্গনে আসা যাওয়া করতে চোখে পড়ে। বর্তমানে মাদ্রাসা সড়ক দিয়ে জন ও যান চলাচল অনেকটা বৃদ্বি পেয়েছে। উক্ত সড়কটি গর্তের সৃষ্টির কারনে মরন দশার কবলে পড়ে চলাফেরার অযোগ্য বললেই চলে।

অন্যদিকে মাদ্রাসা গেইট সংলগ্ন দুপাশে গর্তের সৃষ্টি হলেই, সামান্য পরিমাণ বৃষ্টির পানি জমে জন ও যান চলাচল অনেকটা কষ্টকর হয়ে পড়ে। লঙ্কর-ঝঙ্কর মার্কা সড়ক পেরিয়ে শিক্ষালাভ করতে বিদ্যালয়মুখী হচ্ছে শিক্ষার্থীরা। সন্ধ্যাকালীন সময়ে যানবাহন চলাচল করতে গিয়ে যেকোন মুহুর্তে অপ্রীতিকর দূর্ঘটনার আশংকাও প্রকাশ করেন চালকরা।

পথচারী আজিম,কালু, শফিও শাহাব উদ্দিন জানান, বর্তমানে ব্যস্তবহুল সড়ক হিসেবে দীর্ঘদিন ধরে ব্যবহৃত হয়ে আসছে মাদ্রাসা সড়কটি। সড়ক জুড়েই প্রায় অংশে গর্ত আসলেই ঝুঁকিপূর্ণ রক্ষা পেতে হলে সংস্কারের বিকল্প নেই।

একাধিক শিক্ষার্থীরা জানান, যাতায়াতের গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম মাদ্রাসা সড়কটি সংস্কার অতীব জরুরী। প্রতিনিয়ত অযথা ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে ছাত্রছাত্রীসহ সাধারণ লোকজনদেরকে। তাই দ্রুত সময়ে এই গুরুত্ববহ সড়ক সংস্কারের দাবী সচেতন এলাকাবাসীর।

সর্বশেষ সংবাদ

‘কোর্টের ভেতর ছুরি নিয়ে যায় কিভাবে? পুলিশ কী করে?’

গ্রামীণফোন ও রবির ব্যান্ডউইথ থেকে ব্লক তুলে নেওয়ার ঘোষণা বিটিআরসির

আগামী বছর থেকে গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি: শিক্ষামন্ত্রী

বন্যাদুর্গতদের পাশে কোস্ট ট্রাস্ট

চাঁদে মানুষ অবতরণের ৫০ বছর

৫ দিনের রিমান্ডে মিন্নি

৮ দিন পর বান্দরবান-চট্টগ্রাম সড়কে গাড়ি চলাচল শুরু

সাতকানিয়ায় বন্যার পানিতে ভেসে আসল অজ্ঞাত লাশ

চট্টগ্রাম রেঞ্জে শ্রেষ্ঠ ওসি হলেন মহেশখালী থানার ওসি প্রভাষ চন্দ্র ধর

পেকুয়ায় বন্যার্তদের মাঝে চাল বিতরণ

নাজমা খানম বরাবরের মত ধরে রেখেছে তার কৃতিত্ব

‘বিশ্ববেহায়া’ স্বৈরাচার চলে গেলেন ‘সাহেব’ হয়ে

বেনাপোল এক্সপ্রেস ট্রেনের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

চকরিয়াতে বন্যায় মৎস্য বিভাগে ২কোটি ১৫ লাখ ৩৬ হাজার টাকা ক্ষতি : মৎস্য অধিদপ্তর

রামুর বীর মুক্তিযোদ্ধা সুশীল বড়ুয়া পরলোকে : এমপি কমলের শোক প্রকাশ

চকরিয়ায় জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলন

গ্রামীণ জনপদে আইনশৃঙ্খলা স্বাভাবিক রাখতে গ্রাম পুলিশের ভুমিকা অপরিসীম

ওসি মোয়াজ্জেমের বিচার শুরু

টেকনাফে পুলিশের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নারী মাদক কারবারী নিহত

৫ম বারের মতো চট্টগ্রাম রেঞ্জে শ্রেষ্ঠ এসপি হলেন কক্সবাজারের এসপি মাসুদ