চকরিয়ায় সাফারি পার্ক বন্ধের দিনও খোলা রাখা নিয়ে গুলি বর্ষণ

ডুলাহাজারা সংবাদদাতা:
চকরিয়াস্থ ডুলাহাজারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্ক বন্ধের দিনও খোলা রাখার বিষয় নিয়ে ইজারাদার ও পার্ক কর্তৃপক্ষের মধ্যে মারমুখী অবস্থান বিরাজ করে। এসময় আত্মরক্ষার্থে কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি বর্ষণ করা হয়। মঙ্গলবার (১৯ জুন) দুপুরে দিকে সংঘটিত এ ঘটনায় সাফারি পার্ক এলাকাজুড়ে দিন ব্যাপী টানটান উত্তেজনা বিরাজ করে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায় সরকারি নিয়ম অনুযায়ী মঙ্গলবার সাফারি পার্ক বন্ধ রাখার কথা রয়েছে। এ নিয়ম উপেক্ষা করে ওই দিন সাফারি পার্কের টিকেট কাউন্টারে টিকেট বিক্রি করেন ইজারাদার। অপরদিকে পার্ক কর্তৃপক্ষ প্রবেশ পথ বন্ধ রাখায় টিকেট ক্রয় করা দর্শনার্থীদের মাঝে ক্ষোভ ও উত্তেজনা বিরাজ করে। সরেজমিনে ঘটনার দিন দুপুরে প্রবল বৃষ্টিতে শতাধিক দর্শনার্থী পার্ক গেইটের বাইরে ভিজতে দেখা যায়। পরে দেড়টার দিকে পার্কের প্রধান গেইট দিয়ে দর্শনার্থী প্রবেশ করতে লক্ষ্য করা যায়। কিছুক্ষণ পর গেইট বন্ধ করে দেওয়া হলে দর্শনার্থী ও ইজারাদার পক্ষ থেকে চরম উত্তেজনা শুরু হয়। একপর্যায়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে তিন রাউন্ড ফাঁকা গুলি বর্ষণ করে সাফারি পার্ক কর্তৃপক্ষ। তবে পার্ক কর্তৃপক্ষ জানায় ইজারাদার পক্ষ থেকে গুলি বর্ষণ করা হলে তারাও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছুড়েন। সাফারি পার্কের বিট কর্মকর্তা মাজাহারুল ইসলাম বলেন ‘সরকারি নির্দেশনা মতে মঙ্গলবার পার্ক বন্ধ রাখা হয়েছে। টিকেট বিক্রির অনুমতি না দেওয়ার শর্তেও ইজারাদার তা মানেনি। স্থানীয় সজিব নামক যুবকসহ ইজারাদার পক্ষ থেকে তালা ভেঙ্গে দর্শনার্থী প্রবেশ করায়। বাধা দেওয়ার চেষ্টা করা হলে তারা গুলি বর্ষণ করেন, আত্মরক্ষার্থে পার্ক কর্মচারীরাও পাল্টা গুলি ছুড়েন। পরে সাফারি পর্কের টুরিস্ট পুলিশ ও থানা পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।’ একই বক্তব্য জানায় সাফারি পার্কের রেঞ্জ কর্মকর্তা মোর্শেদুল আলম। তালা ভাঙ্গার বিষয়টি সত্য হলে গেইটে লাগানো সিসি ক্যমরাই তার প্রমাণ দেবে বলে উল্লেখ করেন স্থানীয় যুবক সজিব। তার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ মিথ্যা বলে দাবী করেন। এব্যপারে পার্কের কর্তব্যরত টুরিস্ট পুলিশের ইনচার্জ মোঃ আরিফুল ইসলাম জানায় আমি দুইটা উনচল্লিশ মিনিটে বিট কর্মকর্তা মাজাহারুল ইসলামের একটি ফোন পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছি। আমারা ফোর্সসহ পৌঁছার আগে গুলি বর্ষণ হয়েছে বলে শুনেছি। এসময় পার্কের ভেতর প্রবেশ করা সকল দর্শনার্থীদের বের করা হয় এবং তাদের টিকেটের দাম ফিরিয়ে দিতে ইজারাদারদের নির্দেশ দেওয়া হয়। ঘটনার পর ইজারাদার নাছির উদ্দিনের বড়ভাই চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ফাঁসিয়াখালী ইউপি চেয়ারম্যান গিয়াস উদ্দিন চৌং ও ডুলাহাজারা ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আমিন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। অপরদিকে গেইট ইজারাদার নাছির উদ্দিন জানায় সাফারি পার্ক কর্তৃপক্ষ থেকে টিকেট বিক্রি করতে বলা হয়েছে তাই কাউন্টার খুলে টিকেট বিক্রি করা হয়েছে। ডিএফও’সহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের মৌখিক অনুমতি নিয়েই টিকেট বিক্রি করা হয়েছে। গুলি ছোড়া ও তালা ভাঙ্গার বিষয়টি অস্বীকার করেন তিনি।

সর্বশেষ সংবাদ

ঝালকাঠিতে মাদক মামলায় এক ব্যক্তির পাঁচ বছর কারাদন্ড

চট্টগ্রামে জুতার তলায় করে ইয়াবা পাচারের সময় আটক ২

৫১ হাজার কেজি কুরবানির মাংস বিতরণ করলো তুর্কি দিয়ানত ফাউন্ডেশন

যেভাবে ইমরানের পিঠে ছুরি বসালেন মোদি

ডেঙ্গুতে আজও ৩ জনের মৃত্যু

লামায় পুকুরের পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু

বিএনপি নেতা সিরাজ অসুস্থ : দেখতে গেলেন কাজল

জয়শঙ্করের সফরে গুরুত্ব পাবে তিস্তা চুক্তি

চট্টগ্রামে সাড়ে ৭ মাসে ৮০০ ছাড়ালো ডেঙ্গু রোগী

এতিম-মিসকিনের টাকা নিয়ে নৈরাজ্য

শোকের মাসে বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠান করছে না আলীরাজ পরিবহণ

বৈদ্যুতিক খুটি সরাতে ২৬ আগষ্ট বন্ধ থাকবে মেরিন ড্রাইভ সংযোগ সড়ক

কক্সবাজার কলাতলী ফ্লাট থেকে ইয়াবাসহ আটক ৩

কিশোরী ধর্ষণের দায়ে ভুয়া পীর ‘নেজাম মামা’ গ্রেফতার

শাহীনুল হক মার্শালকে ফুলেল শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় স্থায়ী জামিন পেলেন চকরিয়া প্রেসক্লাব সভাপতি আবদুল মজিদ

ইন্ডিপেনডেন্ট কমিশন অব ইনকোয়ারি প্রতিনিধিদল সোমবার ক্যাম্প পরিদর্শনে আসছেন

চকরিয়া শপিং সেন্টারে আবর্জনার স্তুপ

পৌরসভার ২ নং ওয়ার্ডে মশক নিধন অভিযান

চট্টগ্রামে পাঁঠা বলির সময় যুবকের হাত বিচ্ছিন্ন