সারাদেশে সড়কের যানজট নিরসনে সম্মলিত সামাজিক আন্দোলনের মানববন্ধন

বার্তা পরিবেশক :

দেশকব্যাপী সড়ক-মহাসড়কে যানজট মুক্ত নিরাপদ আন্দদময় পদযাত্রা ও মাদক মুক্ত দেশ গড়ার দাবিতে কক্সবাজারে এক মানবন্ধন ও বিক্ষুভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শনিবার (২জুন) সম্মিলিত সমাজিক আন্দোল এর ব্যানারে শহিদ মিনার চত্ত্বরে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় কক্সবাজারের জানযট, চলামান মাদকবিরোধী অভিযান, ইকরাম হত্যা ও সদর ইউএনও’র বদলি আদেশ প্রত্যাহারসহ বিভিন্ন বিষয়ের উপর বক্তব্য রাখেন বক্তরা।

সম্মিলিত সমাজিক আনোলন ভারপ্রাপ্ত সভাপতি সমির পাল এর সভাপতিত্বে ও কল্লোল দে চৌধুরীর সঞ্চালনায় সভায় প্রধান অথিতি সেক্টর কমান্ডারস ফোরম মুক্তিযুদ্ধ’৭১ এর কক্সাবজার জেলা সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ আলী বলেন, কক্সবাজার শহরে অবৈধ টমটমে দোরাতেœ জগনের চলাফেরা দুরুহ হয়ে পড়েছে। এতে প্রতিদিন কোথাও না কোথাও সড়ক দূর্ঘটনায় শিকার হচ্ছে সাধারণ মানুষ। তিনি পৌর কর্তৃপক্ষকে এ অবৈধ টমটম লাইসেন্স নিয়ন্ত্রণে আনার দাবী জানান। অন্যদিকে নোমান হোসেন প্রিন্স একজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান। দেশও সমাজের জন্য কাজ করতে গিয়ে তাকে অন্যায় একটি স্বার্থেন্বষী রাজনৈতিক ব্যক্তি ও মহল যড়যন্ত্রের মাধ্যমে তাকে বদলি করান। যা আমরা মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে কখনো মেনে নেবনা। এমনকি কক্সবাজারের সচন মানুষও তা মেনে নেবে না। তিনি তার বদলির আদেশ প্রত্যাহারের জন্য সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে দাবী জানান।

এসময় অন্যান্য বক্তরা বলেন, কক্সবাজারে ইয়াবা নামক মাদক একটি মহামারি আকার ধারণ করেছে। এতে যুব সমাজ আজ ধ্বংসে পথে চলে যাচ্ছে। যার কারণে মাননিয় প্রধানমন্ত্রী মাদকবিরুধী যে অভিযানের সিন্ধান্ত নিয়েছে তাকে সবাই স্বাগতম জানায়। তবে এতে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বিরুধী প্রশাসনের মাঝে ঘাপটিমেরে থাকা একটি অপশক্তি এ অভিযানকে প্রশ্ন বিদ্ধ করার জন্য নানা পাঁয়তারা চালিয়ে যাচ্ছে। যার প্রমাণ টেকনাফের তিন তিনবার পৌর কাউন্সিলর একরাম হত্যার মধ্যে দিয়ে তা প্রামাণিত হয়েছে। তারা আরো বলেন, সাবেক যুব লীগের এই সভাপতি মাদকের সাথে যে সম্পৃত্ততা নেই সেটা তার জনাযা ও সাধারণ মানুষের নানামূখি আন্দোলন তার প্রমাণ। এছাড়া তাঁর হত্যা নিয়ে অডিও প্রকাশ হয়েছে তার সঠিকভাবে তদন্তের দাবী জানান।

অন্যদিকে দেশব্যাপী যানজট ও সড়ক দূর্ঘটনা একটি নিত্যনৈমত্তিক ব্যাপার হয়ে উঠেছে। যা বন্ধে প্রশাসনের কঠোর নজরধারীর দাবী জানান।

পরিশেষে বক্তারা বলেন, কক্সবাজার সদর উপজেলা ইউএনও নোমান হোসেন প্রিন্স সৎ, দক্ষ ও জনবান্ধব একজন কর্মকর্তা ছিলেন। ইতোমধ্যে তিনি কক্সবাজারে অভূতপূর্ত কাজ করেছেন। এতে তিনি কক্সবাজারের আপমরজনসাধারণের নজর কেড়েছেন। কিন্তু নষ্ঠ রাজনৈতিক চর্চার একজন ব্যক্তি নিজের স্বার্থে কারণে তাকে বদলি করান। যা কক্সবাজারের মানুষ ঘৃণার সাথে তা প্রত্যাখান করেছেন। সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের কাছে তাঁর বদলীর আদেশ পত্যাহারের দাবী জানান বক্তরা।

এসয় বক্তব্য রাখেন, সম্মলিত সমাজিক আন্দোলনের সহ-সভাপতি দ্রুব সেন, সাধারণ সম্পাদক কমরেড গিয়াস উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক শিল্পি সনজিত ধর সনজো, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক ফাতেমা সাংবাদিক মোহাম্মদ শফিক, আক্তার মাটিন, শহর জাতিয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক নাজিম উদ্দিন, উজ্জল কান্তি দেব, রাজনৈতিকবীদ একে ফরিদ আহম্মদ, এড. আবদুর রহিম, সাবেক ছাত্র নেতা কামাল উদ্দিন পিয়ারো,

এসময় উপস্থিত ছিলেন, উজ্জল সেন, খেলাঘরের সভাপতি আবুল কাসেম বাবু, আনোয়ার হোসেন, শিল্পি এস এম সিরাজ, জামাল হোসেন মনুসহ বিভিন্ন শ্রেণী পেশার নেতৃবৃন্দ।

সর্বশেষ সংবাদ

বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ট্রাম্পের কাছে প্রিয়া সাহা’র অভিযোগ! (ভিডিও)

মায়ের সহায়তায় মাদ্রাসা পড়ুয়া মেয়েকে ধর্ষণ করতো পিতা!

নাইক্ষ্যংছড়িতে চোলাই মদসহ ১ জন আটক

জরিমানায় ফিরতে পারবেন মালয়েশিয়ায় অবৈধ বাংলাদেশিরা

শহরে এআরসি টাওয়ার ভবনে আগুন

এইচএসসিতে কক্সবাজারের ২৪ কলেজের কার কী অবস্থান!

সরল বিশ্বাস বলতে কী বুঝাতে চেয়েছেন দুদক চেয়ারম্যান?: কাদের

মানুষের ভালোবাসার ঋণ শোধের জন্য ব্যক্তিগত উদ্যোগে কাজ করছি

ডেঙ্গু এখন চিন্তার বিষয় : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

লন্ডনের পথে প্রধানমন্ত্রী

কুতুপালং ক্যাম্পে ইটভর্তি ট্রাক উল্টে রোহিঙ্গা মা ও ছেলে নিহত

সায়মুন সংসদ যা করে সবই সমাজের কল্যাণে : অধ্যক্ষ ক্য থিং অং

ওসি আবুল খায়ের’র রামু থানায় যোগদান

মনিরঝিলের পাগলী গুলফরাজকে বেদম প্রহার : দোষীদের শাস্তি দাবী

জন্নাতুল বাকীতে চিরনিদ্রায় শায়িত সাংবাদিক আনোয়ারের পিতা

টেকনাফে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা সম্পন্ন

এইচএসসিতে চকরিয়ায় উপজেলায় সেরা চকরিয়া কলেজ, ফল বিপর্যয় চকরিয়া সিটি কলেজের

যারা ফেসঅ্যাপে বুড়ো হয়েছেন তাদের জন্য দু:সংবাদ

সেতু নির্মাণের আড়াই বছরেও হয়নি পাকা সংযোগ সড়ক

লামায় বন্যা আক্রান্তদের সেবায় হোপ ফাউন্ডেশনের ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প