তাজুল ইসলাম পলাশ , চট্টগ্রাম ব্যুরো:

চট্টগ্রামে দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে মো. আরাফাত (২১) নামে এক যুবক খুন হয়েছেন। সোমবার রাত ৯টার দিকে নগরীর চান্দগাঁও থানার মোহরা রাস্তার মাথা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত আরাফাত মোহরার জেটি রোডের কালামিয়ার বাড়ির মো. হোসেনের ছেলে। চান্দগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল বশর রাতে জানান, এলাকার পপুলার জিমের সদস্য ছিল নিহত আরাফাত। সেখানকার তত্বাবধায়ক আরমানের সাথে পূর্ব বিরোধের জের ধরে এ হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটতে পারে। আমরা এ ব্যাপারে অনুসন্ধান করছি। চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক মো. জহিরুল ইসলাম জানান, একটি জিম ব্যায়ামাগার থেকে রাতে বাসায় ফেরার সময় দুর্বৃত্তরা তাকে ছুরিকাঘাত করে। এতে গুরুতর আহত হন ওই যুবক। পরে খবর পেয়ে চান্দগাঁও থানা পুলিশ তাকে উদ্ধার করে নিয়ে চমেক হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। তিনি বলেন, নিহতের শরীরের বিভিন্ন স্থানে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে ওই যুবকের মৃত্যু হয়েছে বলেও জানান তিনি। প্রতক্ষ্যদশী সূত্রে জানা যায়, নিহত আরফাত একজন শিপ ইয়ার্ড কর্মী। ইফতারের পর পর কে বা কারা কবির টাওয়ারের সামনে আরফাতের উপর হামলা করে। দুর্বত্তরা আরফাতের পেছন দিক থেকে ঘাড়ের ‍উপর ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপ দেয় এবং কাঁধের এক পাশে ছুরি ঢুকিয়ে দিয়ে পালিয়ে যায়। দুর্বত্তের ছুরিকাঘাতে মারাত্মকভাবে জখম হয় আরফাত। স্থানীয় লোকজন তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •