ফারুক আহমদ, উখিয়া :

উখিয়ার কোর্ট বাজার ষ্টেশনে সন্ত্রাসী হামলায় কলেজ ছাত্র সহ ৪জন আহত হয়েছে। সন্ত্রাসীরা জন সম্মুখে প্রকাশ্য হামলা চালিয়ে মারধর পূর্বক নগদ টাকা ও মোবাইল সেট ছিনিয়ে নেয়। ঘটনাটি ঘটেছে গত শুক্রবার বিকালে। উক্ত সন্ত্রাসী ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে নুরুল আলম ও শাহ জাহান কে আসামী করে উখিয়া থানায় লিখিত এজাহার দায়ের করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

আহতরা হলেন উপজেলার রত্নাপালং ইউনিয়নের ভালুকিয়াস্থ ঘাঁটি পাড়া গ্রামের আলী আহামদের পুত্র ছুরুত আলম (২৬) ও শফিউল আলম (৩০) মৃত হাজী ছেহের আলীর পুত্র উলা মিয়া (৫০) ও আলী হোছন (৬০)। আহত দের মধ্যে ছুরত আলমের অবস্থা গুরুতর। তাকে উখিয়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান শুক্রবার বিকেলে কোর্ট বাজার ভালুকিয়া সড়কে একদল সন্ত্রাসী দা, লাটি ও গাছের বাটাম নিয়ে পরিকল্পিত ভাবে হামলা চালায়। হামলায় ছুরুত আলম সহ ৪ ব্যাক্তি আহত হয়। তৎ মধ্যে রক্তাত্ব অবস্থায় কক্সবাজার সিটি কলেজের অর্নাস শেষ বর্ষের ছাত্র ছুরুত আলমকে উদ্বার করে উখিয়া হাসপাতালে ভর্তি করে। আহত শফিউল আলম জানান মৃত গুরামিয়ার পুত্র নুরুল আলম ও আলীমিয়ার পুত্র শাহ জাহানের নেতৃত্বে ১০/১২ জন চিহ্নিত সন্ত্রাসী পূর্ব শূত্রতার জের ধরে আমাদের উপর প্রকাশ্যে সন্ত্রাসী হামলা চালায়। এ সময় সন্ত্রাসীরা নগদ টাকা ও মোবাইল ছিনিয়ে নেন। উক্ত ঘটনায় শফিউল আলম বাদী হয়ে উখিয়া থানায় এজাহার দায়ের করেছে বলে জানা গেছে। গ্রাম বাসীরা জানিয়েছেন তত্বাবধায়ক সরকারের সময় নুরুল আলম থানা পুলিশের কাছে অবৈধ অস্ত্র জমা দিয়েছিল বলে জন শ্রুতি রয়েছে। তদন্তকারী অফিসার এস আই আরিফুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন ঘটনায় জড়িত অপরাধীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •