আতঙ্ক আর উৎকণ্ঠায় পাহাড়

ডেস্ক নিউজ:
২৪ ঘণ্টা পেরুতে না পেরুতে পাহাড়ের দুই আঞ্চলিক দলের শীর্ষস্থানীয় দুই নেতাসহ ছয়জনের মৃত্যু হয়েছে। তাদের এই মৃত্যু ঘিরে নানান মহলে চলছে বিভিন্ন আলোচনা-সমালোচনা। জেএসএস (এমএনলারমা) কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি ও নানিয়ারচর উপজেলা চেয়ারম্যান শক্তিমান চাকমা এবং ইউপিডিএফ (গণতান্ত্রিক) আহ্বায়ক তপন জ্যোতি চাকমা ওরফে বর্মাকে হত্যা করা হয়েছে রাঙ্গামাটি জেলার নানিয়ারচর উপজেলায়। শীর্ষস্থানীয় এই দুই নেতার মৃত্যু ঘিরে জেলাজুড়ে সাধারণ মানুষের মনে আতঙ্ক বিরাজ করছে। যেকোন মুহূর্তে আরও ভয়াবহ কিছু হতে পারে এমন আতঙ্ক এখন মানুষের মনে।

অন্যদিকে একের পর এক এমন হত্যাকাণ্ডে উৎকণ্ঠা প্রকাশ করছেন সুশিল সমাজের নেতরা। রাঙ্গামাটি সুশিল সমাজের অন্যতম প্রতিনিধি জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের সাবেক সদস্য নিরুপা দেওয়ান বলেন, পাহাড়ের এসব ঘটনা অনাকাঙ্ক্ষিত। আমরা পার্বত্য এলাকার মানুষ শান্তিকামী। তাই প্রায় দীর্ঘ দুই যুগের অধিক সময় ধরে পার্বত্যাঞ্চলে চলা অরাজগতাকে দূর করে ১৯৯৭ সালে পাহাড়ে শান্তি চুক্তি করেছিলাম। শান্তি চুক্তির মধ্য দিয়ে আমরা আশা করেছিলাম পাহাড়ে শান্তি ফিরে আসবে। কিন্তু পাহাড়ে আবারও এমন অরাজগতা আমাদের ভাবিয়ে তুলছে। আমার মনে হয় শান্তি চুক্তি বাস্তবায়নের দীর্ঘ সময়ের জন্যে এমন অস্থিতিশীল পরিস্তিতি তৈরি হচ্ছে।

অন্যদিকে আসন্ন জাতীয় নির্বাচনকে কেন্দ্র করে একটি পক্ষ পাহাড়কে অস্থিতিশীল করে তুলতে চাচ্ছে এমন মন্তব্য করে বাংলাদেশ আদিবাসী ফোরামের সভাপতি প্রকৃত রঞ্জন চাকমা বলেন, ‘সামনে জাতীয় নির্বাচন। আর নির্বাচনকে কেন্দ্র করে এমন অস্থিতিশীল পরিস্থিতি তৈরির চেষ্টা চলতে পারে বলে আমি মনে করি। কারণ এমন কর্মকাণ্ড নির্বাচনে প্রভাব ফেলতে পারে।’

তিনি আরো বলেন, আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে সিদ্ধান্ত নিতে হবে কোন পথ অবলম্বন করলে এমন পরিস্থিতি সামলানো যাবে। যদি এখনই এই সমস্যার সমাধান করা না হয় তাহলে সামনে পার্বত্য এলাকার মানুষের জীবনে এটা বড় সমস্যা হয়ে দাঁড়াবে।

এদিকে রাঙ্গামাটিতে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী জোরদার করা হয়েছে মন্তব্য করে পুলিশ সুপার মো.আলমগীর কবীর বলেন, জেলাজুড়ে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষার জন্যে পুলিশ তৎপর রয়েছে। সর্তকতার সঙ্গে পুলিশ কাজ করে যাচ্ছে।

তবে উৎকণ্ঠা কিংবা ভয়ের কারণ নেই মন্তব্য করে জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদ জানান, রাঙ্গামাটি পরিস্থিতি বর্তমানে স্বাভাবিক রয়েছে। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী নিরাপত্তার বিষয়ে সর্তক নজর রাখছে।

সর্বশেষ সংবাদ

অগ্নিকান্ডে মৃতের সংখ্যা ৬৮, হস্তান্তর ৩৪টি : তদন্ত কমিটি গঠন

একুশের প্রথম প্রহরে শহীদ মিনারে মুক্তিযোদ্ধা সংসদের শ্রদ্ধা নিবেদন

সুন্দর হস্তলিপিতে প্রথম সাংবাদিকপুত্র উমামা

অগ্নিকাণ্ডে নিহতরা শহীদ : আল্লামা আহমদ শফী

বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্য দিয়ে রামু আজিজুল উলুম মাদ্রাসায় মাতৃভাষা দিবস পালিত

রায় বাংলায় লিখতে বিচারকদের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান

দৈনিক কক্সবাজার পত্রিকায় ‘জমি দেব ঘুষ দেব না’-শীর্ষক সংবাদের আংশিক প্রতিবাদ

একুশের প্রভাতে কক্সবাজার ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের শ্রদ্ধাঞ্জলি

হুফফাজুল কুরআন সংস্থার উদ্যোগে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন

অপহরণকারী গুজবে ৩ জার্মান সাংবাদিকের উপর রোহিঙ্গাদের হামলা

চকরিয়ায় হেলিকপ্টারে এসে মাদ্রাসা উদ্বোধন করলেন আল্লামা আহমদ শফি

বেনাপোল নোম্যান্সল্যান্ডে দু‘বাংলার হাজার হাজার ভাষাপ্রেমী মানুষের মিলন মেলা

শহীদ মিনারে ইইডি কক্সবাজার জোনের শ্রদ্ধা নিবেদন

মানবপাচারের মামলায় চৌফলদন্ডী ছাত্রলীগ নেতা জিকু গ্রেফতার

আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে রামু লেখক ফোরামের আলোচনা সভা

শহীদ মিনারে জেলা পরিষদের শ্রদ্ধা নিবেদন

একুশ তুমি

চট্টগ্রাম শহীদ মিনারে কক্সবাজার সমিতির শ্রদ্ধা নিবেদন

শহীদ মিনারে আইনজীবী সমিতির শ্রদ্ধা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

শহীদ মিনারে জেলা পুলিশের শ্রদ্ধা নিবেদন