সৈকত পরিচ্ছন্নতা দিয়ে দৃষ্টান্ত দেখালো ছাত্রলীগ: প্রতিমন্ত্রী পলক

শাহেদ মিজান, সিবিএন:
তথ্য ও প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, রাজনীতি মানে শুধু মিছিল, সভা-সমাবেশ করা নয়। রাজনীতি হলো সামাজিক ও সাংস্কৃতি ক্ষেত্রেও সমভাবে কাজ করা। কারণ দেশ ও সমাজের উন্নতিই রাজনীতির মূল কথা। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এই শিক্ষাটি দিয়ে গেছেন। তিনি মিছিল, সভা-সমাবেশের মতো সামাজিক ও সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডকে সমানভাবে গুরুত্ব দিতেন। ভাষা আন্দোলন, মুক্তিযুদ্ধে সামাজিক ও সাংস্কৃতিক আন্দোলনের অবদান কম ছিলো না। কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগ বিষয়টিকে গুরুত্ব দিয়ে সৈকত পরিচ্ছন্নতার যে উদ্যোগ নিলো তা দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে।

সোমবার কক্সবাজার সৈকতে জেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে আয়োজিত “আমাদের সমুদ্র রাখিব বিশুদ্ধ” শ্লোগানে সৈকত পরিচ্ছন্নতা অভিযান উদ্বোধকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী একথা বলেন।

জুনাইদ আহামদ পলক আরো বলেন, কক্সবাজার সমুদ্র সৈকত শুধু কক্সবাজারের নয়; এটি বাংলাদেশের সম্পদ। এই সৈকত উন্নত করতে পরিচ্ছন্ন রাখতে হবে। ছাত্রলীগ পরিচ্ছন্নতার যে উদ্যোগ নিলেন তা প্রশংসনী। তবে আমি একটি কথা বলতে চাই, সৈকতে যদি ময়লা না ফেলা হয় তাহলে পরিস্কারের দরকার নেই। সৈকতে বিচরণ প্রতিটি মানুষ যদি নিজের ময়লাটি নিজে সংরক্ষণ করেন তাহলে একটি ময়লা কোথাও থাকবে না। এই সচেতনতা তৈরি করতে হবে। এই জন্য তাদেরকে ভদ্রভাবে বিষয়টি বুঝিয়ে সচেতনতা তৈরি করতে ছাত্রলীগকে উদ্যোগ নিতে হবে। নিজেরা সচেতন হবো এবং ময়লা ফেলবো না।

জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইশতিয়াক আহমেদ জয়ের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত পরিচ্ছন্নতা অভিযানের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, মহেশখালী-কুতুবদিয়া আসনের সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিক, কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান লে. কর্ণেল (অব.) ফোরকান আহামদ, জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন, পুলিশ সুপার ড. ইকবাল হোসেন, ট্যুরিস্ট পুলিশের পুলিশ সুপার জিল্লুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এড. সিরাজুল মোস্তফা, সহ-সভাপতি রেজাউল করিম।

সভাপতির বক্তব্যে ইশতিয়াক আহমেদ জয় বলেন, ‘সমুদ্র সৈকত আমাদের অমূল্য সম্পদ। এই সৈকত দেখতে আসছে দেশ-বিদেশের প্রচুর পর্যটক। তাদের ভ্রমণকে আনন্দময় করতে হলে সৈকতকে পরিচ্ছন্ন রাখা অবশ্যই প্রয়োজন। সেই দায়বদ্ধতা থেকে ছাত্রলীগ সৈকত পরিচ্ছন্নতা অভিযানের উদ্যোগের নিয়েছে। আমরা এই অভিযান শুধু শুরু করেই দায়িত্ব শেষ করবো না। প্রতিমাসেই একবার করে পরিচ্ছন্নতা অভিযান চালানো হবে। ছাত্রলীগের বিভিন্ন ইউনিট পরিচ্ছন্নতা অভিযান অব্যাহত রাখবে।’

অভিযানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী যুব মহিলা লীগের সভাপতি আয়েশা সিরাজ, জেলা আওয়ামী লীগের উপ-দপ্তর সম্পাদক আবু তাহের আযাদ, স্টুডিও মালিক সমিতির সভাপতি কাজী রাসেল আহামদ নোবেল, জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম সম্পদ মারুফ ইবনে হোসাইন, উপ-দপ্তর সম্পাদক মইন উদ্দীন, শহর ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হাসান ইকবাল রিপন,  উখিয়া উপজেলা ছাত্রলীগ নেত্রী রোমানা তাসলিমাসহ ছাত্রলীগের বিভিন্ন স্তরের নেতাকর্মী।

সর্বশেষ সংবাদ

মুজিবুর রহমান ও এমপি জাফরের দোয়া নিলেন ফজলুল করিম সাঈদী

মাতৃভাষার প্রতি আগ্রহ হারাচ্ছে রাখাইনদের নতুন প্রজন্ম

শুদ্ধ সংস্কৃতির চর্চার মধ্য দিয়ে অপশক্তিকে রুখতে হবে- মেয়র মুজিব

একুশে ফেব্রুয়ারি : প্রাপ্তি ও প্রত্যাশা

টেকনাফে সাড়ে ১৫ লক্ষ টাকার স্বর্ণালংকার উদ্ধার

চকরিয়ায় শিশু ও নারী নির্যাতন মামলার ৫ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেপ্তার

২০ হাজার ইয়াবাসহ দুইজন আটক

এডভোকেট রানা দাশগুপ্তের সাথে কক্সবাজার জেলা নেতৃবৃন্দের মতবিনিময়

ইসলামে মাতৃভাষার গুরুত্ব ও তাৎপর্য

ঈদগাঁওতে পুজা কমিটির সম্মেলন নিয়ে সংঘাতের আশংকা

কক্সবাজার সিটি কলেজে শিক্ষকদের জন্য আইসিটি প্রশিক্ষণ শুরু

উখিয়ায় হাতির আক্রমণে রোহিঙ্গা যুবকের মৃত্যু

এস আলম গ্রুপের ৩ হাজার ১৭০ কোটি টাকার কর মওকুফ

মালয়েশিয়ায় ভবনে আগুন : বাংলাদেশিসহ নিহত ৬

মহেশখালীতে মনোনয়ন দৌড়ে এগিয়ে মোস্তফা আনোয়ার

চকরিয়ায় ইয়াবাসহ দুই ব্যবসায়ী আটক

চকরিয়ার চেয়ারম্যান পদে ২ জনসহ ৫ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল

কোর্টরুমে সাংবাদিকদের প্রবেশাধিকার নিশ্চিত করতে হবে : প্রধান বিচারপতি

পেকুয়ায় স্থাপনা নির্মাণ বন্ধ ও গাছ জব্দ

অধ্যাপক শফিউল্লাহ একজন চেইঞ্জ মেকার