সংবাদদাতা:
কক্সবাজার শহরের কলাতলী মোড়ের পূর্বপার্শ্বে উঠনি এলাকায় ঘেরাবেড়া দিয়ে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। প্রভাবশালীদের কারণে সাধারণ মানুষকে চলাচলে মারাত্নক দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। পাহাড়ী এলাকা হওয়ায় বিকল্প পথে হাঁটাচলাও দায় পড়েছে। এতেকরে শিক্ষার্থীদের পড়ালেখায় মারাতœক ব্যাঘাত ঘটছে।
স্থানীয় বাসিন্দা মোহাম্মদ আইয়ুব, নুরুল হুদা, সোলতান আহমদ, কফিল উদ্দিন, সেলিম উদ্দিন, নাসির উদ্দিন, রেহেনা আক্তার, সাবেকুন্নাহারসহ অন্তত একশত মানুষ গত ২২ মার্চ জেলা প্রশাসককে লিখিত অভিযোগে জানিয়েছে- তারা দীর্ঘদিন ধরে ওই পথে চলাচল করে আসছে। কিন্তু হঠাৎ স্থানীয় একটি প্রভাবশালী চক্র ঘেরাবেড়া দিয়ে তাদের চলার পথ বন্ধ করে দেয়। অনেকটা এলাকাবাসীকে জিম্মি করে রাখে। তাতে স্থানীয়রা অসহায় হয়ে পড়েছে। অভিযোগটি কক্সবাজার সদর সহকারী কমিশনার (ভূমি) অফিসে তদন্তাধীন বলে জানা গেছে।
জেলা প্রশাসকের কাছে দেয়া অভিযোগসুত্রে জানা গেছে, তাদের কয়েকজন ২০০০ সাল থেকে খরিদও ক্রয়সুত্রে জমির ভোগ দখলীয় মালিক। এখনো তারা ওই জমিতে বসতি করে আসছে। কিন্তু বাহারছরা এলাকার মো. শামসুল আলম, মো. নুরুল আলম, মো. মনছুর আলমসহ একটি দখলবাজচক্র হাইওয়ে রেস্টহাউজের নির্মাণাধীন সীমানা দেওয়ালের পার্শ্ববর্তী চলাচলের পথে টিনের ঘেরা তৈরী করে চলাচল বন্ধ করে দেয়।
স্থানীয়দের দাবী, ওই জায়গায় অভিযুক্তদের কোন স্বত্ত্ব ও দখল নেই। তারপরও গায়ের জোরে এলাকাবাসীর দীর্ঘ অন্তত ২ বছরের চলার পথ বন্ধ করে দিয়ে জায়গা দখলের অপচেষ্ট করছে। এমনকি তাদের উল্টো হুমকি দেয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ স্থানীয়দের।
এ প্রসঙ্গে কক্সবাজার সদর সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. নাজিম উদ্দিন জানান, বিষয়টি নিয়ে উভয়পক্ষকে ডাকা হয়েছে। কাগজপত্র যাচাই করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •