cbn  

ডেস্ক নিউজ:

ফেনীর দাগনভূইয়ার মাতুভূইয়া ইউনিয়নের আফ্রিকা প্রবাসী আওয়ামী লীগ নেতা ইমাম হেসেন টুটুলের স্ত্রীকে নিয়ে উধাও হয়েছেন দাগনভুইয়া পৌর ছাত্রলীগের নেতা তানভীর মাহমুদ।

ইমাম হেসেন টুটুলের স্ত্রী ফাতেমা আক্তার সাথী পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে গত মঙ্গলবার (৬ মার্চ) ফেনী সরকারি কলেজে অনার্স পরীক্ষা দেয়ার জন্য বাড়ি থেকে বের হয়ে ওই ছাত্রলীগ নেতার সঙ্গে উধাও হন।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, ২০১৪ সালের ২৬ জানুয়ারি দাগনভূইয়ার মাতুভূইয়া ইউনিয়নের মোমারিজপুর গ্রামের সৈয়দ আমিন বাড়ির খবির আহাম্মদের দক্ষিণ আফ্রিকা প্রবাসী ছেলে ইমাম হোসেন টুটুলের সঙ্গে নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলার আহাম্মদপুর গ্রামের চাপরাশি বাড়ির নূরনবীর মেয়ে ফাতেমা আক্তার সাথীর বিয়ে হয়।

বিয়ের পর ফাতেমা তার পড়ালেখা চালিয়ে যাবে মর্মে ফেনী সরকারি কলেজে ভর্তি হন। বিয়ের দুই মাস পর তার স্বামী টুটুল জীবিকার সন্ধানে আবার আফ্রিকায় চলে যান। বছর খানেক পর থেকে সাথীর প্রতি তার স্বামীর সন্দেহ জাগে। পরে তিনি গত ডিসেম্বর মাসে বাড়িতে আসেন।

পরে তিনি জানতে পারেন তার স্ত্রী সাথীর তার কলেজ বন্ধু ফেনী সরকারি কলেজ অর্থনীতি বিভাগের ছাত্র দাগনভূইয়া আলাইয়ারপুর গ্রামের হাছান আহাম্মদ দুলালের ছেলে তানভীর মাহমুদের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। পরবর্তীতে তিনি তার স্ত্রীকে অনেক বুঝানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু সেটি কোনো কাজে আসেনি।

গত মঙ্গলবার (৬ মার্চ) টুটুলের শ্বশুরবাড়ি থেকে তার স্ত্রী অনার্স পরীক্ষা দেয়ার জন্য কলেজে গেলে আর বাড়ি ফিরেননি স্ত্রী সাথী।

দাগনভূইয়া থানা পুলিশের ওসি আবুল কালাম আজাদ জানান, মেয়েটির বাবা ও স্বামী থানায় এসে বিষয়টি জানিয়েছেন। সাথী তানভীর নামে ওই ছেলের সঙ্গে পালিয়ে গেছে। তানভীর দাগনভুইয়া পৌর ছাত্রলীগের অন্যতম নেতা। পুলিশ তাদের খুঁজছে বলেও জানান ওসি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •